Advertisement
০৩ মার্চ ২০২৪
Gujarat Assembly Election 2022

‘কংগ্রেসকে বাঁচাতে পারে মুসলমানরাই’! গুজরাত ভোটের আগে হাত প্রার্থীর মন্তব্যে বিতর্ক

গেরুয়া শিবিরের দাবি, ‘‘এ ভাবে বিভাজনের রাজনীতি করছে বিজেপি। ধর্মনিরপেক্ষ ভাবমূর্তির আড়ালে এটাই কংগ্রেসের আসল মুখ।’’ সমাজমাধ্যমেও শুরু হয়েছে জোর প্রচার।

সংবাদ সংস্থা
আমদাবাদ শেষ আপডেট: ২০ নভেম্বর ২০২২ ১০:১৪
Share: Save:

সামনেই গুজরাতের বিধানসভা ভোট। সেই উপলক্ষে ভোটপ্রচারে গিয়ে এক কংগ্রেস প্রার্থীর মন্তব্যে তীব্র অস্বস্তিতে পড়ল হাত শিবির। কংগ্রেসের বিরুদ্ধে তোষণের রাজনীতি করার অভিযোগ তুলল বিজেপি।

গুজরাতের সিধপুর কেন্দ্র থেকে এ বার কংগ্রেস টিকিট দিয়েছে চন্দন ঠাকুরকে। শনিবার ওই বিধানসভা কেন্দ্রে একটি নির্বাচনী সভায় কংগ্রেস প্রার্থীকে বলতে শোনা যায়, ‘‘ওরা (পড়ুন বিজেপি) সারা দেশকে পিছিয়ে দিয়েছে। এই পরিস্থিতিতে যদি কেউ এ দেশকে রক্ষা করতে পারে, সেটা হল মুসলমান সম্প্রদায়।’’ চন্দন আরও বলেন, ‘‘এবং কেউ যদি কংগ্রেসকে রক্ষা করতে পারে, সেটাও হল এই মুসলমান সম্প্রদায়।’’

কংগ্রেস প্রার্থীর এই মন্তব্যকে হাতিয়ার করে পাল্টা প্রচারে নেমেছে বিজেপি। গেরুয়া শিবিরের দাবি, ‘‘এ ভাবে বিভাজনের রাজনীতি করছে বিজেপি। ধর্মনিরপেক্ষ ভাবমূর্তির আড়ালে এটাই কংগ্রেসের আসল মুখ।’’ সমাজমাধ্যমেও জোর প্রচার শুরু করেছে বিজেপি। ইতিমধ্যে ওই কংগ্রেস নেতার ভিডিয়ো ভাইরাল হয়ে গিয়েছে ফেসবুক এবং টুইটারে। গুজরাতের বিজেপি মুখপাত্র শেহজাদ পুনাওয়ালা টুইটারে লেখেন, ‘‘প্রকাশ্যে এবং স্পষ্ট মুসলিম তুষ্টিকরণের উদাহরণ! এটা কোনও সংযোগ যাত্রা নয়। প্রথমে হিন্দু আস্থাকে বেশ কয়েক জন কংগ্রেস নেতা অপব্যবহার করেছেন। এখন মুসলমান তুষ্টিকরণ চলছে!’’

বিতর্কের মুখে পড়ে ব্যাখ্যা দিয়েছে কংগ্রেস। ওই প্রার্থী বলেছেন তিনি শুধু একটি উদাহরণ দিতে গিয়ে হালকা ভাবে এই কথা বলেছেন। কংগ্রেস তোষণের রাজনীতিতে বিশ্বাস করে না। তাঁর কথায়, ‘‘যে কোনও উপায়ে মানুষকে বিপথে চালনা করতে চায় বিজেপি। গুজরাতে ছোট ব্যবসায়ীদের সর্বনাশ করেছে। গায়ের জোরে সব কিছু দখল করে মানুষের অধিকার খর্ব করছে ওরা। তবে দেশবাসীকে রক্ষা করবে কংগ্রেসই।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE