Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৪ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

পিঠে ঝুড়ি, স্ত্রীর পিঠে সন্তান, প্লাস্টিক-দূষণ রোধে পথ দেখাচ্ছেন এই আইপিএস অফিসার

মেঘালয়ের ওয়েস্ট গারো হিলসের ডেপুটি কমিশনার, আইপিএস রাম সিংহ। প্রতি সপ্তাহে ১০ কিলোমিটার হেঁটে স্থানীয় বাজারে যান জৈব শাক সবজি কিনতে। তাঁর পি

সংবাদ সংস্থা
শিলং ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ০৯:০৪
Save
Something isn't right! Please refresh.
সপরিবারে বাজারের পথে রাম সিংহ। ছবি: ফেসবুক থেকে নেওয়া।

সপরিবারে বাজারের পথে রাম সিংহ। ছবি: ফেসবুক থেকে নেওয়া।

Popup Close

পরিবেশ রক্ষার আন্দোলনের অন্যতম মুখ হতে পারেন এই আইপিএস অফিসার। তাঁর দেখানো পথ এখন অনুসরণ করছেন আরও কয়েকজন আইপিএস অফিসার।

মেঘালয়ের ওয়েস্ট গারো হিলসের ডেপুটি কমিশনার, আইপিএস রাম সিংহ। প্রতি সপ্তাহে ১০ কিলোমিটার হেঁটে স্থানীয় বাজারে যান জৈব শাক সবজি কিনতে। তাঁর পিঠে থাকে বাঁশের তৈরি বড় ঝুড়ি। বাঁশের তৈরি ঝুড়ির ব্যবহারে প্লাস্টিকের ব্যবহারেও রাশ পড়েছে। আর স্ত্রী পিঠে কাপড় দিয়ে বেঁধে নেন সন্তানকে।

রাম সিংহের দাবি, এর ফলে প্লাস্টিক কম ব্যবহার করা সম্ভব। সেই সঙ্গে তাঁর লক্ষ্য থাকে, গাড়ি যত কম ব্যবহার করা যায়। গাড়ির ব্যবহার কম করলেপরিবেশ দূষণও কমে। আর ১০ কিলোমিটার হাঁটলে শরীরও ভাল থাকবে। তাই প্রতি সপ্তাহে সপরিবারে হাঁটতে হাঁটতে অর্গানিক সবজি কিনতে স্থানীয় বাজারে পৌঁছে যান তিনি। তাঁকে দেখে আরও কয়েকজন আইপিএস অফিসার, স্থানীয় মানুষএকই পদ্ধতি অবলম্বন করছেন। তাঁরাও গাড়ি, প্লাস্টিক ব্যবহার কমাতে রাম সিংহের মতোই হেঁটে, ঝুড়ি হাতে বাজারে যাচ্ছেন।

Advertisement

আরও পড়ুন : খুলে গেল চিনের চোখ ধাঁধানো ‘স্টারফিস’ বিমানবন্দর, ভাইরাল অন্দরমহলের ভিডিয়ো

শনিবার রাম সিংহ তাঁর ফেসবুক প্রোফাইলে একটি ছবি পোস্ট করেছেন। সেখানে দেখা যাচ্ছে পিঠে বাঁশের তৈরি ঝুড়ি নিয়ে বাজারে সবজি কিনছেন তিনি। এর আগে ১৭ অগস্ট একটি ছবি পোস্ট করেন। সেখানে দেখা গিয়েছিল, হাঁটতে হাঁটতে সপরিবারে বাজারে যাচ্ছেন রাম সিংহ।

আরও পড়ুন : অবিশ্বাস্য! ৭ সেকেন্ডের মধ্যে দু’বার গোল বাঁচানোর এই ভিডিয়ো ভাইরাল

রাম সিংহের শনিবারের পোস্টটি প্রায় ২২০০ লাইক পেয়েছে। সেই সঙ্গে প্রচুর মানুষ তাঁর এই উদ্যোগের প্রশংসা করেছেন। রাম সিংহ জানিয়েছেন, তিনি বিগত ছ’মাস ধরে এই কাজ করছেন। এবং দেখেছেন,চেষ্টা করলে দূষণ বা প্লাস্টিক অনেকাংশেই এড়ানো যায়। আর আধুনিক যুগের যে সমস্যাগুলির সমাধান প্রথাগত পদ্ধতিতেই করতে হবে।





Something isn't right! Please refresh.

আরও পড়ুন

Advertisement