• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

মহিলা সাংবাদিকের পিছনে থাপ্পড় মারলেন যুবমন্ত্রী, ভাইরাল ভিডিয়ো

Runner Ban
অ্যালেক্স ও টমি। ছবি: টুইটার থেকে নেওয়া।

Advertisement

মহিলা সংবাদিকের পিছনে থাপ্পড় মেরে সারা জীবনের জন্য নিষেধাজ্ঞার মুখে পড়তে হল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের জর্জিয়ার ইউথ মিনিস্টারকে। মহিলা সাংবাদিকের পিছনে থাপ্পড় মারার সেই ভিডিয়ো ভাইরাল হয়ে গিয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

সম্প্রতি জর্জিয়ায় সাভানা স্পোর্টস কাউন্সিল পাঁচ কিলোমিটার রেসের আয়োজন করে। সেই দৌড় প্রতিযোগিতার লাইভ টেলিকাস্ট করছিলেন ডব্লুএসএভি-টিভির সাংবাদিক অ্যালেক্স বোজারজিআন। তখনই ক্যামেরায় ধরা পড়ে থাপ্পড় মারার ঘটনা। পরে যেটি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে।

ভিডিয়োতে দেখা যাচ্ছে, রাস্তা দিয়ে কয়েকশো প্রতিযোগী ছুটছেন। কেউ কেউ ক্যামেরার সামনে মুখ বাড়িয়ে, হাত নেড়ে যাচ্ছেন। তারই মাঝে এক ব্যক্তি মহিলা সাংবাদিকের গা ঘেঁসে যান। পরিষ্কার দেখা না গেলও বোঝা যায় কোথাও নিশ্চয়ই আঘাত লেগেছে। হতভম্ব হয়ে যান অ্যালেক্স। সেই মুহূর্তে বিষয়টি পরিষ্কার বোঝা না গেলেও পরে জানা যায়, ওই ব্যক্তি অ্যালেক্সের শরীরের পিছনের অংশে আঘাত করে যান।

দেখুন সেই ভিডিয়ো:

পরে জানা যায় মহিলা সংবাদিক অ্যালেক্সকে ‘আপত্তিকর’ভাবে আঘাত করায় অভিযুক্ত ওই ব্যক্তি জর্জিয়ার ইউথ মিনিস্টার, নাম টমি ক্যালাওয়ে।ঘটনার ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই অভিযুক্ত টমির পরিচয় জানা যায়।

অলেক্সনিজের টুইটার হ্যান্ডলে, গোটা ঘটনা নিয়েক্ষোভ উগরে দিয়েছেন। বিষয়টি যে তিনি মোটেই ভাল ভাবে নেননি তা পরিষ্কার উল্লেখ করেছেন।

রবিবার ওই দৌড় প্রতিযোগিতার আয়োজকরা জানিয়ে দেয়, তাদের আয়োজন করা আর কোনও প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে পারবেন না টমি। টমির উপর এই নিষেধাজ্ঞা আজীবন বজায় থাকবে।

মার্কিন সংবাদপত্র ওয়াশিংটন পোস্ট জানিয়েছে, অ্যালেক্স পুলিশকে বিষয়টি নিয়ে তদন্তের অনুরোধ করেছে। পুলিশও গোটা বিষয়টি খতিয়ে দেখছে বলে জানা গিয়েছে।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন