• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

‘ব্যক্তিগত প্রতিশোধ নিতে সেনা ব্যবহার করব না’, বাইডেনের নিশানায় ট্রাম্প

Joe Biden Donald Trump
—ফাইল চিত্র।

প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হলে সেনাবাহিনীকে নিজের সম্পত্তি হিসেবে ব্যবহার করবেন না তিনি। ব্যক্তিগত প্রতিশোধ নিতে সেনাবাহিনীকে কখনও কাজে লাগাবেন না। মন্তব্য মার্কিন প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী জো বাইডেনের। নভেম্বরের নির্বাচন ঘিরে সে দেশের রাজনীতিতে উত্তেজনার পারদ ক্রমশ চড়ছে। ডেমোক্র্যাট প্রার্থী বাইডেনের বিরুদ্ধে লাগাতার ব্যক্তিগত আক্রমণ শানিয়ে চলেছেন ট্রাম্প। বাইডেনের সহযোদ্ধা কমলা হ্যারিসকেও কড়া ভাষায় আক্রমণ করেছেন তিনি। তাতেই এ বার পাল্টা ট্রাম্পকে নিশানা করলেন বাইডেন।

এক কৃষ্ণাঙ্গকে লক্ষ্য করে পুলিশের গুলি চালানোর ঘটনায় এই মুহূর্তে উত্তপ্ত আমেরিকা। পুলিশি নৃশংসতার বিরুদ্ধে আন্দোলনে শামিল হয়েছেন হাজার হাজার মানুষ। বিক্ষোভ থামাতে গোটা ঘটনায় ট্রাম্প সরকারের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে আরও এক বার। সেই পরিস্থিতিতেই শনিবার ভার্চুয়াল কনফারেন্সের মাধ্যমে ন্যাশনাল গার্ড অ্যসোসিয়েশনের ১৪২তম সাধারণ সম্মেলনে যোগ দেন বাইডেন। সেখানে তিনি বলেন, ‘‘প্রেসিডেন্ট হলে কখনও সেনাবাহিনীকে নিজের সম্পত্তি বলে মনে করব না। ব্যক্তিগত প্রতিশোধ নিতে সেনাবাহিনীকে কখনও কাজে লাগাব না।’’

পুলিশের হাতে জর্জ ফ্লয়েড নামের এক কৃষ্ণাঙ্গ যুবকের মৃত্যু ঘিরে কয়েক মাস আগেও তেতে উঠেছিল আমেরিকা। বিক্ষোভ থামাতে সেইসময় দেশের বিভিন্ন জায়গায় সেনা নামায় ট্রাম্প সরকার। সেইসময় সমস্ত প্রদেশের গভর্নরকে সেনা নামিয়ে বিক্ষোভ দমন করার নির্দেশ দিয়েছিলেন খোদ ট্রাম্প। সেই প্রসঙ্গ টেনে বাইডেন বলেন, ‘‘এই ধরনের মানসিকতার ঊর্ধ্বে আমরা।  এর চেয়ে অনেক ভাল কেউ প্রাপ্য আপনাদের। আমাদের ধৈর্যের পরীক্ষা নেওয়া হচ্ছে। কিন্তু কথা দিচ্ছি, রাজনীতি এবং ব্যক্তিগত প্রতিশোধের মধ্যে কখনও জড়াব না আপনাদের।’’

আরও পড়ুন: দাউদকে নাগরিকত্ব দেওয়া হয়নি, দাবি ডমিনিকার​

আরও পড়ুন: তিব্বতকে ‘দুর্ভেদ্য দুর্গ’ বানাতে মগজধোলাইয়ের বার্তা চিনফিংয়ের​

নাগরিক ও সামরিক শক্তির মধ্যে বিভাজন থাকাই গণতান্ত্রিক দেশের মূল নীতি, ক্ষমতায় এলে দু’টির মধ্যে সরলরেখা টেনে দেখাবেন বলেও প্রতিশ্রুতি দেন বাইডেন।

করোনা পরিস্থিতিতে ভোটদান করতে গিয়ে যাতে কেউ সংক্রমিত না হন তার জন্য ইমেলের মাধ্যমে ভোটদানের পক্ষে দাবি উঠতে শুরু করেছে আমেরিকায়। কিন্তু তাতে প্রতারণা হতে পারে বলে পাল্টা যুক্তি দিয়েছেন ট্রাম্প। নির্বাচনে মানুষের রায় তাঁর বিপক্ষে গেলে, ফলাফল মেনে নেবেন না বলেও ইতিমধ্যেই জানিয়ে দিয়েছেন। কিন্তু ট্রাম্প পরাজয় না মানলে সেনাবাহিনীই তাঁকে হোয়াইট হাউস থেকে বার করে আনবে বলে দাবি বাইডেনের।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন