• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

দল ছেড়ে যেখানে খুশি যেতে পারেন পবন, নীতীশের পাল্টা ক্ষুব্ধ নেতাকে

Nitish Kumar
পবনের বিরুদ্ধে তীক্ষ্ণ মন্তব্য করলেন নীতীশ। ছবি: সংগৃহীত।

দিল্লি বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপির সঙ্গে জোট বাঁধা নিয়ে দলের অন্দরেই ক্ষোভের মুখে পড়েছিলেন বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমার। নীতীশের অবস্থান স্পষ্ট করতে বলে খোলা চিঠিতে নিজের ক্ষোভ উগরে দিয়েছিলেন দলীয় নেতা পবন কে বর্মা। এ বার পবনের বিরুদ্ধে তীক্ষ্ণ মন্তব্য করলেন নীতীশ। তাঁর সাফ কথা, দল ছেড়ে অন্য পার্টিতে যেতে পারেন পবন।

বৃহস্পতিবার সাংবাদিকদের সামনে পবন বর্মার বিরুদ্ধে নিজের ক্ষোভ চেপে রাখেননি সংযুক্ত জনতা দল (জেডিইউ) প্রধান নীতীশ। পবনের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘‘তিনি (দল ছেড়ে) যেতে  পারেন। এবং অন্য যে কোনও পার্টিতে যোগ দিতে পারেন। আমার আশীর্বাদ রইল।’’

মঙ্গলবার দলের সকলকে কার্যত হতবাক করে নীতীশ কুমারকে লেখা খোলা চিঠি টুইটারে পোস্ট করেন জেডিইউ-এর সাধারণ সম্পাদক পবন কে বর্মা। তাতে বিজেপিকে নিয়ে নীতীশের সঙ্গে নিজের ব্যক্তিগত কথোপকথনও উল্লেখ করেছিলেন পবন। বিজেপির নীতি যে দেশের পক্ষে ক্ষতিকারক এবং তা যে দেশকে বিপজ্জনক পরিসরে নিয়ে যাবে, নীতীশ এমনটাই তাঁকে বলেছিলেন বলে দাবি করেন পবন। পাশাপাশি তিনি লিখেছেন, ‘‘যখন আপনি (নীতীশ) ‘মহাগঠবন্ধন’ (মহাজোট)-এর অগ্রভাগে ছিলেন, সে সময় প্রকাশ্যেই আরএসএস-মুক্ত ভারতের আহ্বান জানিয়েছিলেন।’’ সেই সঙ্গে তাঁর দাবি, ‘‘আমার মনে আছে, একান্ত আলাপচারিতায় আপনি স্বীকার করেছিলেন, বিজেপির বর্তমান নেতৃত্ব কী ভাবে আপনাকে অপমান করেছিল...। এটাই যদি আপনার আসল মত হয়, তবে জেডিইউ কী করে বিহারের বাইরে বিজেপির সঙ্গে জোট গড়ছে, যখন তাদের অকালি দলের মতো তাদের দীর্ঘ দিনের জোটসঙ্গী তা করতে প্রত্যাখ্যান করে দিয়েছে।’’

আরও পড়ুন: শেষ ইচ্ছা জানাল না নির্ভয়ার চার আসামি, ফাঁসির দিনক্ষণ নিয়ে জোরালো হচ্ছে সংশয়

পবনের চিঠি প্রকাশ্যে আসামাত্র স্বাভাবিক ভাবেই চরম অস্বস্তিতে পড়েছে নীতীশের দল। এ নিয়ে বিরক্ত স্বয়ং নীতীশও। পবনের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘‘আমাদের প্রতি তাঁর (পবনের) শ্রদ্ধা না থাকলেও আমি তাঁকে সম্মান করি। তিনি যেখানে খুশি যেতে পারেন। আমাদের কোনও আপত্তি নেই। তবে সংযুক্ত জনতা দলকে তাঁর বোঝা উচিত।’’ এর পর  নাম না করে নীতীশের মন্তব্য, ‘‘কয়েক জনের বিবৃতিতে দলকে বিচার করবেন না। সংযুক্ত জনতা দল দৃঢ়তার সঙ্গে কাজ করে। আমাদের প্রতিটি বিষয়েই স্বচ্ছতা রয়েছে।’’

আরও পড়ুন: সৌদি যুবরাজের সঙ্গে ডিনারের মাসখানেক পরই বেজোসের ফোনে ফাঁদ, দাবি তদন্তকারীদের

স্বচ্ছতার প্রশ্নেও নীতীশের দিকে তির ছুড়েছেন পবন। এক দিকে নরেন্দ্র মোদী সরকারের বিরুদ্ধে বিহারে জাতীয় জনগণনাপঞ্জি (এনআরসি) করতে দেবেন না বলে হুঙ্কার দিলেও সংসদে সেই সরকারের আনা নাগরিকত্ব বিল (সিএবি)-তে ভোট দিয়েছিল জেডিইউ। সম্প্রতি দিল্লি বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপির সঙ্গে জোট বাঁধার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন নীতীশ কুমার। এই পরিস্থিতিতে বিজেপি নিয়ে নীতীশের অবস্থান স্পষ্ট করার দাবি জানিয়েছেন পবন। তবে নীতীশ মনে করেন, ‘‘যদি কারও কোনও বিষয়ে মতামত থাকে, প্রয়োজন হলে তা নিয়ে দলের মধ্যে আলোচনা হতে পারে। তবে এ ভাবে বিবৃতি দিয়ে নয়।’’ উল্টে নীতীশের প্রশ্ন, ‘‘এটা খুবই অবাক করার মতো বিষয় যে আমরা কী আলোচনা করেছিলাম, তা নিয়ে তিনি (পবন) বিবৃতি দিচ্ছেন। তবে আমি কী জানাব, আমরা কী নিয়ে আলোচনা করেছিলাম!’’

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন