• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

সারা রাত মর্গে কাটিয়ে সকালে বেঁচে ফিরলেন ‘মৃত’ কাশীরাম!

Deadbody
প্রতীকী চিত্র

Advertisement

এমনটা সাধারণত সিনেমাতেই হয়। মৃত ঘোষণা করে দিয়েছিলেন চিকিত্সক। সারা রাত মর্গে কাটিয়ে সেই ব্যক্তি ‘জীবিত’ হয়ে ফিরে এলেন। তবে এটা কোনও চিত্রনাট্য নয়, বাস্তব ঘটনা। আর এই ঘটনা মধ্যপ্রদেশের এক হাসপাতালের।

রাস্তায় অচেতন অবস্থায় শুয়ে থাকতে দেখে ৭২ বছরের কাশীরামকে মধ্যপ্রদেশের সাগরের বীণা সিভিল হাসপাতালে ভর্তি করা হয় বৃহস্পতিবার। পরে হাসপাতালে কর্তব্যরত চিকিত্সক পুলিশকে একটি নোট পাঠায়, সেখানে লেখা হয় কাশীরাম মৃত। রাত ৯টা নাগাদ সেই নোট বীনা থানার পুলিশের হাতে পৌঁছয়।

পরের দিন শুক্রবার সকালে এক পুলিশ কর্মী যান হাসপাতালের মর্গে, ময়নাতদন্তে উপস্থিত থাকার জন্য। কিন্তু সেখানে গিয়ে দেখা যায় কাশীরাম জীবিত রয়েছেন। তাঁর শ্বাসপ্রশ্বাস চলছে। সঙ্গে সঙ্গে হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিত্সককে খবর দেওয়া হয়। তিনিও পরীক্ষা করে বলেন, কাশীরাম জীবিত। ফের তাঁর চিকিত্সা শুরু হয়। তবে তাঁকে শেষপর্যন্ত বাঁচানো যায়নি। সকাল ১০টা ২০ মিনিটে তিনি মারা যান। পুলিশকে ফের সেই তথ্য জানিয়ে দেওয়া হয়।

আরও পড়ুন : রসুন ছাড়ানোর অভিনব পদ্ধতি, ভিডিয়ো দেখা হল ২কোটি বারের বেশি

আরও পড়ুন : ৬৫ হাজার টাকার বার্গার! দেখুন কী দিয়ে তৈরি

পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, বৃহস্পতিবারকাশীরামকে প্রথমে মৃত বলে ঘোষণা করা হয়। সেই রাতে জীবিত অবস্থায় তিনি মর্গেই পড়েছিলেন। তবে এর পরেই রাজ্য জুড়ে সমালোচনার ঝড় উঠেছে। অভিযোগ, এটা পরিষ্কার চিকিত্সায় গাফিলতির ঘটনা। গোটা বিষয়টি জেলা প্রশাসনকে জানানো হয়েছে। আইন মেনে যা ব্যবস্থা নেওয়ার তা নেওয়া হবে, গাফিলতিতে অভিযুক্ত চিকিত্সকের বিরুদ্ধে বিভাগীয় তদন্ত হবে বলে জানিয়েছেন জেলার মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিক আরএস রোশন।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন