Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০৪ অক্টোবর ২০২২ ই-পেপার

PRESENTS
CO-POWERED BY

Debt Fund: ভবিষ্যতের জন্য বড় তহবিল গড়তে চান? ভরসা রাখুন ডেট ফান্ডে

বিভিন্ন ধরনের মিউচুয়াল ফান্ডের মধ্যে একটি হল ডেট মিউচুয়াল ফান্ড বা ঋণ তহবিল। ক্রমশ এই ধরনের ফান্ড জনপ্রিয় হয়ে উঠছে।

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ২৯ ডিসেম্বর ২০২১ ০৯:৪৮

প্রতীকী ছবি।

ব্যাঙ্ক হোক বা পোস্ট অফিস, যে কোনও স্থায়ী সঞ্চয় প্রকল্পেই সুদের হার তলানিতে এসে ঠেকেছে। অন্য দিকে আবার শেয়ার বাজারে ভাল রিটার্নের সম্ভাবনা থাকলেও ঝুঁকি রয়েছে প্রবল। অথচ পরিকল্পনা রয়েছে ভবিষ্যতের জন্য বেশ বড় তহবিল গড়ার। এই অবস্থায় বুঝতে পারছেন না কী করবেন? চিন্তা নেই। আপনার জন্যই রয়েছে ডেট ফান্ড। পরিকল্পনামাফিক বিনিয়োগ করতে পারলেই ভবিষ্যতের জন্য সুনিশ্চিত করতে পারবেন বড় অঙ্কের আমানত।
ডেট মিউচুয়াল ফান্ডে বা ঋণ তহবিল বলতে ঠিক কী বোঝায়

বিভিন্ন ধরনের মিউচুয়াল ফান্ডের মধ্যে একটি হল ডেট মিউচুয়াল ফান্ড বা ঋণ তহবিল। ক্রমশ এই ধরনের ফান্ড জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। ডেট মিউচুয়াল ফান্ড ম্যানেজার মূলত সংগৃহীত অর্থ স্থায়ী ইনস্ট্রুমেন্টে বিনিয়োগ করেন। যেমন সরকারি বন্ড ও কর্পোরেট বন্ড, পিএসইউ বন্ড, কমার্শিয়াল পেপার, ট্রেজারি বিল এবং অন্যান্য সরকারি সিকিউরিটি (মানি মার্কেট ইনস্ট্রুমেন্ট) ইত্যাদি। এই বন্ড এবং মানি মার্কেট ইনস্ট্রুমেন্টগুলি তুলনামূলক ভাবে বেশি সুরক্ষিত। তবে ডেট মিউচুয়াল ফান্ডে বিনিয়োগের আগে বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ তথ্য অবশ্যই জেনে নেওয়া দরকার।

মেয়াদ
এই ডেট মিউচুয়াল ফান্ডগুলি সাধারণত মধ্য এবং দীর্ঘ মেয়াদী হয়ে থাকে। অর্থাৎ তিন বছর বা পাঁচ বছরের মেয়াদে এই ফান্ডগুলিতে বিনিয়োগ করা যেতে পারে।
মুনাফার পরিমাণ
সাধারণত ডেট মিচুয়াল ফান্ডে আট থেকে ১০ শতাংশ বার্ষিক চক্রবৃদ্ধি হারে সুদ পাওয়া যায়। যা নিঃসন্দেহে ব্যাঙ্কের মেয়াদি জমার চেয়ে ঢের ভাল। আর সেই কারণেই এর জনপ্রিয়তা নতুন প্রজন্মের কাছে বেড়েই চলেছে।

Advertisement

রিটার্ন
যে কোনও ফান্ডের রিটার্নই নির্ভর করে ওই ফান্ডের সময়সীমার উপরে। অর্থাৎ কত দিনের জন্য টাকা খাটছে, তার উপরে। বাজারচলতি ভাল কোনও ফান্ড ৩-৫ বছরে ১০ শতাংশ পর্যন্ত রিটার্ন দিতে পারে। অবশ্যই এই রিটার্ন নির্ভর করে সেই সময়ের বাজারের উপর।
সরকার না কি কোনও বেসরকারি সংস্থা কে ওই বন্ড বা ডিবেঞ্চার ছাড়ছে, তার উপরে নির্ভর করে ফান্ডের ঝুঁকি।

প্রতীকী ছবি।

প্রতীকী ছবি।


সম্ভাব্য ঝুঁকি
ডেট ফান্ডগুলিকে তুলনামূলক ভাবে ইক্যুইটি ফান্ডের চেয়ে অনেক বেশ স্থিতিশীল বলে মনে করা হলেও কিছু ক্ষেত্রে এই ধরনের ফান্ডেও ঝুঁকি থেকে যায়। কারণ বন্ড এবং মানি মার্কেটের ইন্সট্রুমেন্টগুলি সময়মতো অর্থ প্রদান করতে ব্যর্থ হতেই পারে। আর্থিক দুর্দশা বা অন্য কোনও কারণে যা ফান্ডের মোট রিটার্নের উল্লেখযোগ্য অংশকে ঝুঁকিপূর্ণ করে তোলে।
উদাহরণ হিসাবে ধরা যাক কোনও ব্যক্তি এই বন্ডকে ১০ বছর পর্যন্ত ধরে রেখেছেন। সময়সীমা বেশি হওয়ার কারণে বাজার ওঠানামার সম্ভাবনাও বেশি থাকে। সে ক্ষেত্রে লাভের পরিমাণ যেমন থাকে তেমনই ক্ষতির আশঙ্কাও থাকে। একই সমস্যা হতে পারে কম সময়কালীন বন্ডের ক্ষেত্রেও।
অন্য দিকে ফান্ডের রেটিং দেখেও এই ঝুঁকির আভাস পাওয়া যায়। ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা বাজারের বিভিন্ন মূল্যায়ন সংস্থাগুলি বিভিন্ন বন্ডকে রেটিং দেয়। রেটিং যদি খারাপ হয় তা হলে ঝুঁকি বেশি থাকে। রেডিং ভাল হলে অবশ্যই ঝুঁকি কম।

খরচ
এই ধরনের ফান্ডগুলির ক্ষেত্রে দু’টি প্রধান খরচ রয়েছে— এগজিট লোড এবং এক্সপেন্স রেশিও। এগজিট লোড কী? মেয়াদ শেষ হওয়ার আগেই যদি কোনও ব্যক্তি তার হাতে থাকে ইউনিট বিক্রি করে দেন তা হলে বিক্রি হওয়া ইউনিট থেকে প্রাপ্য অর্থের একটি নির্ধারিত পরিমাণ কেটে নেওয়া হয়। এই অর্থ কেটে নেয় সংশ্লিষ্ট ফান্ড হাউস। এই অর্থের পরিমাণ হয় এক শতাংশ। যা সেবি দ্বারা নির্ধারিত হয়।
এক্সপেন্স রেশিও বলতে বোঝায় ফান্ড ম্যানেজারের সমগ্র ফান্ডের তদারকির জন্য প্রাপ্য পারিশ্রমিক। যা সাধারণত ০.২৫ থেকে এক শতাংশ হয়ে থেকে। এটিও বিক্রি হওয়া ইউনিট থেকে প্রাপ্য অর্থের থেকে একটি নির্ধারিত পরিমাণ কেটে নেওয়া হয়। এই অর্থও কেটে নেয় সংশ্লিষ্ট ফান্ড হাউস। এর পরেই অবশিষ্ট অর্থ আপনার অ্যাকাউন্টে পাঠানো হয়

Advertisement