• নিজস্ব প্রতিবেদন 
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

উদ্বোধন বাতিল করে সাহায্য সেনা-পরিবারকে

IPL
উদ্বোধনী অনুষ্ঠান হচ্ছে না এ বারের আইপিএলে।—ফাইল চিত্র।

পুলওয়ামা কাণ্ডের পরে সারা দেশে ক্ষোভ ও শোকের বাতাবরণ। এই পরিস্থিতিতে আসন্ন আইপিএলে কোনও ঝাঁ চকচকে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান করতে নারাজ সুপ্রিম কোর্ট নিযুক্ত কমিটি অফ অ্যাডমিনিস্ট্রেটর্স (সিওএ)। ফলে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান হচ্ছে না এ বারের আইপিএলে। ওই অনুষ্ঠানের জন্য বরাদ্দ করা অর্থ পুলওয়ামায় নিহত জওয়ানদের পরিবারের সাহায্যার্থে ব্যয় করা হবে। শুক্রবার দিল্লিতে ভারত-পাক ক্রিকেট নিয়ে সিওএ-র যে বৈঠক হয়, তাতে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

আইপিএলের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান মানে গ্লামারসর্বস্ব বলিউড তারকাদের নিয়ে ঝাঁ চকচকে অনুষ্ঠান। গত বছর আইপিএলের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ঋত্বিক রোশন, বরুণ ধওয়ন, প্রভু দেবা ও জ্যাকলিন ফার্নান্ডেজরা মাতিয়ে দিয়েছিলেন মুম্বইয়ের ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়াম। সে দিনই মুম্বই ইন্ডিয়ান্স ও চেন্নাই সুপার কিংসের মধ্যে ম্যাচ দিয়ে আইপিএল ১১ শুরু হয়। এ বারেও সে রকমই উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের মাধ্যমে আইপিএল ১২ শুরুর পরিকল্পনা থাকলেও শেষ পর্যন্ত তা বাতিল করে দেওয়া হল।    

কাশ্মীরে সাম্প্রতিক জঙ্গি হানার ভয়ঙ্কর ঘটনায় ৪০জন ভারতীয় জওয়ান নিহত হওয়ায় দেশে এখন যা পরিবেশ, তার মধ্যে এমন অনুষ্ঠান না করাই ভাল বলে মনে করেন সিওএ সদস্যরা। সিওএ প্রধান বিনোদ রাই শুক্রবার বৈঠকের পরে বলেন, ‘‘আইপিএলের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান এ বার করছি না আমরা। এর জন্য যে অর্থ বরাদ্দ করা ছিল, সেই অর্থ দিয়ে নিহত জওয়ানদের পরিবারকে সাহায্য করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।’’

এর আগে নিহত জওয়ানদের পরিবারগুলিকে সাহায্য করতে এগিয়ে এসেছেন ক্রিকেটারেরা। গত সপ্তাহে মহম্মদ শািম আর্থিক সহায়তা করেছেন। তার আগে প্রাক্তন ভারতীয় ওপেনার বীরেন্দ্র সহবাগ জানিয়েছেন, তিনি নিহত জওয়ানদের পরিবারের শিশুদের পড়াশোনার দায়িত্ব তুলে নেবেন। এ বার রঞ্জি ও ইরানি ট্রফি জয়ী বিদর্ভ দলও পুরস্কার অর্থ তুলে দিয়েছে বিপন্ন পরিবারগুলির সাহায্যে।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন