• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

মনদীপদের আক্রমণাত্মক হকিতে মুগ্ধ ধনরাজেরাও

পাঁচ গোল দিয়ে হকি বিশ্বকাপে অভিযান শুরু ভারতের

Hockey
উল্লাস: ভারতের প্রথম গোল করার পরে সতীর্থদের সঙ্গে মনদীপ সিংহ। বুধবার হকি বিশ্বকাপে। ছবি: গেটি ইমেজেস।

ভারত ৫ • দক্ষিণ আফ্রিকা ০

ঘরের মাঠে বিশ্বকাপ অভিযান দুরন্ত ভাবেই শুরু করল ভারত। বুধবার ওড়িশার কলিঙ্গ স্টেডিয়ামে ‘গ্রুপ সি’-র ম্যাচে দক্ষিণ আফ্রিকাকে ৫-০ উড়িয়ে দিল হরেন্দ্র সিংহের ছেলেরা। ভারতের হয়ে জোড়া গোল করলেন সিমরনজিৎ সিংহ (৪৩ ও ৪৬ মিনিট)। বাকি গোলদাতারা হলেন, মনদীপ সিংহ (১০মিনিট), আকাশদীপ সিংহ (১২ মিনিট) ও ললিত উপাধ্যায় (৪৫মিনিট)।

ম্যাচের পরে ভারতীয় কোচ হরেন্দ্র সিংহ প্রশংসা করেন আকাশদীপ সিংহের, ‘‘আকাশদীপকে লিঙ্কম্যান হিসেবে নামিয়েছিলাম। গোল করে ও গোল করিয়ে লিঙ্কম্যান হিসেবে বিধ্বংসী মেজাজে খেলল আকাশদীপ।’’ ভারতীয় কোচ সঙ্গে আরও বলেন, ‘‘পনেরো বছর পিছিয়ে গিয়ে মনে করুন, ২০০২ বিশ্বকাপের পরে ধনরাজ পিল্লাই খেলা তৈরি করতেন। আর গোল করতেন দীপক ঠাকুর ও প্রভজ্যোৎ সিংহ। আজ সে রকম আকাশও নেতৃত্ব দিয়ে খেলল।’’

১৯৭৫ সালে কুয়ালা লামপুরে অনুষ্ঠিত হকি বিশ্বকাপে প্রথম ও শেষ বার চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল ভারত। তাই ৪৩ বছর পরে এ বার ঘরের মাঠে দ্বিতীয় বার চ্যাম্পিয়ন হওয়ার স্বপ্ন ভারতীয় খেলোয়াড়দের। দলের কোচ হরেন্দ্রও আক্রমণাত্মক হকি খেলায় বিশ্বাসী। বিশ্ব হকির র‌্যাঙ্কিংয়ে এই মুহূর্তে পাঁচ নম্বরে ভারত। সেখানে তাদের প্রতিদ্বন্দ্বী দক্ষিণ আফ্রিকা রয়েছে দশ ধাপ নিচে ১৫ নম্বরে। 

আরও পড়ুন: ‘আমরা আগ্রাসীই থাকব’ ক্লার্কের মন্তব্যের পর জবাব পেনের

দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে শুরু থেকেই আগ্রাসী মেজাজে খেলতে শুরু করে ভারতীয় দল। দক্ষিণ আফ্রিকা রক্ষণে একের পর এক আক্রমণ তুলে আনতে শুরু করেন মনপ্রীত সিংহরা। যার ফলে প্রথম কোয়ার্টারেই মনদীপ ও আকাশদীপের গোলে এগিয়ে যায় ভারত। দ্বিতীয় কোয়ার্টারে কোনও গোল পায়নি ভারত। এই সময় ভারতীয় রক্ষণে পাল্টা চাপ সৃষ্টি করেছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। কিন্তু ভারতীয় গোলরক্ষক সৃজেশ তৎপর থাকায় বিপদ হয়নি। যে প্রসঙ্গে ভারতীয় কোচ বলছেন, ‘‘২-০ এগিয়ে গিয়ে আত্মতুষ্ট হয়ে পড়েছিল কেউ কেউ। সেই সুযোগেই মাঝমাঠে লোক বাড়িয়ে ভারতীয় রক্ষণে চাপ বাড়িয়েছিল দক্ষিণ আফ্রিকা।’’

আরও পড়ুন: জলের ক্রেটে আছড়ে ফেলে বিতর্কে জোসে

তৃতীয় কোয়ার্টারের শেষ দিকে ফের এগিয়ে যায় ভারত। এ বার গোল করেন সিমরনজিৎ। মনদীপ দক্ষিণ আফ্রিকার ডিফেন্ডারদের কাটিয়ে বাড়িয়েছিলেন এই গোলের বল। এর সময়ে চার মিনিটের মধ্যে তিন গোল করে দক্ষিণ আফ্রিকার ম্যাচে ফেরার আশা শেষ করে দেয় ভারত। ভারতের চতুর্থ গোলটি করেন ললিত উপাধ্যায়। পঞ্চম গোলটি সিমরনজিতের।

এ দিন হাজির ছিলেন প্রাক্তন ভারতীয় অধিনায়ক ধনরাজ পিল্লাই। ম্যাচ শেষে বলে যান, ‘‘এ রকম আক্রমণাত্মক হকিই গোটা প্রতিযোগিতায় খেলে যাক ভারত।’’

ম্যাচের আগে ভারতীয় দলকে শুভেচ্ছা জানিয়ে সচিন তেন্ডুলকর টুইট করেছিলেন, ‘‘আজ ভুবনেশ্বরে বিশ্বকাপ হকিতে খেলতে নামা ভারতীয় দলকে শুভেচ্ছা। গোটা দেশের মতো আমিও তোমাদের উপর আস্থা রাখছি। যাও গিয়ে হারিয়ে এসো। চক দে ইন্ডিয়া।’ খেলা শেষে মাস্টার ব্লাস্টার অভিনন্দন জানিয়ে ফের টুইট করেন, ‘দক্ষিণ আফ্রিকাকে ৫-০ হারানোয় অভিনন্দন।’’ হরেন্দ্র যদিও বলেছেন, ‘‘পেনাল্টি কর্নার আরও বেশি কাজে লাগাতে হবে।’’

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন