পুলওয়ামায় সিআরপিএফ জওয়ানদের উপরে হামলার ঘটনার সমালোচনা করলেন শোয়েব আখতার। পাকিস্তানের প্রাক্তন ক্রিকেটার মনে করেন এই ঘটনার জেরে আসন্ন বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ম্যাচ বয়কট করতেই পারে ভারত।

পাকিস্তানের একটি টিভি চ্যানেলে শোয়েব বলেন, ‘‘ভারতের এই ম্যাচ থেকে সরে দাঁড়ানোর অধিকার রয়েছে। ওদের দেশ আক্রান্ত হয়েছে তাই এই সিদ্ধান্ত। এ ব্যাপারে পাল্টা কিছু বলার নেই।’’ তবে তিনি আরও যোগ করেছেন, ‘‘খেলাধুলো সঙ্গে কি রাজনীতিকে জড়িয়ে ফেলা উচিত? একেবারেই নয়। আমরা তীব্র নিন্দা করি প্রাণহানির। কিন্তু নিজের দেশের ব্যাপারে আমরা এককাট্টা এবং আমাদের প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যের পাশে দাঁড়াচ্ছি। এখানে অন্য কিছু ভাবার জায়গা নেই।’’

শোয়েবের মতে ভারতীয় বোর্ড পাকিস্তানের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক সিরিজ খেলতে চাইলেও, ভারত সরকার অনুমতি দেয়নি। ‘‘সত্যি কথা বলতে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড চায় পাকিস্তানের সঙ্গে সিরিজ হোক।  কারণ খেললে টিভি চ্যানেল আর ভারতীয় বোর্ডই আর্থিক দিক থেকে সব চেয়ে লাভবান হবে। সিরিজটার মূল্য দাঁড়াবে ৬০০ মিলিয়ন ডলার (প্রায় ৪২৬৬ কোটি টাকা)। অবশ্যই তাই ওরা চায় সিরিজটা হোক,’’ বলেন শোয়েব। তিনি আরও যোগ করেছেন, ‘‘আমাদের পাকিস্তান বোর্ড বলেছিল এই সিরিজ খেলতে তারা ইচ্ছুক। এবং সিরিজটা অন্য কোনও মাঠেও হতে পারে। তাতে অস্বীকার করার কিছু নেই। কিন্তু ভারতের বক্তব্য ছিল ওদের ক্রিকেট বোর্ড সুপ্রিম কোর্টের অধীন। ওদের এই কথায় যুক্তি আছে।’’

তবে, পুলওয়ামার ঘটনার পরে প্রাক্তন ভারতীয় ক্রিকেটারেরা যে ভাবে বিশ্বকাপে পাকিস্তান ম্যাচ বয়কটের ডাক দিয়েছিল তার সমালোচনা করেছেন শোয়েব। তিনি বলেন, ‘‘আমরা ক্রিকেট নিয়ে কথা বলব, রাজনীতি নিয়ে নয়। যখন এ রকম কোনও ঘটনা ঘটে তখন ক্রিকেটার হিসেবে যোগাযোগ রক্ষা করার কাজ করতে হবে। ক্রিকেটার হিসেবে খুব গুরুত্বপূর্ণ হল এমন কথা বলা যাতে একতা বাড়ে। উস্কানি নয়।’’

এদিকে, ভারতীয় বোর্ডের কমিটি অফ অ্যাডমিনিস্ট্রেটর্স পাকিস্তানের সঙ্গে ক্রিকেটীয় সম্পর্ক নিয়ে ক্রীড়ামন্ত্রক, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক এবং বিদেশমন্ত্রকের পরামর্শ নিতে শুক্রবার বৈঠকে বসছে। তবে এ ব্যাপারে এখনও পর্যন্ত আইসিসিকে কোনও চিঠি লেখা হয়নি।