• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

জাতীয় দলের ব্যাটিং কোচের যোগ্যতা নিয়ে প্রশ্ন, শাস্ত্রীরও সমালোচনা যুবরাজের মুখে

Yuvraj
শুধু রাঠৌরই নন, রবি শাস্ত্রীকেও খোঁচা দিয়েছেন যুবরাজ সিংহ। —ফাইল চিত্র।

ভারতের ব্যাটিং কোচ বিক্রম রাঠৌরের যোগ্যতা নিয়ে প্রশ্ন তুললেন যুবরাজ সিংহ। জাতীয় দলের প্রাক্তন অলরাউন্ডারের মতে, টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে ভারতীয় ক্রিকেটারদের কতটা গাইড করতে পারবেন রাঠৌর, তা নিয়ে যথেষ্ট সংশয় রয়েছে।

ইনস্টাগ্রামে এক সেশনে যুবরাজ বলেছেন, “বিক্রম রাঠৌর আমার বন্ধু। কিন্তু আপনারা কি মনে করেন যে টি-২০ প্রজন্মের ক্রিকেটারদের ও সাহায্য করতে পারবে? ওদের সাহায্য করার মতো সেই পর্যায়ের ক্রিকেট কি ও খেলেছে?” ১৯৯৬ সালে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেকের পর ছয় টেস্ট ও সাত ওয়ানডে খেলেছিলেন রাঠৌর। ১৯৯৭ সালে তাঁকে শেষ বার দেখা গিয়েছিল ভারতের প্রতিনিধিত্ব করতে।

কী ভাবে বিভিন্ন ক্রিকেটারদের থেকে সেরাটা বের করে আনা যায়, সেই ব্যাপারে যুবির টিপস, “আমি যদি কোচ হই তবে রাত ন’টায় গুডনাইট বলব জশপ্রীত বুমরাকে। আর রাত ১০টায় পানীয়ের জন্য সঙ্গে নিয়ে যাব হার্দিক পাণ্ড্যকে। বিভিন্ন ক্রিকেটারের সঙ্গে এ ভাবেই চলতে হয়।”

আরও পড়ুন: কোহালি ক্রিকেটের ফেডেরার, মত এবির

আরও পড়ুন: সচিনকে সৌরভ: ৪০০০ রান বাড়ত​

ঘুরিয়ে জাতীয় দলের প্রধান কোচ রবি শাস্ত্রীরও সমালোচনা করেছেন যুবরাজ। তিনি বলেছেন, “গিয়ে কথা বলা বা পরামর্শ নেওয়ার মতো কাউকে পাচ্ছে না জাতীয় দলের ক্রিকেটাররা।” কিন্তু শাস্ত্রীর কাজই তো ক্রিকেটারদের গাইড করা? যুবি বলেছেন, “জানি না রবি এটা কতটা করছে। হয়তো ওর মাথায় অন্য কিছু ঘুরছে। তবে সবাইকে তো আর এটা বলা ঠিক নয় যে, মাঠে নেমে নিজের খেলা মেলে ধর। এমন মানসিকতা বড় জোর বীরেন্দ্র সহবাগের ক্ষেত্রে কাজে আসতে পারে। কিন্তু চেতেশ্বর পূজারার ক্ষেত্রে এটা কখনও কাজে আসবে না। এগুলো কোচিং স্টাফকে উপলব্ধি করতে হবে।”

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন