Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২১ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

বরাত জোরে সুযোগ পাওয়া হনুমাই সিডনির নায়ক

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ১১ জানুয়ারি ২০২১ ১৮:৪০

প্রতিভাবান। টিমম্যান। দুরন্ত ডিফেন্স। নিখুঁত টেস্ট ক্রিকেটার। বিভিন্ন লোকে বিভিন্ন বিশেষণ বসিয়েছেন তাঁর নামের পাশে। ভারতীয় টেস্ট দলে গত দু’বছর তিনি যেন ‘অটোমেটিক চয়েস’ হয়ে গিয়েছেন। সেই হনুমা বিহারীকে নিয়েই চলতি সিরিজে উঠে গিয়েছিল প্রশ্নচিহ্ন। চোট পেয়ে কে এল রাহুল ছিটকে না গেলে এই টেস্টে তাঁর খেলারই কথা নয়। সিডনি টেস্টের প্রথম ইনিংসেও তাঁর আউট হওয়ার ধরন দেখে হাসাহাসি করছিলেন অনেকেই। যাবতীয় সমালোচনা উড়িয়ে পঞ্চম দিনে সেই বিহারীই হঠাৎ নায়ক।

দ্বিতীয় দিনেই চোট পেয়েছিলেন হ্যামস্ট্রিংয়ে। কিন্তু দলের প্রতি দায়বদ্ধতা তাঁকে মাঠের বাইরে বসিয়ে রাখতে পারেনি। উচ্চ ডোজের পেনকিলার ট্যাবলেট খেয়ে পঞ্চম দিন যখন ব্যাট করতে নামলেন, ভারতের সামনে হারের খাড়া দুলছে। রক্তের স্বাদ পেয়ে গিয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার পেসাররা। সব সামলে দিনের শেষে তাঁর নামের পাশে লেখা ১৬১ বলে ২৩ রান। অনেকেই যা সেঞ্চুরির থেকে কোনও অংশে কম বলে মনে করছেন না।

২০১২-য় ভারতের অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ জয়ী দলের সদস্য ছিলেন হনুমা। ঘরোয়া ক্রিকেটে খেলেন অন্ধ্র প্রদেশের হয়ে। ৮৮টি প্রথম শ্রেণির ম্যাচে রয়েছে ৭০৪৬ রান। আইপিএলেও একসময় নিয়মিত খেলেছেন সানরাইজার্স হায়দরাবাদের হয়ে।

Advertisement

ঘরোয়া ক্রিকেটে ঝুরি ঝুরি রান করা সত্ত্বেও একসময় জাতীয় দলে ব্রাত্য ছিলেন হনুমা। মিডল অর্ডারের ফাঁক বোজাতে তাঁকে দলে সুযোগ দেওয়া হয় ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ২০১৮-র সেপ্টেম্বরে। তৃতীয় ইনিংসে গিয়ে কেরিয়ারের প্রথম অর্ধশতরান করেন। ব্যাটিংয়ের পাশে পার্ট-টাইম বোলার হিসেবে তাঁর পারফরম্যান্স সহজেই দলে জায়গা মজবুত করে দেয়। খোদ বিরাট কোহালি পর্যন্ত অস্ট্রেলিয়া সফরে আসার আগে হনুমার দিকে আলাদা করে নজর রাখার কথা বলেছিলেন।

কিন্তু চলতি সিরিজে নিজের নামের প্রতি একেবারেই সুবিচার করতে পারেননি তিনি। শেষ চার ইনিংসে মাত্র ৪৯ রান করেছেন। রাহুলের বদলে প্রথম দুই টেস্টে দল মায়াঙ্ক আগরওয়ালে আস্থা রেখেছিল। তৃতীয় টেস্টের অনেক আগে থেকেই রাহুল দলে ঢোকার ব্যাপারে দাবিদার ছিলেন। শেষ মুহূর্তে চোটে ছিটকে যান।

নামের পাশে খুব বেশি রান না লেখা থাকলেও, বিহারীর এই ম্যাচ বাঁচানো ইনিংস তাঁর কেরিয়ারকে অন্য উচ্চতায় তুলে দিল বলে মনে করছেন ক্রিকেট বিশেষজ্ঞরা। চাপের মুখে উইকেট কামড়ে পড়ে থাকার যে নিদর্শন তিনি দেখালেন, তাতে বিদেশ সফরে ভারতের তুরুপের তাস হয়ে উঠতে পারেন অনায়াসেই। এই ইনিংস যে আগামী ইংল্যান্ড সফরের দলে তাঁর জায়গা পাকা করে দিল, তা নিয়ে সন্দেহ নেই।

আরও পড়ুন

Advertisement