Advertisement
২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২
BCCI

BCCI: ভারতীয় বোর্ড ‘দোকান’, দিতে হবে স্বাস্থ্যবিমা, বলল বম্বে হাই কোর্ট

বম্বে হাই কোর্ট নির্দেশ দিয়েছে, বোর্ডের বেতনভুক কর্মচারীদের স্বাস্থ্যবিমার আওতায় আনতে হবে। ভারতীয় বোর্ডকে ‘দোকান’ বলেছে আদালত।

মুম্বইয়ে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের সদর দফতর।

মুম্বইয়ে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের সদর দফতর। ফাইল চিত্র

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা শেষ আপডেট: ০১ জুলাই ২০২২ ১২:২৬
Share: Save:

সমস্যায় পড়ল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড (বিসিসিআই)। বম্বে হাই কোর্ট নির্দেশ দিয়েছে, এমপ্লয়িজ স্টেট ইনসিওরেন্স অ্যাক্টের (ইএসআই) আওতায় পড়বে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড। ফলে বোর্ডের বেতনভুক কর্মচারীদের স্বাস্থ্যবিমার আওতায় আনতে হবে। একই সঙ্গে ভারতীয় বোর্ডকে ‘দোকান’ বলেছে বম্বে হাই কোর্ট। মুম্বইয়ের ইএসআই আদালত আগে একটি নির্দেশে বলেছিল, বোর্ড তাদের কর্মচারীদের জন্য ইএসআই তহবিলে কত টাকা দেয়, তা জানাতে হবে। এই রায়ের বিরুদ্ধে বম্বে হাই কোর্টে আবেদন করে বোর্ড। বিচারপতি ভারতী ডাঙরে বোর্ডের আবেদনের বিরুদ্ধে রায় দিয়েছেন।

গত বছর সেপ্টেম্বরে ইএসআই আদালত তাদের রায়ে বলে, ইএসআই অ্যাক্টের ১(৫) ধারা অনুযায়ী মহারাষ্ট্র সরকার ১৯৭৮ সালে যে নোটিস জারি করে, সেই অনুযায়ী বিসিসিআই ‘দোকান’ (শপ)। যদিও ইএসআই আইনে কোথাও ‘শপ’-এর সংজ্ঞা নেই, আদালত অভিধানের সাহায্য নিয়ে বলে, যে বাড়ি বা বাড়ির কোনও অংশে কোনও পণ্য বা পরিষেবা বিক্রি হয়, সেটিই শপ বা দোকান। এই সংজ্ঞা তুলে ধরে বম্বে হাই কোর্ট বলে, যে হেতু বিসিসিআই বাণিজ্যিক কর্মকাণ্ড চালায় এবং টাকা রোজগার করে, তাই তারাও ‘শপ’। হাই কোর্ট বলে, ‘‘নিলামের মাধ্যমে বোর্ড সম্প্রতি টেলিভিশন স্বত্ব বিক্রি করেছে। এটাও বাণিজ্যিক ক্রিয়াকলাপ। আইপিএল থেকে তো বোর্ড আয়ই করছে। তা ছাড়া ম্যাচ আয়োজন করে বোর্ড তার টিকিটও বিক্রি করে। সেটাও বোর্ডের আয়। তাই যদিও বোর্ড বলে যে, তারা ক্রিকেটের উন্নতি এবং প্রসারের জন্য টাকা খরচ করে, কিন্তু বিভিন্ন ক্ষেত্রে বোর্ডের কাজকর্মের যা ধরন, সেটা সম্পূর্ণ বাণিজ্যিক।’’

বোর্ডের আইনজীবী আদিত্য ঠক্কর প্রথমে বলেন, বিসিসিআই হল দেশের জাতীয় ক্রিকেট সংস্থা। ১৯২৮ সাল থেকে এর অস্তিত্ব। যেহেতু এটি একটি অলাভজনক সংস্থা, এবং ক্রিকেটের উন্নতির জন্যই এই সংস্থা তৈরি হয়েছে, তাই কোনও ভাবেই একে ইএসআই অ্যাক্টের আওতায় আনা উচিত নয়।

রিজিওনাল ডিরেক্টর এমপ্লয়িজ স্টেট ইনসিওরেন্স কর্পোরেশনের আইনজীবী শৈলেশ পাঠক পাল্টা বলেন, বোর্ড ক্রিকেট ম্যাচের টিকিট বিক্রি করে। তাই এটি একটি লাভজনক সংস্থা এবং দোকান। এর ফলে বোর্ডকে ইএসআই অ্যাক্টের আওতায় আনা উচিত।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.