Advertisement
২১ জুন ২০২৪
Pakistan Super League

পাক ক্রিকেটারের স্ত্রীকে খুল্লমখুল্লা নৈবেদ্য কিউয়ি ক্রিকেটারের, শোরগোল

পাকিস্তানের আইপিএলে ইসলামাবাদ ইউনাইটেড এবং মুলতান সুলতানের ম্যাচ চলছিল। ইসলামাবাদ হারিয়ে দেয় মুলতানকে। সেই সময় ধারাভাষ্য দিচ্ছিলেন ডুল।

Hasan Ali\\\\\\\\\\\\\\\\\\\\\\\\\\\\\\\'s wife

পাকিস্তানের পেসার হাসান আলির স্ত্রী সামিয়া আরজু। ছবি: টুইটার

নিজস্ব প্রতিবেদন
শেষ আপডেট: ১০ মার্চ ২০২৩ ১০:৩৭
Share: Save:

পাকিস্তান সুপার লিগে ধারাভাষ্য দিতে গিয়ে বার বার চর্চায় সাইমন ডুল। নিউ জ়িল্যান্ডের প্রাক্তন ক্রিকেটার এর আগে পাকিস্তানের অধিনায়ক বাবর আজ়মকে স্বার্থপর বলেছিলেন। পাকিস্তানের আর এক ক্রিকেটার হাসান আলির স্ত্রী-র সম্পর্কে বিতর্কিত কথা বলে আবার চর্চায় ডুল। এ বারও ধারাভাষ্য দেওয়ার সময়ই এমন কাণ্ড ঘটালেন তিনি।

পিএসএলে ইসলামাবাদ ইউনাইটেড এবং মুলতান সুলতানের ম্যাচ চলছিল। সেই ম্যাচে ইসলামাবাদ হারিয়ে দেয় মুলতানকে। সেই সময় ধারাভাষ্য দিচ্ছিলেন ডুল। ইসলামাবাদ দলের ডাগ আউট এবং সমর্থকদের দেখানো হচ্ছিল। পাকিস্তানের পেসার হাসান আলির স্ত্রী সামিয়া আরজুকে তখন দেখানো হয়। ইসলামাবাদের জার্সি পরেছিলেন তিনি। সেই সময় ডুল বলেন, “উনি জিতে নিয়েছেন। আমি নিশ্চিত ভাবে বলতে পারি, বেশ কয়েক জনের হৃদয়ও জিতে নিয়েছেন উনি। দুর্দান্ত। অপূর্ব। জয়টাও দুর্দান্ত।”

ডুলের সেই বক্তব্য সমাজমাধ্যমে ছড়াতে বেশি সময় নেয়নি। অনেকেই মনে করছেন, ডুলের এই মন্তব্য নিছক প্রশংসা নয়। পাকিস্তানের ক্রিকেটারের স্ত্রীর প্রতি অশালীন ইঙ্গিত রয়েছে এর মধ্যে। কেউ কেউ মনে করছেন, ডুলের এই মন্তব্যের মধ্যে লালসা কাজ করেছে। ধারাভাষ্য দিতে গিয়ে কোনও মহিলাকে নিয়ে এ ভাবে খুল্লমখুল্লা মন্তব্য করা উচিত হয়নি।

এর আগে বাবরের খেলা নিয়ে সমালোচনা করেছিলেন নিউ জ়িল্যান্ডের প্রাক্তন ক্রিকেটার। বাবরের দল ২০ ওভারে ২৪০ রান তুলেও হেরে গিয়েছিল। বাবর শতরান করেছিলেন। কিন্তু ডুলের অভিযোগ, শতরান করার জন্য মন্থর গতিতে খেলছিলেন বাবর। পাকিস্তানের অধিনায়ক সাবধানী হয়ে যাওয়ার কারণেই কিছু রান কম ওঠে দলের। ডুল বলেন, “দলকে আগে রাখা উচিত ছিল। শেষ দিকে সেটা হল না। হাতে উইকেট ছিল। তা-ও বাউন্ডারি মারার দিকে নজর দিল না। শতরান সকলেই চায়। স্কোরবোর্ডে দেখতে ভাল লাগে। কিন্তু দলকে আগে রাখা উচিত।”

নিউ জ়িল্যান্ডের প্রাক্তন ক্রিকেটার ৩২টি টেস্ট এবং ৪২টি এক দিনের ম্যাচ খেলেছেন। ডানহাতি পেসার আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ১৩৪টি উইকেটের মালিক। ১৯৯২ সালে অভিষেক হয় তাঁর। ২০০০ সালে নিউ জ়িল্যান্ডের হয়ে শেষ ম্যাচ খেলেন।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE