Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৫ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

রাজনীতির মঞ্চের নতুন অধিনায়ক ওপারের মাশরফিকে দেখে এপারের দাদা-দিদিরা যেন শেখেন, আর্জি

আদর্শ নেতার মতো সবাইকে মিলিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করলেন বাংলাদেশের প্রাক্তন ক্রিকেট অধিনায়ক।

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ২০ মে ২০২১ ১১:৩৮
মাশরফি মোর্তাজা।

মাশরফি মোর্তাজা।
—ফাইল চিত্র

বাংলাদেশের ক্রিকেটার বা অধিনায়ক হিসেবে মাশরফি মোর্তাজা কতটা সফল তা পরিসংখ্যানই বলে দেয়। তবে তাঁর আরও একটি পরিচয় আছে। বাংলাদেশের সাংসদ তিনি। যুব এবং ক্রীড়া মন্ত্রণালয় বিষয়ক স্থায়ী কমিটির সদস্যও। নেটমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া একটি ভিডিয়োতে দেখা যাচ্ছে বিক্ষোভকারী জনতাকে শান্ত করছেন মোর্তাজা। ভারতীয় নেটাগরিকদের আর্জি, মোর্তাজাকে দেখে যেন এই দেশের নেতারা শিক্ষা নেন।

জনতার উদ্দেশে মোর্তাজা বলছেন, “আমি যে ৩ কিলোমিটার রাস্তা এলাম, দেখলাম ইটের দেওয়াল ভাঙা। বৃদ্ধ মহিলা, আমার মায়ের বয়সি, পায়ে ধরছেন। দেখলাম তাঁর ঘর ভেঙে গিয়েছে। কার ইন্ধনে করছেন এমন? তারা আপনাদের কী দেয়? খেতে দেয়? ধরে নিলাম আমার কথাতে করেছেন। আমি খেতে দিই? পরতে দিই? ছেলে মেয়ের পড়াশোনা করাই? হাসপাতালে ভর্তি করে দিই? তা হলে আমি কীসের নেতা?” এমন একের পর এক প্রশ্নে জনতাকে শান্ত করতে থাকেন তিনি।

মোর্তাজা বলেন, “আমার কথায় আপনি মারামারি করছেন। জেলে গেলে আপনার ছেলে মেয়ে দেউলিয়া হয়ে যাবে। পুলিশের কাজ পুলিশ করবে। আপনাকে ধরে নিয়ে যাবে। ঢাকা থেকে নেতা বলছে মেরে দিতে, আপনি মেরে দিলেন। আপনি জেলে যাবেন। সে এসে আপনার মামলা লড়বে? জেল তো আপনারাই খাটবেন। ওসি সাহেব এসে ধরে নিয়ে চলে যাবেন। মারামারি করবেন না। কথা বলে মিটিয়ে নিন। আপনারা কিন্তু কথা দিলেন আমাকে যে মারামারি করবেন না।”

Advertisement

আদর্শ নেতার মতো সবাইকে মিলিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করলেন বাংলাদেশের প্রাক্তন ক্রিকেট অধিনায়ক। নেটাগরিকরাও ভালবাসায় ভরিয়ে দিলেন তাঁকে। কেউ লিখলেন, 'প্রতিটা কথা মনের কথা। সাধারণ মানুষ এই জিনিসগুলো যত তাড়াতাড়ি বুঝবে ততই ভাল'। কেউ বললেন, 'এপারের নেতাদেরও এটা শেখা উচিত'।

আরও পড়ুন

Advertisement