Advertisement
২০ মে ২০২৪
IPL 2024

ভুল করে ডিআরএস নিয়ে ফেললেন পন্থ! আম্পায়ারের সঙ্গে কথা কাটাকাটি দিল্লি অধিনায়কের

ইশান্তের একটি বল মাঠের আম্পায়ার ‘ওয়াইড’ দিলে পছন্দ হয়নি পন্থের। ডিআরএস নেবেন কিনা, তা ভাবতে ভাবতেই রিভিউয়ের আবেদনের ইঙ্গিত করে ফেলেন দিল্লি অধিনায়ক।

picture of Rishabh Pant

ঋষভ পন্থ। —ফাইল চিত্র।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
কলকাতা শেষ আপডেট: ১২ এপ্রিল ২০২৪ ২২:৩১
Share: Save:

আইপিএলের দিল্লি ক্যাপিটালসের পারফরম্যান্স নিয়ে নানা প্রশ্ন উঠে গিয়েছে। এ বার প্রশ্ন উঠে গেল ঋষভ পন্থের অধিনায়কত্ব নিয়েও। শুক্রবার লখনউ সুপার জায়ান্টস ম্যাচে ভুল করে ডিআরএস নিয়ে বসলেন পন্থ। ভুল বুঝতে পেরে আম্পায়ারের সঙ্গে আবার তর্কও করলেন।

লখনউয়ের ইনিংসের চতুর্থ ওভারের ঘটনা। ইশান্ত শর্মার একটি বল ‘ওয়াইড’ দেন মাঠের আম্পায়ার। ব্যাটার দেবদত্ত পাড়িক্কলের পায়ের পিছনে পড়েছিল বলটি। সিদ্ধান্ত পছন্দ হয়নি পন্থের। রিভিউয়ের আবেদন করবেন কিনা ভাবতে ভাবতেই ডিআরএসের আবেদনের ইঙ্গিত করে ফেলেন। তা দেখে তৃতীয় আম্পায়ারকে রিপ্লে দেখে সিদ্ধান্ত জানানোর অনুরোধ করেন মাঠের আম্পায়ার। তত ক্ষণে টনক নড়ে পন্থের। তিনি আম্পায়ারকে বোঝানোর চেষ্টা করেন, ডিআরএসের জন্য আবেদন করেননি। রিভিউ নেবেন কিনা ভাবছিলেন শুধু। কিন্তু তাঁর যুক্তি মানেননি আম্পায়ার। তবু পন্থ আম্পায়ারের সঙ্গে তর্ক করতে থাকেন সিদ্ধান্ত ফিরিয়ে নেওয়ার জন্য। টেলিভিশন রিপ্লেতেও দেখা গিয়েছে, ভাবতে ভাবতে পন্থকে ডিআরএসের আবেদনের ইঙ্গিত করতে। শেষ পর্যন্ত তৃতীয় আম্পায়ারও জানিয়ে দেন ইশান্তের বল ‘ওয়াইড’ হয়েছে। ফলে একটি ডিআরএস নষ্ট হয় দিল্লির।

এই ঘটনার ছবি, ভিডিয়ো ভাইরাল হয়েছে সমাজমাধ্যমে। ক্রিকেটপ্রেমীরা সমালোচনা করেছেন পন্থের নেতৃত্বের। এক জন বলেছেন, পন্থ অপরিণত। নেতৃত্ব দেওয়ার যোগ্যই নয়। ভুলটা ওরই। আম্পায়ার ঠিক করেছেন।’’ আর এক জন আবার বলেছেন, ‘‘পন্থ কখনই ডিআরএস ঠিক করে নিতে পারে না। সবেতেই পরোয়াহীন মনোভাব ঠিক নয়।’’ লখনউ-দিল্লি ম্যাচ চলার সময়ই কটাক্ষ শুরু হয়ে যায়।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

IPL 2024 Rishabh Pant DRS Delhi Capitals
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE