Advertisement
০৩ ডিসেম্বর ২০২২
ফরাসি কাপ: মাঠেই সঙ্গী ক্রাচ, চ্যাম্পিয়ন্স লিগে অনিশ্চিত ফরাসি হরিণ
champions league

নেমারদের ট্রফি জয়ের সুর কাটল এমবাপের বড় চোটে

পরিস্থিতি এতটাই উদ্বেগের যে, লিসবনে অগস্টের দ্বিতীয় সপ্তাহে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ কোয়ার্টার ফাইনালে আটলান্টার বিরুদ্ধে তিনি খেলতে পারবেন কি না, তা নিয়ে কিছুটা হলেও সংশয় সৃষ্টি হল। 

চ্যাম্পিয়ন: ফরাসি কাপ ফাইনালে জিতে খেতাব প্যারিস সাঁ জারমাঁর। নেমারদের বিজয়োল্লাসে ক্রাচে ভর দিয়ে হাজির এমবাপে। ছবি: টুইটার।

চ্যাম্পিয়ন: ফরাসি কাপ ফাইনালে জিতে খেতাব প্যারিস সাঁ জারমাঁর। নেমারদের বিজয়োল্লাসে ক্রাচে ভর দিয়ে হাজির এমবাপে। ছবি: টুইটার।

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা শেষ আপডেট: ২৬ জুলাই ২০২০ ০৬:৪৩
Share: Save:

পিএসজি ১ • সঁত এতিয়েন ০

Advertisement

নেমার দা সিলভা সান্টোস জুনিয়রের একমাত্র গোলে ফরাসি কাপ জয়ের রাতেই প্যারিস সাঁ জারমাঁর জন্য মারাত্মক খারাপ খবর! সঁত এতিয়েনের অধিনায়ক লোয়িক পেহাঁর জঘন্য ট্যাকলে গোড়ালিতে বিশ্রী চোট পেয়েছেন পিএসজির স্ট্রাইকার কিলিয়ান এমবাপে। পরিস্থিতি এতটাই উদ্বেগের যে, লিসবনে অগস্টের দ্বিতীয় সপ্তাহে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ কোয়ার্টার ফাইনালে আটলান্টার বিরুদ্ধে তিনি খেলতে পারবেন কি না, তা নিয়ে কিছুটা হলেও সংশয় সৃষ্টি হল।

চিন্তিত পিএসজি ম্যানেজার থোমাস টুহেল জানিয়েছেন, চোট কতটা গুরুতর তা জানা যাবে মেডিক্যাল পরীক্ষার রিপোর্টের ভিত্তিতে। তিনি এই কথা বলার পরে প্রাথমিক ভাবে চিকিৎসকেরাও জানিয়েছেন, এমবাপের খুবই বাজে ভাবে গোড়ালি মচকেছে। আর পিএসজি তাদের বিবৃতিতে বলেছে, চোট গুরুতরই। তবে সেটা কতটা জটিল, তা বোঝা যাবে ৭২ ঘণ্টা পর্যবেক্ষণের পরে। শুক্রবার মাঠেই চিকিৎসা করে এমবাপেকে সুস্থ করার চেষ্টা হলেও তিনি আর খেলতে পারেননি। খোঁড়াতে খোঁড়াতে মাঠ ছাড়ার সময় হতাশায় কেঁদে ফেলেন। দ্বিতীয়ার্ধে টানেল হয়ে খেলা দেখতে স্টেডিয়ামে ফেরেন ক্রাচে ভর দিয়ে। যা দেখে সবাই আরও চিন্তায় পড়ে যান।

প্যারিসের স্টেডিয়ামে দর্শকাসন ৮০ হাজার। করোনার কারণে ফরাসি কাপ ফাইনাল দেখলেন মাত্র ২৮০৫ জন। স্টেডিয়ামে ছিলেন ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল মাকরঁও। খেলার শুরু থেকেই ছিল রীতিমতো চড়া মেজাজ। প্রথম মিনিটেই নেমারকে বিশ্রী ট্যাকল করা হয়। আর এমবাপে চোট পাওয়ার পরে তো দু’দলের ফুটবলারেরা হাতাহাতি শুরু করে দেন। রেফারি প্রথমে পেহাঁকে হলুদ কার্ড দেখিয়েছিলেন। পরে ‘ভিএআর’-এর সাহায্য নিয়ে সঁত এতিয়েনের অধিনায়ককে লাল কার্ড দেখিয়ে বার করে দেন। ম্যাচে বাকি এক ঘণ্টা দশ জনের বিপক্ষকে পেয়েও আর গোল পায়নি ফ্রান্সের সেরা ক্লাব। এমবাপে থাকলে হয়তো সেটা হত না। ১৪ মিনিটে পিএসজি-র একমাত্র গোলও এমবাপের শট প্রতিহত হওয়ার পরে করেন নেমার।

Advertisement

এমবাপের চোটে এতটাই উদ্বেগে ছিলেন পিএসজি ম্যানেজার যে ফরাসি কাপ জেতা নিয়ে তাঁর মধ্যে বিরাট কিছু উচ্ছ্বাস ছিল না। সাংবাদিক বৈঠকে টুহেল বলেন, ‘‘আমাদের প্রত্যেকে কিলিয়ানকে নিয়ে উদ্বেগে রয়েছে। এই রকম বিশ্রী একটা ফাউল দেখলে যে কেউ চিন্তায় পড়বে।’’ ঘটনায় হতাশ টুহেল যাবতীয় ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন সঁত এতিয়েনের উপরে। সমালোচনা করেছেন বিপক্ষের ‘শারীরিক’ ফুটবলের। বলেছেন, ‘‘এ বার এতিয়েনের সঙ্গে তিনটি ম্যাচ খেললাম। তিন বারই লাল কার্ডের ঘটনা ঘটল। এবং, প্রতিবারই সেটা হয়েছে খেলার তিরিশ মিনিটের মধ্যে।’’

চ্যাম্পিয়ন্স লিগ কোয়ার্টার ফাইনালের আগে লিয়ঁর বিরুদ্ধে পিএসজি খেলবে ফরাসি লিগ কাপ ফাইনালে। লিগ ওয়ান এবং ফরাসি কাপের পরে এই প্রতিযোগিতা জিতলে, নেমাররা ত্রিমুকুট পাবেন। তবে পরের শুক্রবার এমবাপে খেলতে পারেন কি না, সেটাও দেখার। পিএসজি অধিনায়ক থিয়াগো সিলভা অবশ্য এই রকম পরিস্থিতির মধ্যেও আশাবাদী। বলেছেন, ‘‘আশা করছি কিলিয়ান দ্রুত সুস্থ হবে। নিঃসন্দেহে ও আমাদের অন্যতম সেরা অস্ত্র।’’ এমবাপের ঘটনায় দুঃখ প্রকাশ করেছেন সঁত এতিয়েনের ম্যানেজার ক্লদে পুয়েও। তাঁর কথা, ‘‘আশা করছি কিলিয়ান ছোটখাটো চোটই পেয়েছে। ফাউলের জন্য দুঃখিত। তবে ও খুব দ্রুত আসছিল বলেই এতটা লেগে গেল।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.