Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০৭ ডিসেম্বর ২০২১ ই-পেপার

PRESENTS
POWERED BY
CO-POWERED BY
CO SPONSORS

Benarasi Saree: বিয়ের বেনারসী কিনতে যাচ্ছেন? কিছু বিষয় অবশ্যই মনে রাখুন

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ১৫ নভেম্বর ২০২১ ১৮:৩৩

প্রতীকী ছবি।

বাঙালি বিয়ে মানেই সাবেকিয়ানার ছোঁয়া। আর সেই সাবেকিয়ানায় বেনারসী থাকবে না তা কী করে হয়। হালফিলের বিয়ের সাজের খাতায় যতই ডিজাইনার লেহঙ্গা বা জমকালো পোষাক যোগ হোক না কেন, বাঙালি বিয়েতে এখনও বেনারসীর চাহিদা একদম প্রথমে।

বিয়েতে সব কনেই চান একদম নিখুঁত ভাবে সাজতে। বলা যায়, বিয়ের সাজ সম্পূর্ণ করে বেনারসী। বেশির ভাগ বিয়ের কনেই লাল রঙের বেনারসী বেশি পছন্দ করেন। কিন্তু বেনারসীর যে অনেকগুলি ধরন রয়েছে তা অনেকেরই জানা নেই।
তা ছাড়াও বিয়ের বেনারসী কেনার সময় বেশ কয়েকটি জিনিস অবশ্যই মনে রাখা প্রয়োজন।

১. বেনারসী শাড়ির ধরন এবং নকশায় অনেক বৈচিত্র রয়েছে। যেমন, কাতান বেনারসী, কোরা বেনারসী, জর্জেট বেনারসী, তানচোই বেনারসী ইত্যাদি। তাই বেনারসী কেনার আগে কোন ধরনের বেনারসী আপনার পছন্দ, বা কী ধরনের বেনারসী আপনাকে মানাবে সেই বিষয় আগে থেকে খানিক গবেষণা করে নেওয়া ভাল।

Advertisement

২. কোন সময় বিয়ে করছেন সেটা খেয়াল রেখে বেনারসী কেনা উচিত। যেমন বিয়ের মরসুম বছরের শেষ ভাগে হলে ভরপুর শীতের আমেজ থাকবে। সে ক্ষেত্রে একটু ভারী বেনারসী কেনাই যায়। অন্য দিকে গরমের সময়ে বিয়ে থাকলে হাল্কা বেনারসী কেনাই বাঞ্ছনীয়।

৩. বিয়েতে লাল রঙের বেনারসী তো সকলেই পরেন। একটু অন্য রকম কিছু পড়তে চাইলে লাল ছাড়া অন্য কোনও রঙের বেনারসীও ব্যবহার করতে পারেন। কমলা, রানি, বেগুনি রং বিকল্প হিসেবে বেছে নিতে পারেন।

একটু অন্য রকম কিছু পড়তে চাইলে কমলা, রানি, বেগুনি রং বিকল্প হিসেবে বেছে নিতে পারেন।

একটু অন্য রকম কিছু পড়তে চাইলে কমলা, রানি, বেগুনি রং বিকল্প হিসেবে বেছে নিতে পারেন।


৪. নিজের শারীরিক গঠন অনুযায়ী বেনারসী কেনা উচিত। আপনার শারীরিক গড়ন যদি লম্বা ও ছিপছিপে হয়, তা হলে ভারী কাজের চওড়া পারের শাড়ি পরতে পারেন। কিন্তু আপনার উচ্চতা যদি তুলনামূলক ভাবে কম হয়, বা আপনার চেহারা যদি একটু ভারী হয়, তা হলে সরু পাড়ের হাল্কা নকশার শাড়ি আপনার জন্য উপযুক্ত।

৫. শাড়ির রং বাছুন আপনার গায়ের রঙের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে। এমন রং বাছাই করবেন না যা আপনার গায়ের রঙের সঙ্গে একদম মানানসই নয়। শাড়ি বাছাইয়ের আগে অবশ্য এই বিষয়টির দিকে খেয়াল রাখুন। শ্যামবর্ণ গায়ের রঙের সঙ্গে হাল্কা গোলাপি রং বা পিচ রং পড়তে পারেন।

৬. প্রথমেই বাজেট ঠিক করুন। কারণ শাড়ির নকশা, জরির ধরন এবং কাপড়ের মানের উপর শাড়ির দাম নির্ভর করে। তাই বেনারসী কেনার আগে একটা বাজেট ঠিক করে নিলে, কেনার সময়ে কোনও সমস্যায় পড়তে হবে না।
৭. বেনারসী কেনার আগে ট্রায়াল দিতে ভুলবেন না যেন। কারণ নেটমাধ্যমে শাড়ি দেখে পছন্দ করা আর সেটা নিজের গায়ে দিয়ে ফেলে মধ্যে বিস্তর ফারাক রয়েছে। মনে রাখবেন, বিয়ের বেনারসী একবার আলমারিতে ঢুকলে সহজে কিন্তু বার হতে চায় না। তাই বেনারসী কেনার আগে অবশ্যই একবার ট্রাই করে দেখে নিন।

 জীবনের এই বিশেষ দিনটির জন্য সেরা দোকান থেকে সেরা জিনিসটি কেনাই শ্রেয়। 

জীবনের এই বিশেষ দিনটির জন্য সেরা দোকান থেকে সেরা জিনিসটি কেনাই শ্রেয়। 


৮. বেনারসী সর্বদা কোনও জনপ্রিয় বা নামী দোকান থেকেই কেনার চেষ্টা করুন। তাই জীবনের এই বিশেষ দিনটির জন্য সেরা দোকান থেকে সেরা জিনিসটি কেনাই শ্রেয়।
যেহেতু বাঙালি বিয়েতে লাল রঙই বেশি জনপ্রিয়, তাই অনেকেই লাল রঙের বেনারসীর প্রতিই বেশি ঝুঁকে পড়েন। খেয়াল রাখবেন, লাল রঙেরও অনেক ভাগ হয়। তাই ঠিক কোন লাল রংটি আপনার সঙ্গে মানাচ্ছে, সেটা দেখে নিয়ে তবেই কিনবেন। এ ছাড়াও আপনি কোনও পোষাক শিল্পীর সঙ্গে পরামর্শ করেও বেনারসী কিনতে পারেন।

Advertisement