Advertisement
২৯ জানুয়ারি ২০২৩
Bhangar

উত্তপ্ত ভাঙড়ে নতুন উত্তাপ, আবাস যোজনায় দুর্নীতির অভিযোগে পথে জমিরক্ষা কমিটি

মঙ্গলবার সকালে ভাঙড়ে পোলেরহাট পঞ্চায়েত এলাকায় পাওয়ার গিটের সামনে বিক্ষোভ দেখায় ‘জমি জীবিকা বাস্তুতন্ত্র রক্ষা কমিটি’র বিক্ষোভ। ঘটনাস্থলে পৌঁছয় পুলিশ।

ভাঙড়ে পোলেরহাট পঞ্চায়েত এলাকায় পাওয়ার গিটের সামনে বিক্ষোভ দেখায় ‘জমি জীবিকা বাস্তুতন্ত্র রক্ষা কমিটি’।

ভাঙড়ে পোলেরহাট পঞ্চায়েত এলাকায় পাওয়ার গিটের সামনে বিক্ষোভ দেখায় ‘জমি জীবিকা বাস্তুতন্ত্র রক্ষা কমিটি’। — নিজস্ব চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
ভাঙড় শেষ আপডেট: ২৪ জানুয়ারি ২০২৩ ১৮:৩২
Share: Save:

তৃণমূল এবং আইএসএফের সংঘর্ষকে কেন্দ্র করে উত্তপ্ত ভাঙড়। সেই আবহেই নতুন করে উত্তাপ ছড়াল সেখানে। মঙ্গলবার আবাস যোজনা নিয়ে দুর্নীতির অভিযোগ তুলে পোলেরহাট পঞ্চায়েত এলাকায় বিক্ষোভ দেখাল ‘জমি জীবিকা বাস্তুতন্ত্র রক্ষা কমিটি’। প্রায় চার ঘণ্টা পথ অবরোধ করে রাখা হয়। বিকেলে প্রত্যাহার করা হয় সেই অবরোধ। কমিটির নেতা মির্জা হাসান জানান, আবাস যোজনা নিয়ে ব্যাপক দুর্নীতি হয়েছে। তাতে জড়িত পঞ্চায়েত কর্মীরাও। তৃণমূল যদিও অভিযোগ অস্বীকার করেছে।

Advertisement

মঙ্গলবার সকালে ভাঙড়ে পোলেরহাট পঞ্চায়েত এলাকায় পাওয়ার গিটের সামনে বিক্ষোভ দেখায় ‘জমি জীবিকা বাস্তুতন্ত্র রক্ষা কমিটি’। ঘটনাস্থলে পৌঁছয় পুলিশ। মির্জা জানান, পোলেরহাট পঞ্চায়েত দীর্ঘ দিন ধরে বন্ধ রাখা হয়েছে। আবাস যোজনা ঘিরে ব্যাপক দুর্নীতি। পঞ্চায়েত কর্মীরাও জড়িত এই দুর্নীতির সঙ্গে। প্রশাসন এ সব সমস্যার সমাধান না করলে তাদের আন্দোলন আরও জোরালো হবে।

তৃণমূল যদিও অভিযোগ মানেনি। দলের যুবনেতা হাকিমুল ইসলাম বলেন, ‘‘ওই কমিটি মানুষের সমর্থন হারিয়েছে। প্রশাসনের উপর চাপ তৈরি করার চেষ্টা করছে। যা আমরা অত্যন্ত হাস্যকর বলে মনে করি। পোলেরহাট অঞ্চলের মানুষ তৃণমূল এবং মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে রয়েছে।’’

বিকেলে অবরোধ তুলে নেওয়ার পর মির্জা হাসান জানান, প্রশাসনের কাছে যে ক’টা দাবি তাঁরা রেখেছিলেন, তা মেনে নেওয়া হয়েছে। লিখিত ভাবে তা প্রশাসন জানিয়েছে বলেও দাবি তাঁর।

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.