Advertisement
০২ ডিসেম্বর ২০২২
Teachers

Calcutta High Court: গুরুতর অসুস্থ হলে ৫ বছরের মধ্যেই ‘বদলি’ শিক্ষকদের, নিয়ম শিথিল করল হাই কোর্ট

স্কুলে বদলি হতে ‘উৎসশ্রী’ পোর্টালে আবেদন করতে হয় শিক্ষকদের। টানা পাঁচ বছর চাকরি না করলে আবেদন করা যায় না। তা বদল আনার নির্দেশ হাই কোর্টের।

ফাইল চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ০১ অগস্ট ২০২২ ২০:২৭
Share: Save:

শিক্ষক বদলির ক্ষেত্রে নিয়মে শিথিল করল কলকাতা হাই কোর্ট। অসুস্থতার উপযুক্ত কারণ দেখিয়ে বদলি নিতে পারেন কোনও শিক্ষক। সোমবার বিচারপতি রাজাশেখর মান্থা নির্দেশ দিয়েছেন, শারীরিক ভাবে অসুস্থতার কারণে দূরের স্কুলে যেতে সমস্যা হলে, সেই শিক্ষককে বদলি করা প্রয়োজন রয়েছে বলে মনে করে আদালত। এ ক্ষেত্রে নিয়ম যা রয়েছে, তা-ও বদল করা দরকার।

Advertisement

এক স্কুল থেকে অন্য স্কুলে বদলি হতে রাজ্য সরকারের ‘উৎসশ্রী’ পোর্টালে আবেদন করতে হয় শিক্ষকদের। তবে একটি স্কুলে টানা পাঁচ বছর চাকরি না করলে বদলির আবেদন করা যেত না। সোমবার সেই নিয়মেই বদল আনার নির্দেশ বিচারপতি মান্থা। তাঁর নির্দেশ, দীর্ঘস্থায়ী শারীরিক অসুস্থতা থাকলে পাঁচ বছরের কম চাকরির ক্ষেত্রেও বদলি কার্যকর করতে হবে। এমনকি, এ বিষয়ে আবেদনের ছয় সপ্তাহের মধ্যে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ করতে হবে।

২০১৯ সালে পূর্ব বর্ধমানের আউশগ্রামের একটি স্কুলে চাকরি পান হামিদা খাতুন। তাঁর বাড়ি দক্ষিণ ২৪ পরগনার মগরাহাটে। হামিদার দাবি, স্ত্রী রোগজনিত একটি সমস্যায় ভুগছেন তিনি। চিকিৎসা চলছে। ফলে প্রতি দিন বাড়ি থেকে ৪০০ কিলোমিটার দূরের স্কুলে যাওয়া সম্ভব হচ্ছে না। শিক্ষা দফতরে আবেদন করে কাজ না হওয়ায় হাই কোর্টের দ্বারস্থ হন হামিদা। আদালতে তাঁর আবেদন, বাড়ির কাছের কোনও স্কুলে বদলি করা হোক। যদিও এর বিরোধিতা করেন রাজ্যের আইনজীবী। তাঁর যুক্তি, ১৯৯৭ সালের এসএসসি আইন অনুযায়ী পাঁচ বছরের কম চাকরির অভিজ্ঞতা থাকলে বদলি করা যায় না। যা শুনে বিচারপতির মন্তব্য, ‘‘যে কোনও সময় মানুষ অসুস্থ হতে পারেন। এটা কি ডাকবিভাগে আসে? অসুস্থতা কাউকে বলে আসে না।’’

Advertisement

অসুস্থতার কারণ দেখিয়ে অনেক শিক্ষকই বদলি চেয়ে আদালতের দ্বারস্থ হয়েছেন। তাঁদের বদলির ক্ষেত্রে বার বার দেওয়াল হয়ে দাঁড়াত ২৫ বছর আগের আইনের ওই নিয়ম। কয়েক দিন আগে আইনের এই নিয়ম নিয়েই প্রশ্ন তুলেছিলেন বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়। সেই সময় তিনি মন্তব্য করেছিলেন, ‘‘গোলি মারো রুলো কো। যে নিয়ম উপকারের পরিবর্তে অপকার করে তা রেখে লাভ কী?’’ এ বার নিয়ম বদলেরই নির্দেশ দিলেন বিচারপতি মান্থা।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.