Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৮ অক্টোবর ২০২১ ই-পেপার

শীতলখুচি: ছ’ঘণ্টা ধরে প্রশ্ন প্রাক্তন এসপি-কে

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ও কোচবিহার ১৯ জুন ২০২১ ০৬:০৭
ফাইল চিত্র।

ফাইল চিত্র।

শীতলখুচির বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনীর গুলি চালানোর ঘটনায় কোচবিহারের প্রাক্তন পুলিশ সুপার দেবাশিস ধর শুক্রবার সিআইডি-র বিশেষ তদন্তকারীদের জিজ্ঞাসাবাদের মুখোমুখি হন। ভবানী ভবনে এ দিন তাঁকে প্রায় ছ’ঘণ্টা ধরে নানান প্রশ্ন করেন তদন্তকারীরা। নেতৃত্বে ছিলেন সিআইডি-র ডিআইজি (স্পেশ্যাল) কল্যাণ মুখোপাধ্যায়। সিআইডি সূত্রের খবর, ওই প্রাক্তন এসপি-কে ২২ জুন, মঙ্গলবার আবার ভবানী ভবনে তলব করা হয়েছে।

গত ১০ এপ্রিল, বিধানসভার চতুর্থ দফার ভোটের দিন কোচবিহারের শীতলখুচি কেন্দ্রের ১২২ নম্বর বুথের সামনে কেন্দ্রীয় বাহিনীর কিছু জওয়ান গুলি চালালে চার জন গ্রামবাসী মারা যান। তখন কোচবিহারের এসপি ছিলেন দেবাশিসবাবু। পরে অবশ্য তাঁকে সাসপেন্ড করা হয়।

দেবাশিসবাবু এ দিন পৌনে ১১টা নাগাদ ভবানী ভবনে পৌঁছন। বিকেল ৫টা নাগাদ বেরিয়ে যান। পুরো জিজ্ঞাসাবাদ পর্ব ভিডিয়োগ্রাফি করা হয়েছে। সিআইডির সূত্রের খবর, ঘটনার পরে সাংবাদিকদের সামনে দেবাশিসবাবু বলেছিলেন, কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানদের অস্ত্র ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা চলছিল বলেই তাঁরা গুলি চালিয়েছিলেন। এ দিন প্রাক্তন এসপি-কে প্রশ্ন করা হয়, জওয়ানদের অস্ত্র ছিনতাইয়ের চেষ্টার কথা তিনি কোথা থেকে জানতে পেরেছিলেন? তদন্তে উঠে এসেছে, কেন্দ্রীয় বাহিনী বুথ লক্ষ্য করে এবং বুকসমান উচ্চতায় গুলি চালিয়েছিল। সেই বিষয়েও এ দিন প্রাক্তন এসপি-কে প্রশ্ন করেন তদন্তকারী গোয়েন্দারা। এ ছাড়া জানতে চাওয়া হয়, ঘটনার দিন স্থানীয় থানার আইসি বা এসডিপিও তাঁকে ঠিক কী কী জানিয়েছিলেন? দেবাশিসবাবু সব প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন বলে জানান তদন্তকারীরা। পুলিশি সূত্রের খবর, ওই ঘটনা নিয়ে এর আগে মাথাভাঙার এসডিপিও এবং স্থানীয় থানার আইসি বা অন্যান্য পুলিশকর্মীকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে সিআইডি। দেবাশিসবাবুর বয়ানের সঙ্গে অন্য পুলিশকর্মীদের বয়ান খতিয়ে দেখা হবে।

Advertisement

আরও পড়ুন

Advertisement