×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৭ জুন ২০২১ ই-পেপার

দোকান বন্ধ করতে গিয়ে মার খেল পুলিশ

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ১৩ মে ২০২০ ০২:১৮
প্রতীকী ছবি।

প্রতীকী ছবি।

লকডাউনের বিধি ভেঙে খোলা দোকান বন্ধ করতে গিয়ে আক্রান্ত হল পুলিশ। মঙ্গলবার ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ ২৪ পরগনার সুভাষগ্রামে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রের খবর, এ দিন বেলা ১২টা নাগাদ সুভাষগ্রামের খিরিশতলায় গিয়ে একাধিক দোকান বন্ধ করার চেষ্টা করে পুলিশ। অভিযোগ, তখনই পুলিশকে লক্ষ্য করে স্থানীয় বাসিন্দাদের একাংশ ইট ছুড়তে শুরু করেন। কয়েক জনকে রাস্তায় ফেলে মারধর করা হয় বলেও অভিযোগ। থানার টহলদারির গাড়িও ভাঙচুর করা হয়। খবর পেয়ে যায় পুলিশের বিশাল বাহিনী। পুলিশকে মারধর ও গাড়ি ভাঙচুরে ১৫ জনকে গ্রেফতার করা হয়।

বারুইপুর পুলিশ জেলার এক কর্তা বলেন, ‘‘ওই এলাকায় এক জন করোনা আক্রান্ত। তাই সব দোকানপাট ও বাজার বন্ধ করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু কয়েক দিন ধরে নির্দেশ অমান্য করে দোকান খোলা রাখছিলেন অনেকে। গত দু’দিন মাইকিং করে দোকানপাট বন্ধ রাখার অনুরোধ জানানো হয়েছে। তা সত্ত্বেও রাত পর্যন্ত দোকান খোলা রাখা হচ্ছিল।’’ ওই পুলিশকর্তা জানান, সংক্রমণের আশঙ্কায় স্থানীয় বাসিন্দারা বার বার পুলিশের কাছে অভিযোগ জানাচ্ছিলেন। এর পরেই এ দিন পুলিশ এলাকায় গিয়েছিল।’’

Advertisement

পুলিশ জানিয়েছে, এলাকায় আপাতত পুলিশ পিকেট বসানো হয়েছে। পুলিশ সূত্রের খবর, সেখানে খাদ্য ও পানীয় জলের সরবরাহের ব্যবস্থা আগেই করা হয়েছে। তা সত্ত্বেও জোর করে দোকান খোলা হচ্ছিল। পুলিশ এ বার থেকে রোজ সেখানে হানা দেবে বলে জানানো হয়েছে।

Advertisement