Advertisement
২৩ মার্চ ২০২৩
Mamata Banerjee

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে আলাদা করে দেখা হবে না, দিল্লি রওনা হওয়ার আগে জানিয়ে দিলেন মমতা

চার দিনের সফরে সোমবার দিল্লি যাচ্ছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আগেই জানিয়েছিলেন, তিনি এ বার দিল্লিতে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে নয়, তৃণমূল নেত্রী হিসাবে যাচ্ছেন।

বিমানবন্দর থেকে ব্যক্তিগত বিমানে দিল্লি রওনা হলেন মমতা। তাঁর সফরসূচিতে থাকছে রাজস্থানের অজমেঢ়, পুষ্করও।

বিমানবন্দর থেকে ব্যক্তিগত বিমানে দিল্লি রওনা হলেন মমতা। তাঁর সফরসূচিতে থাকছে রাজস্থানের অজমেঢ়, পুষ্করও। নিজস্ব চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ০৫ ডিসেম্বর ২০২২ ১২:১৪
Share: Save:

দিল্লি সফরে রওনা হলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে জানিয়ে দিলেন, দিল্লি গেলেও ৪ দিনের সফরে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে ব্যক্তিগত সাক্ষাৎ হবে না তাঁর। একই সঙ্গে মমতা জানিয়েছেন, দিল্লিতে তাঁর সফর চলাকালীনই রাজস্থানের দুই তীর্থ ক্ষেত্র অজমেঢ় এবং পুষ্কর ঘুরে আসবেন তিনি।

Advertisement

প্রসঙ্গত, আগামী বছর জি-২০ সম্মেলনের সভাপতিত্ব করতে চলেছে ভারত। সেই উপলক্ষে ইতিমধ্যেই প্রস্তুতি নিতে শুরু করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। প্রধানমন্ত্রীর দফতর জানিয়েছে, দেশ জুড়ে মোট ২০০টি বৈঠক হবে। যার প্রথম ধাপ হিসাবে দেশের রাজনৈতিক দলগুলির প্রধানদের বৈঠকে ডেকেছেন মোদী। প্রধানমন্ত্রীর ডাকা এই বৈঠকে যে তিনি যোগ দিচ্ছেন, তা আগেই জানিয়েছিলেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী। তবে একই সঙ্গে তিনি বলেছিলেন, রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে নয় তৃণমূলের প্রধান হিসাবে দিল্লিতে যাবেন তিনি। সেই মতো সোমবার দিল্লি রওনা হন মমতা।

সূত্রের খবর, দিল্লিতে নেমে মমতা প্রথমেই যাবেন রাষ্ট্রপতি ভবনে। সেখানেই সোমবার বিকেলে জি-২০ সংক্রান্ত বৈঠক ডেকেছেন মোদী। বৈঠকে মোদী-মমতার সাক্ষাৎ হওয়ার কথা। তবে বৈঠকের বাইরে দু’জনের ব্যক্তিগত বৈঠক হবে কি না, সে দিকে নজর ছিল রাজনৈতিক বৃত্তের অনেকেরই। মমতা অবশ্য সোমবার সকালে স্পষ্ট করেই জানিয়ে দিয়েছেন, তাঁর সঙ্গে মোদীর আলাদা করে বৈঠক হবে না।

প্রধানমন্ত্রীর ডাকা বৈঠক শেষ করে সোমবার রাতে দিল্লিতেই থাকার কথা মমতার। তার পর মঙ্গলবার তিনি রাজস্থান যাবেন বলে জানিয়েছেন। সময় পেলে রাজস্থানের অজমেঢ় এবং পুষ্কর যেতে পারেন বলে নিজেই উল্লেখ করেছেন তৃণমূল নেত্রী। বলেছিলেন, ‘‘রেলমন্ত্রী থাকাকালীন এই দুই ধর্মস্থানেই বিশেষ রেল পরিষেবার ব্যবস্থা করেছিলাম। বহু দিন ধরেই যাওয়ার ইচ্ছে ছিল। সময় পেলে যাব।’’ সূত্রের খবর, পুষ্করের ব্রহ্ম মন্দিরে পুজো দেবেন মমতা। সেই মতো প্রস্তুতিও শুরু করেছে রাজস্থানের কংগ্রেস সরকার। অজমেঢ় দরগাতেও দর্শনে যাবেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী। সোমবার বিমানবন্দরে দিল্লি রওনা হওয়ার আগে তা জানিয়ে মমতা বলেন, ‘‘এর সঙ্গে ধর্মের কোনও যোগ নেই। অজমেঢ় দরগা থেকে কয়েকজন প্রতিনিধি এসেছিলেন আমার কাছে। তাই রাজস্থানে যাচ্ছি যখন, তখন আমিও ওখানে যাব বলে ঠিক করেছি।’’ তবে মঙ্গলবার রাজস্থানে গেলেও ওই দিনই ফের দিল্লিতে ফিরে আসার কথা মমতার। সূত্রের খবর, রাজধানীতে বিরোধী রাজনৈতিক নেতাদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে পারেন তিনি। বুধবার দলের সাংসদদের সঙ্গেও বৈঠক করতে পারেন মমতা।

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.