Advertisement
১৯ জুলাই ২০২৪
Drowned in river

বিয়ের প্যান্ডেল বাঁধা শেষ, আগের সন্ধ্যায় নদীতে স্নান করতে নেমে তলিয়ে গেলেন যুবক, নদিয়ায় জারি তল্লাশি

শনিবার সন্ধ্যায় কল্যাণীর চর সরাটি নদীতে স্নান করতে নেমেছিলেন দুই বন্ধু। কিন্তু চোরা স্রোতের মধ্যে পড়ে তলিয়ে যান দু’জনেই। স্থানীয়দের তৎপরতায় এক জনকে উদ্ধার করা গেলেও এখনও নিখোঁজ এক।

বিয়ের ঠিক আগে নদীতে স্নান করতে নেমে নিখোঁজ পাত্র।

বিয়ের ঠিক আগে নদীতে স্নান করতে নেমে নিখোঁজ পাত্র। — নিজস্ব চিত্র।

আনন্দবাজার অনলাইন সংবাদদাতা
কল্যাণী শেষ আপডেট: ২৮ এপ্রিল ২০২৪ ১১:০৩
Share: Save:

সোমবার বিয়ে। চলছে শেষ লগ্নের তোড়জোড়। বাড়িভর্তি আত্মীয়স্বজন। সাজ সাজ রব গোটা পাড়ায়। গায়ে হলুদের দিন বিকেলে বন্ধুকে নিয়ে নদিয়ার কল্যাণী ব্লকের চর সরাটি নদীতে স্নান করতে যান সালার আলি মণ্ডল। কিন্তু আর বাড়ি ফেরা হল না সালারের। নদীর চোরাস্রোতে ডুবে যান দুই বন্ধুই। সালারের বন্ধু ফারুককে উদ্ধার করা গেলেও এখনও নিখোঁজ সালার।

স্থানীয় সূত্রে খবর, শনিবার নদিয়ার কল্যাণীর গয়েশপুর পুরসভার ৯ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা সালার বন্ধু ফারুককে নিয়ে চর সরাটি নদীতে স্নানে নামেন। কিন্তু কিছু ক্ষণের মধ্যেই নদীর চোরাস্রোতে তলিয়ে যান দু’জনেই। চিৎকার শুনে স্থানীয়েরা ছুটে এসে ফারুককে উদ্ধার করলেও জলের তোড়ে তলিয়ে যান সালার। খবর পৌঁছয় চাকদহ থানায়। খবর দেওয়া হয় বিপর্যয় মোকাবিলা দলকেও। স্পিড বোট নামিয়ে শুরু হয় তল্লাশি। কিন্তু খোঁজাখুঁজিই সার। সালারের খোঁজ মেলেনি এখনও। শোকে কাতর বন্ধু ফারুখ। তিনি বলছেন, “আমরা একসঙ্গেই স্নানে গিয়েছিলাম। বেশ কিছু ক্ষণ স্নান করার পর জল থেকে উঠতে যাচ্ছিলাম। কিন্তু ও (সালার) বলল, আর একটু থাকি। আমাকে ধরে একটা ডুবও দেয়। আর তখন জলের গভীরে গিয়ে পা ফস্কে যায় আমাদের। লোকজন ধরাধরি করে আমাকে তুললেও ওর আর খোঁজ পাওয়া যায়নি।”

সালারের বিয়ের বন্দোবস্ত শেষ। কিন্তু নদীতে স্নান করতে নেমে ঘটে গেল অঘটন। এই ঘটনায় শোকের ছায়া গয়েশপুরে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Marriage Celebration
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE