Advertisement
০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৩

ডিকি থেকে ৮ লক্ষ হাতিয়ে চম্পট মোটরবাইক আরোহীর

ফের লক্ষাধিক টাকা ছিনতাই হল বোলপুরে, তা-ও দিনদুপুরে! এ বার ছিনতাই একটি ওষুধের দোকানের সামনে। ওষুধ কেনার সময়ে গাড়ির ডিকি ভেঙে এক ঠিকাদারের আট লক্ষ টাকা ছিনতাই হয়।

ছিনতাইয়ের পরে নজর সিসি ক্যামেরার ছবিতে।— নিজস্ব চিত্র

ছিনতাইয়ের পরে নজর সিসি ক্যামেরার ছবিতে।— নিজস্ব চিত্র

নিজস্ব সংবাদদাতা
বোলপুর শেষ আপডেট: ৩১ অগস্ট ২০১৬ ০১:৩০
Share: Save:

ফের লক্ষাধিক টাকা ছিনতাই হল বোলপুরে, তা-ও দিনদুপুরে!

Advertisement

এ বার ছিনতাই একটি ওষুধের দোকানের সামনে। ওষুধ কেনার সময়ে গাড়ির ডিকি ভেঙে এক ঠিকাদারের আট লক্ষ টাকা ছিনতাই হয়। ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার দুপুর দুটো নাগাদ ঘটেছে বোলপুর শহরের অন্যতম জনবহুল এলাকা শ্রীনিকেতন রোডের ওপর।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, এ দিন ইলামবাজারের খয়েরবুনির বাসিন্দা পেশায় ঠিকাদার অভিজিৎ ঘোষ শান্তিনিকেতন রোডের ওপর একটি ব্যাঙ্ক থেকে আট লক্ষ টাকা তোলেন। ওই টাকা বাইকের ডিকিতে রেখে, শ্রীনিকেতন রোড ধরে ইলামবাজার যাওয়ার কথা অভিজিৎবাবুর। অভিযোগ, একটি ওষুধের দোকান থেকে ওষুধ কেনার সময়ে টাকা নিয়ে পালায় দুই বাইক আরোহী। স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, অভিজিৎবাবু বাইক রেখে দোকানে ওষুধ কেনার জন্য সবে ঢুকেছেন। ওই সময়ে বাইকে করে এসে, মুখে গামছা বেঁধে দু’জন অভিজিৎবাবুর ডিকি থেকে টাকা নিয়ে পালায়। অভিজিৎবাবু এসে ডিকি ভাঙা দেখে, ছিনতাইয়ের কথা পুলিশকে জানান।

ঘটনার খবর পেয়ে বোলপুর থানার আইসি শেখ ফিরোজ হোসেন আসেন ওই ওষুধের দোকানে। ওষুধের দোকানের সিসি ক্যামেরা ফুটেজও নিয়ে যান তিনি। পুলিশ অভিজিৎবাবুকে নিয়ে ব্যাঙ্কেও যায়। ঘটনা হল, বোলপুর ব্লক প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্র ও ডাকঘর তথা টেলিফোন দফতরের সংলগ্ন ওই এলাকা শহরের অন্যতম জন সমাগমের জায়গা। এমন জায়গা থেকে দিন দুপুরে ছিনতাই হওয়ায়, আশঙ্কা বেড়েছে বাসিন্দাদের। কেন না, রাস্তা থেকে ছিনতাইয়ের এমন নজির নতুন নয় বোলপুর শহরে।

Advertisement

চলতি বছরের ৪ জুন বোলপুরের ২ নম্বর ওয়ার্ডের লায়েক বাজার সেনপট্টির বাসিন্দা অবসরপ্রাপ্ত স্বাস্থ্যকর্মী মিনতী রায়ের দশ হাজার টাকা ছিনতাই হয়েছিল স্টেশন রোডের একটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্ক থেকে। ২২ জুন স্বাস্থ্যকর্মী মণিমালা সাধু করের দু’ লক্ষ টাকা ছিনতাই হয়, চিত্র মোড়ের কাছে। ২৬ জুলাই শান্তিনিকেতনের বাসিন্দা রঞ্জিনী বন্দ্যোপাধ্যায় রিকশা করে বাড়ির ফেরার পথে পূর্বপল্লির রাস্তায় ছিনতাই হয় ব্যাগ। পরের দিন আবার গোয়ালপাড়ার এক বাসিন্দার ব্যাগ, টাকা পয়সা ও মোবাইল ছিনতাই হয় খোদ শান্তিনিকেতন থানার সামনে থেকে। প্রায় প্রতিটি ক্ষেত্রে বাইকে করে আসা দুষ্কৃতীর শিকার হয়েছেন বাসিন্দারা। নিরাপত্তার আর্জিতে বার বার বিভিন্ন সংগঠন আর্জি জানিয়েছে পুলিশের কাছে। তা যে এতটুকু যে বদলায়নি, তা ফের প্রমাণ হল এই ঘটনায়।

পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে। ইতিমধ্যেই ওষুধ দোকানের ও ব্যাঙ্কের সিসি ক্যামেরা ফুটেজ খতিয়ে দেখছে পুলিশ। অন্য দিকে, তারাপীঠে কৌশিকী অমাবাস্যা উপলক্ষে লক্ষাধিক ভক্তের সমাগম হয়েছে ইতিমধ্যেই। রামপুরহাটের একটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্ক থেকে টাকা তুলে ফেরার পথে সোমবার দুপুর দেড়টা নাগাদ তারাপীঠ থানার রামভদ্রপুর এলাকায় এক ব্যবসায়ীকে মারধর করে ১১ লক্ষ টাকা ছিনিয়ে নেয় চার দুষ্কৃতী। সোমবার গভীর রাতে মুর্শিদাবাদের খড়গ্রাম থানার পার্বতীপুরের বাসিন্দা ধান ব্যবসায়ী মেহেবুব শেখ এই মর্মে লিখিত অভিযোগ জানিয়েছেন থানায়। পুলিশ ওই ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য দু’জনকে আটক করেছে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.