Advertisement
২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪
Madan Mitra

কাঁধের হাড় ভেঙে গিয়েছে মদনের, চোট হাসপাতালের বেডেই, অবস্থার অবনতিতে এখনই অস্ত্রোপচার নয়

এসএসকেএম হাসপাতালে ভর্তি থাকার মধ্যেই নতুন বিপদ কামারহাটির বিধায়ক মদন মিত্রের। কাঁধের একটি হাড় ভেঙে গিয়েছে বলে হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে। শুক্রবারই এক্স রে হয়েছে।

Shoulder of Madan Mitra factured in SSKM.

মদন মিত্র। ছবি: সংগৃহীত।

আনন্দবাজার অনলাইন সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ০৮ ডিসেম্বর ২০২৩ ১৮:৫৫
Share: Save:

এসএসকেএম হাসপাতালে ভর্তি থাকার মধ্যেই নতুন বিপদ কামারহাটির বিধায়ক মদন মিত্রের। শ্বাসকষ্টের সঙ্গে নিউমোনিয়া নিয়ে তিনি সোমবার ভর্তি হন হাসপাতালে। অবস্থার অবনতি হওয়ায় বৃহস্পতিবার আইসিইউতে স্থানান্তরিত করা হয়। সেখানেই বেডে শুয়ে বৃহস্পতিবার রাতে খিঁচুনি হতে শুরু করে। সেই সময়ে চিকিৎসকরাও উপস্থিত ছিলেন। কিন্তু প্রবল খিঁচুনি হতে থাকায় বেডের পাশে যে রেলিং থাকে তাতে বাঁ হাতটি ছিটকে গিয়ে লাগে। এই সময়েই কাঁধের একটি হাড় ভেঙে গিয়েছে বলে হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে। শুক্রবারই এক্স রে হয়েছে। তাতে দেখা গিয়েছে অস্ত্রোপচার করা দরকার। তবে শারীরিক অবস্থা ততটা ভাল না থাকায় এখনই তা করা হচ্ছে না বলে হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে।

সোমবার রাতে জরুরি ভিত্তিতে মদনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হলেও পরে ধীরে ধীরে তিনি চিকিৎসায় সাড়া দেন। কামারহাটির তৃণমূল বিধায়কের শারীরিক অবস্থা আপাতত স্থিতিশীল বলে হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছিল। কিন্তু নতুন করে বিপদ ডেকে আনল কাঁধের হাড় ভেঙে যাওয়ায়। তবে হাড়টি ভেঙে গিয়েছে না কি গুরুতর চোট তা স্পষ্ট করে হাসপাতালের তরফে এখনও আনুষ্ঠানিক ভাবে জানানো হয়নি।

প্রাথমিক ভাবে জানা গিয়েছে, তাঁর হাতে অস্ত্রোপচার হতে পারে। তাঁর জন্য তৈরি ১০ সদস্যের যে মেডিক্যাল বোর্ড গঠন করা হয়েছে, তারা তৃণমূল বিধায়কের শারীরিক অবস্থা খতিয়ে দেখবে। তবে এখনই কাঁধের হাড়ের চোট সারাতে অস্ত্রোপচার করা যাবে না বলেই জানিয়েছেন ওই বোর্ডের এক চিকিৎসক। তিনি বলেন, ‘‘এখনও শ্বাসকষ্ট রয়েছে। অক্সিজেন দিতে হচ্ছে, স্যালাইনও চলছে। এই অবস্থায় অস্ত্রোপচার আদৌ সম্ভব নয়। আমরা পরিস্থিতির দিকে নজর রাখছি। কিন্তু যত তাড়াতাড়ি সম্ভব অস্ত্রোপচার করতেই হবে।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE