Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৮ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

Tushar Mehta: তুষারকে সরাতে প্রধানমন্ত্রীর পর এ বার রাষ্ট্রপতির কাছে দরবার করতে চায় তৃণমূল

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ০৩ জুলাই ২০২১ ১৩:২৬
তুষারকে নিয়ে এ বার রাষ্ট্রপতির দ্বারস্থ হতে চলেছে তৃণমূল।

তুষারকে নিয়ে এ বার রাষ্ট্রপতির দ্বারস্থ হতে চলেছে তৃণমূল।

দেখাই হয়নি, সেখানে বৈঠকের প্রশ্ন উঠছে কোত্থেকে? এই মর্মেই শুভেন্দু অধিকারীর সঙ্গে সাক্ষাতের জল্পনা উড়িয়ে দিয়েছেন তিনি। কিন্তু সলিসিটর জেনারেল তুষার মেহতাকে নিয়ে পিছু হটতে নারাজ তৃণমূল নেতৃত্ব। তাঁর অপসারণ চেয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর পর এ বার সরাসরি রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দের কাছে দরবার করতে চলেছেন তাঁরা। একই সঙ্গে রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়কে নিয়েও রাষ্ট্রপতির কাছে অভিযোগ জানানো হতে পারে বলে দলীয় সূত্রে খবর। দলের শীর্ষ নেতৃত্ব এ নিয়ে আলোচনা করছেন বলে জানা গিয়েছে।

নারদ মামলায় কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা (সিবিআই)-এর আইনজীবী তুষার। আর ওই মামলার অন্যতম অভিযুক্ত নন্দীগ্রামের বিজেপি বিধায়ক শুভেন্দু। দিল্লি সফরে গিয়ে বৃহস্পতিবার তিনি তুষারের বাসভাবনে যান এবং সেখানে দু’পক্ষের মধ্যে বৈঠক হয় বলে দাবি। তুষার এবং শুভেন্দু, দু’জনেই যদিও সাক্ষাতের কথা অস্বীকার করেছেন।

তুষার জানিয়েছেন, আগে থেকে না জানিয়ে শুভেন্দু তাঁর বাসভবন তথা দফতরে হাজির হন। তিনি অন্য কাজে ব্যস্ত থাকায়, দেখা করতে পারেননি। শুভেন্দুও জানান, তাঁর সঙ্গে দেখা করেননি তষার। যদিও তৃণমূলের দাবি, সাক্ষাৎ হয়েছে। এখন বিষয়টি ‘ধামাচাপা’ দেওয়ার চেষ্টা চলছে। সাক্ষাৎ না হয়ে থাকলে, বাসভবনের সিসিটিভি ফুটেজ প্রকাশ করে সলিসিটর জেনারেলকে ‘প্রমাণ দিন’ বলে টুইটে দাবি তুলেছেন দলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়।

Advertisement

যদিও এই অভিযোগকে বিশেষ আমল দিতে নারাজ বিজেপি নেতৃত্ব। তাঁদের মতে, দুই ব্যক্তির মধ্যে সাক্ষাৎ হতেই পারে। এতে বিতর্কের কিছু নেই। কিন্তু তৃণমূলের প্রশ্ন, যে মামলায় সিবিআইয়ের আইনজীবী তুষার, সেই মামলায় অভিযুক্ত শুভেন্দুর হঠাৎ তাঁর সঙ্গে সাক্ষাতের প্রয়োজন পড়ল কেন?

এ নিয়ে আগেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি দিয়েছেন তৃণমূলের তিন সাংসদ সুখেন্দুশেখর রায়, ডেরেক ও’ব্রায়েন এবং মহুয়া মৈত্র। তাতে তাঁরা লেখেন, ‘প্রভাব খাটানোর উদ্দেশ্যেই এমন বৈঠকের আয়োজন হয়েছিল বলে আশঙ্কার যথেষ্ট কারণ রয়েছে। এই পরিস্থিতিতে বিচার প্রক্রিয়ার স্বচ্ছতা এবং নিরপেক্ষতা বজায় রাখার জন্য তুষারকে সরানো প্রয়োজন।’ এ নিয়ে কেন্দ্রের তরফে এখনও কোনও প্রতিক্রিয়া মেলেনি। তার মধ্যেই দলীয় সূত্রে খবর, এ বার রাষ্ট্রপতির দ্বারস্থ হচ্ছেন তৃণমূল নেতৃত্ব।

আরও পড়ুন

Advertisement