Advertisement
১৮ জুলাই ২০২৪
West Bengal SSC Scam

কুন্তলের অভিযোগের পর ইডি দফতরে তাপস-তলব! মঙ্গলবার হাজিরার নির্দেশ, খতিয়ে দেখা হবে নথি

প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের অপসারিত সভাপতি মানিক ভট্টাচার্যের ‘ঘনিষ্ঠ’ তাপস নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় অন্যতম অভিযুক্ত। এর আগেও তাঁকে ইডির তরফে একাধিক বার তলব করা হয়েছে।

কুন্তল ঘোষ-তাপস মণ্ডল।

কুন্তল ঘোষ-তাপস মণ্ডল। ফাইল চিত্র ।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ২৩ জানুয়ারি ২০২৩ ১৬:১০
Share: Save:

হুগলির তৃণমূল যুবনেতা কুন্তল ঘোষকে গ্রেফতারের পর এ বার তাপস মণ্ডলকেও তলব করল এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি)। মঙ্গলবার তাঁকে সিজিও কমপ্লেক্সে তলব করা হয়েছে। সিজিও-তে তাঁর এবং কুন্তলের বয়ান এবং দাবি একসঙ্গে মিলিয়ে দেখা হবে বলে সূত্রের খবর।

প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের অপসারিত সভাপতি মানিক ভট্টাচার্যের ‘ঘনিষ্ঠ’ তাপস নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় অন্যতম অভিযুক্ত। এর আগেও তাঁকে ইডির তরফে একাধিক বার তলব করা হয়েছে। তাঁর বিরুদ্ধে তদন্ত চলাকালীনই তাপস দাবি করে বসেছেন যে, হুগলির তৃণমূল যুবনেতা কুন্তল শিক্ষক পদপ্রার্থীদের থেকে চাকরি পাইয়ে দেওয়ার নাম করে প্রায় ১৯ কোটি টাকা নিয়েছেন। এর পরই তাঁর বিরুদ্ধে তদন্তে নামে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা। শুক্রবার নিউ টাউনের এক আবাসনের দু’টি ফ্ল্যাটে হানা দিয়ে তল্লাশি চালানোর পর শনিবার কুন্তলকে গ্রেফতারও করেন ইডি আধিকারিকরা। গ্রেফতারির পর থেকেই তাপসের বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন কুন্তল। তাপসের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়ে তাঁর পাল্টা অভিযোগ, তিনি কোনও চাকরিপ্রার্থীর থেকে টাকা নেননি, বরং তাপস এবং তাঁর সহযোগীরাই হুমকি দিয়ে টাকা আদায় করেছেন তাঁর কাছ থেকে। এর পর পরস্পরের বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ এবং পাল্টা অভিযোগ এনেছেন তাপস এবং কুন্তল। ইডি এবং সিবিআই আধিকারিকদের নাম করে তাপস তাঁর কাছ থেকে টাকা নিয়েছিলেন বলেও দাবি করেন কুন্তল। কুন্তলের দাবি, তিনি যে তাপসকে একাধিক বার টাকা দিয়েছিলেন, সেই সংক্রান্ত নথি তিনি সিবিআইকে জমা দিয়েছেন।

যদিও তাপসের দাবি, তিনি কুন্তলের থেকে টাকা চেয়েছিলেন ঠিকই, তবে সেই টাকা চাকরিপ্রার্থীদের কাছ থেকে কুন্তল যে টাকা নিয়েছেন সেই টাকা। চাকরিপ্রার্থীদের টাকা ফেরত দিতেই তিনি এই টাকা তৃণমূল যুবনেতার থেকে ফেরত চেয়েছিলেন বলে দাবি করেছেন তাপস।

পাশাপাশি, তল্লাশি চালানো দু’টি ফ্ল্যাট থেকে কুন্তলের একটি নোটবুক এবং একাধিক নথি উদ্ধার করেছেন ইডি আধিকারিকরা। সেই নথিতে রয়েছে একাধিক সাঙ্কেতিক চিহ্নও। তদন্ত চলাকালীন তাপসের কাছ থেকেও নথিসমৃদ্ধ একটি ডায়েরি উদ্ধার করে তদন্তকারী আধিকারিকরা। মঙ্গলবার তাপস ইডি দফতরে হাজিরা দেওয়ার পর সেই সব নথি একসঙ্গে মিলিয়ে দেখা হবে বলে ইডি সূত্রে খবর। দু’জনের থেকে উদ্ধার হওয়া নথিতে কোনও মিল পাওয়া গিয়েছে কি না, সে দিকেও নজর থাকবে।

পাশাপাশি, তাপস এবং কুন্তল একে অপরের বিরুদ্ধে যে অভিযোগ এনেছিলেন, তা-ও মঙ্গলবার খতিয়ে দেখা হতে পারে বলে ইডি সূত্রে খবর। আপাতত এই মামলা দাঁড়িয়ে রয়েছে কুন্তলের বিরুদ্ধে তাপসের অভিযোগ এবং তাপসের বিরুদ্ধে কুন্তলের পাল্টা অভিযোগের উপর। আর তা নিয়েই চলছে তদন্ত। মঙ্গলবার তাপস সিজিও কমপ্লেক্সে হাজিরা দেওয়ার পর সেই তদন্তের জট খানিকটা ছাড়তে পারে বলেও ইডি সূত্রে খবর।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE