Advertisement
১৪ জুন ২০২৪
Kim Jong-un

আমেরিকায় পরমাণু হামলা চালানোর মতো ক্ষেপণাস্ত্র উত্তর কোরিয়ার হাতে! দাবি জাপানের

পাঁচ বছর আগে দক্ষিণ কোরিয়া জানিয়েছিল, আমেরিকার গুরুত্বপূর্ণ শহরগুলিতে পরমাণু হামলা চালানোর লক্ষ্যে আইসিবিএম ‘হোয়াসং-১৪’ তৈরির কাজ প্রায় শেষ করে ফেলেছে পিয়ংইয়ং।

গত অক্টোবর থেকে ধারাবাহিক ভাবে ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা করে চলেছে উত্তর কোরিয়া।

ছবি: এএফপি।

সংবাদ সংস্থা
টোকিও শেষ আপডেট: ১৮ নভেম্বর ২০২২ ১১:৩৫
Share: Save:

উত্তর কোরিয়ার একনায়ক কিম জং উনের ‘গোপন পরিকল্পনা’ নিয়ে দক্ষিণ কোরিয়া সতর্কবাণী শুনিয়েছিল কয়েক বছর আগেই। এ বার জাপানের প্রতিরক্ষামন্ত্রী ইয়াশুকাজু হামাদা দাবি করলেন, সেই পরিকল্পনায় সফল হয়েছে পিয়ংইয়ং। শুক্রবার তিনি জানালেন, আমেরিকার মূল ভূখণ্ডে ক্ষেপণাস্ত্র হামলার চালানোর মতো প্রযুক্তি আয়ত্ত করে ফেলেছে উত্তর কোরিয়া।

হামাদা শুক্রবার বলেন, ‘‘১৫,০০০ কিলোমিটার পাল্লার অন্তর্মহাদেশীয় ক্ষেপণাস্ত্র (ইন্টার কন্টিনেন্টাল ব্যালিস্টিক মিসাইল বা আইসিবিএম) রয়েছে উত্তর কোরিয়ার হাতে। সম্প্রতি জাপান উপকূলে প্রশান্ত মহাসাগরে একাধিক ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করে কিমের দেশ। সেগুলির উড়ানের প্রকৃতি থেকে প্রযুক্তিগত বৈশিষ্ট্য বিশ্লেষণ করেই এই তথ্য উঠে এসেছে বলে জাপানের প্রতিরক্ষা দফতর জানিয়েছে।

প্রসঙ্গত, প্রায় পাঁচ বছর আগে দক্ষিণ কোরিয়া জানিয়েছিল, আমেরিকার গুরুত্বপূর্ণ শহরগুলিতে পরমাণু হামলা চালানোর লক্ষ্যে আইসিবিএম ‘হোয়াসং-১৪’ তৈরির কাজ শেষ করে ফেলেছে পিয়ংইয়ং। এর আগে ৬,০০০ কিলোমিটার পাল্লার ‘হোয়াসং-১২’-র সাহায্যে কিমের দেশের উত্তর প্রান্ত থেকে আমেরিকার আলাস্কা এবং এবং প্রশান্ত মহাসাগরীয় গুয়াম দ্বীপে হানাদারি চালানো সম্ভব ছিল। নয়া ক্ষেপণাস্ত্রের সাহায্যে জো বাইডেনের দেশের বিস্তীর্ণ এলাকায় উত্তর কোরিয়ার নিশানায় চলে এসেছে বলে জাপানের দাবি।

প্রসঙ্গত, বৃহস্পতিবারও পরমাণু অস্ত্র বহনের ক্ষমতাসম্পন্ন ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা করে উত্তর কোরিয়া। এর পরে সে দেশের সরকারি সংবাদমাধ্যম ‘কোরিয়ান সেন্ট্রাল নিউজ এজেন্সি’ জানায়, তাদের বিরুদ্ধে কোনও রকম পদক্ষেপ করলে আমেরিকা এবং তার বন্ধু দেশ দক্ষিণ কোরিয়াকে অনুশোচনা করতে হবে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE