Advertisement
১৯ জুলাই ২০২৪
International News

শিশুকে বাঁচিয়ে ফরাসি নাগরিকত্ব

পাঁচ তলার ব্যালকনির দিকে তরতরিয়ে উঠছেন যুবক। রেলিং ধরে দেওয়াল বেয়ে এগোচ্ছেন— ঠিক যেন স্পাইডারম্যান! পাঁচ তলার লেজ থেকে তখন ঝুলছে চার বছরের এক শিশু। ভয় পেয়ে কাঁদছে তারস্বরে। কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে সব রেলিং নির্বিঘ্নে পেরিয়ে লেজ থেকে যুবক কোলে তুলে নিলেন শিশুটিকে। আবাসনের নীচ থেকে তখন হাততালির বন্যা।

সাংবাদিকদের সামনে ‘স্পাইডারম্যান’ মামুদু গাসামা। প্যারিসে। ছবি: সোশ্যাল মিডিয়া

সাংবাদিকদের সামনে ‘স্পাইডারম্যান’ মামুদু গাসামা। প্যারিসে। ছবি: সোশ্যাল মিডিয়া

সংবাদ সংস্থা
প্যারিস শেষ আপডেট: ২৯ মে ২০১৮ ০১:২৯
Share: Save:

পাঁচ তলার ব্যালকনির দিকে তরতরিয়ে উঠছেন যুবক। রেলিং ধরে দেওয়াল বেয়ে এগোচ্ছেন— ঠিক যেন স্পাইডারম্যান! পাঁচ তলার লেজ থেকে তখন ঝুলছে চার বছরের এক শিশু। ভয় পেয়ে কাঁদছে তারস্বরে। কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে সব রেলিং নির্বিঘ্নে পেরিয়ে লেজ থেকে যুবক কোলে তুলে নিলেন শিশুটিকে। আবাসনের নীচ থেকে তখন হাততালির বন্যা।

শনিবারের এই দৃশ্য ভিডিয়োবন্দি হয়েছে প্যারিসের উত্তরে। সোশ্যাল মিডিয়ায় নিমেষে তা ভাইরাল। মালির অভিবাসী ২২ বছরের ওই যুবক মামুদু গাসামাকে ধন্য ধন্য করছেন সবাই। এলিজ়ে প্রাসাদে তাঁর সঙ্গে দেখা করেন ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল মাকরঁ। মামুদুকে ফরাসি নাগরিকত্ব দেওয়া হবে বলে জানান তিনি। সাহসিকতার জন্য একটি মেডেলও দেন তাঁকে। দেশের দমকল বাহিনীতে মামুদুকে কাজের সুযোগ করে দেওয়া হবে বলেও জানিয়েছেন প্রেসিডেন্ট। প্যারিসের মেয়র অ্যান ইদালগো বলেছেন, ‘১৮ শতকের স্পাইডারম্যান’ মামুদুই।

মালি থেকে গত বছর ফ্রান্সে এসেছিলেন মামুদু। প্রাণের ঝুঁকি নিয়ে নৌকায় ইউরোপে পাড়ি দিয়েছিলেন অন্য শরণার্থীদের মতো। গত শনিবার বিকেলে প্যারিসের ওই আবাসনের পাশ দিয়ে হেঁটে যাচ্ছিলেন মামুদু। ভিড় দেখে এগিয়ে যান। মাকরঁকে পরে মামুদু বলেছেন, ‘‘ওই সময়ে কিছু ভাবিনি। রাস্তা থেকে দৌড়ে চলে গেলাম।’’ তাঁর কথায়, ‘‘উপরে উঠতে উঠতে ঈশ্বরকে ধন্যবাদ দিচ্ছিলাম। ঈশ্বর আমায় সাহায্য করেছেন। যত উপরে উঠেছি, সাহস বেড়ে গিয়েছে। আর কিছুই না।’’

সাহসী: রেলিং বেয়ে বেয়ে পাঁচ তলায় উঠে শিশুকে উদ্ধার করছেন মামুদু গাসামা। ছবি: সোশ্যাল মিডিয়া

দমকল বাহিনী যত ক্ষণে এসে পৌঁছয়, তত ক্ষণে শিশু উদ্ধার হয়ে গিয়েছে। পরে জানা যায়, বাচ্চাটির বাবা-মা তখন বাড়িতে ছিলেন না। এ ভাবে বাচ্চাকে ফেলে রেখে চলে যাওয়ায় বাবাকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে পুলিশ। মা এই মুহূর্তে প্যারিসেরই বাইরে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE