×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

০৫ অগস্ট ২০২১ ই-পেপার

Tollywood: শ্রীলেখার ছবিতে মুখ্য ভূমিকায় তাঁর পিসি তপতী? মেয়ের ভূমিকায় অমৃতা চট্টোপাধ্যায়

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ০৬ জুন ২০২১ ১৬:১৪
শ্রীলেখা, তপতী এবং অমৃতা।

শ্রীলেখা, তপতী এবং অমৃতা।

রবিবারের দুপুরে অনুরাগীদের বড় চমক উপহার দিলেন শ্রীলেখা মিত্র। তাঁর আগামী ছবিতে নিজের পিসি তপতী দাসকে মুখ্য চরিত্রাভিনেতা ঘোষণা করে। পরিচালক-অভিনেতার প্রথম ছবি ‘বিটার হাফ’ বেশ কিছু দিন হল শেষ হয়েছে। এ দিন তিনি প্রকাশ্যে আনলেন তাঁর পরবর্তী ছবির ২ অভিনেতাকে। শ্রীলেখার আগামী ছবিতে ৭০ বছরের এক মায়ের ভূমিকায় অভিনয় করতে চলেছেন তাঁর পিসি। তাঁর মেয়ের ভূমিকায় দেখা যাবে অমৃতা চট্টোপাধ্যায়কে। ছবির গল্প ফাঁস করতে না চাইলেও আনন্দবাজার ডিজিটালকে শ্রীলেখা জানালেন, ‘‘আমার বাবা আর পিসির জীবন এই ছবির অনুপ্রেরণা। তাঁদের একাকীত্ব এই ছবির বিষয়। ভাইঝির ছবি দিয়ে তাই অভিনয়ে হাতেখড়ি হচ্ছে পিসির।’’ খবর জেনেই নাকি কেঁদে ফেলেছেন শ্রীলেখার পিসি। পরিচালক-অভিনেত্রীর বাবাকে বলেছেন, ‘‘দাদা তুই আমায় সিনেমায় নামাচ্ছিস!’’

কেন পিসিকেই বাছলেন অভিনেত্রী? জবাবে অনেকগুলো কারণ বললেন শ্রীলেখা। তাঁর কথায়, ‘‘পিসিকে মজা করে আমার বাবা ডাকেন 'তপন' বলে। ডাকনাম শুনে অনেকেই ভাবতে পারেন, পিসি বোধ হয় আমারই মতো ডানপিটে। প্রকৃত ছবিটা ঠিক উল্টো। পিসি ভীষণ নরম, মিষ্টি। আবার প্রচণ্ড আভিজাত্য আছে। সব মিলিয়ে আমার লেখা চরিত্রের মতোই। সেই কারণেই জনপ্রিয় অভিনেত্রীর বদলে পিসিকেই বেছেছি।’’ তাঁর আরও যুক্তি, চরিত্রের মতোই পিসি একা। পিসেমশাই অনেক দিন মারা গিয়েছেন। পিসিরও এক মেয়ে। অভিনয় সম্বন্ধে ইতিমধ্যেই পিসিকে নানা টিপস দিচ্ছেন শ্রীলেখা। লকডাউন উঠলে কর্মশালাতেও পাঠাবেন তপতীকে।

অমৃতা চট্টোপাধ্যায়কে বেছে নেওয়ার পিছনেও একাধিক কারণ দেখিয়েছেন পরিচালক। তাঁর কথায়, তিনি কোনও গ্ল্যামারাস নায়িকা চাননি। যাঁর কিছু চেনা ভঙ্গি থাকবে, এমন ছিমছাম একজন অভিনেত্রী চেয়েছেন। যিনি তাঁর চরিত্রকে জীবন্ত করবেন। তেমনই অভিনেত্রী অমৃতা। রবিবার সকালেই শ্রীলেখা কথা বলেছেন অমৃতার সঙ্গে। অভিনেত্রীও তাঁর ছবিতে অভিনয়ের জন্য এক কথায় রাজি।


Advertisement

কেমন চরিত্রে ডাক পেলেন অভিনেত্রী? অমৃতার বক্তব্য, ‘‘এক্ষুণি বিশেষ কিছু বলতে পারব না। তবে গল্প এবং চরিত্র শুনে আমার ভাল লেগেছে। আমি বরাবর বেছে ছবি করি। গল্প বা চরিত্রে ভিন্ন স্বাদ খুঁজি। এই ছবিও তেমনই।’’ তাঁর চোখে, মা-মেয়ের সম্পর্কে নানা স্তর থাকে। সময় বিশেষে যা বদলে যায়। এই ছবি সেই দিক দেখাবে। কাকতালীয় ভাবে তপতীর সঙ্গে অমৃতার মুখের অদ্ভুত মিল। যা দেখে অনেকেই অভিনেত্রীকে প্রশ্ন করেছেন, বাস্তবেও কি তাঁরা মা-মেয়ে? অমৃতার দাবি, এই ‘ভুল’ তিনি উপভোগ করছেন। একই সঙ্গে পরিচালকের অভিনেত্রী বাছার ক্ষেত্রে সূক্ষ্ম দৃষ্টিরও প্রশংসা করেছেন।

এঁরা ছাড়াও শ্রীলেখার আগামী ছবিতে মুখ্য ভূমিকায় অভিনয় করতে দেখা যাবে জনপ্রিয় এক পুরুষ অভিনেতাকে। তাঁর নাম এক্ষুণি সামনে আনতে রাজি নন পরিচালক। আপাতত শ্রীলেখা মন দিচ্ছেন অংশুমান প্রত্যুষের আগামী ছবি ‘নির্ভয়া’-য়। লকডাউন উঠলেই আবার শ্যুট শুরু হবে, জানালেন তিনি। তারই ফাঁকে চলবে চিত্রনাট্য ঘষামাজার কাজ। কবে শ্যুট শুরু হবে তাঁর নতুন ছবির? পরিচালকের জবাব, ‘‘পুজোর পর বা শীতে। ওই সময় ঝকঝকে রোদ ওঠে।’’ কলকাতা ছাড়াও ছবির শ্যুটিং হবে শহরতলিতে, আউটডোরে।

Advertisement