Advertisement
১৭ জুলাই ২০২৪
Nilanjanaa Sengupta

দুই মেয়েকে নিয়ে গর্বিত মা, সারা ও জ়ারাকে নিয়ে মনের কথা ব্যক্ত করলেন নীলাঞ্জনা

নীলাঞ্জনা সেনগুপ্ত তাঁদের প্রযোজনা সংস্থার কাজে ব্যস্ত থাকেন। তবে তাঁর সাফল্যের নেপথ্যে দুই মেয়ের অবদানকে স্বীকৃতি দিলেন তিনি।

Nilanjanaa Sengupta penned a heartfelt note for her daughters

দুই মেয়ের সঙ্গে যিশু ও নীলাঞ্জনা। ছবি: ইনস্টাগ্রাম।

আনন্দবাজার অনলাইন সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ১২ জুন ২০২৪ ২০:৪৪
Share: Save:

যিশু সেনগুপ্ত টলিপাড়ার ব্যস্ত অভিনেতা। বিগত কয়েক বছর টলিপাড়ার পাশাপাশি তিনি বলিউড ও দক্ষিণী ইন্ডাস্ট্রিতে পাল্লা দিয়ে কাজ করছেন। অন্য দিকে, স্ত্রী নীলাঞ্জনা সেনগুপ্ত সামলাচ্ছেন দম্পতির প্রযোজনা সংস্থা।

প্রযোজনা সংস্থার কাজ প্রায় একার হাতেই দেখভাল করেন নীলাঞ্জনা। পাশাপাশি, দুই মেয়ে সারা ও জ়ারাকেও বড় করে তুলছেন তিনি। তবে নীলাঞ্জনা মনে করেন, কর্মরতা মহিলা হিসেবে তাঁর সাফল্যের নেপথ্যে রয়েছে তাঁর দুই কন্যা। মেয়েদের সঙ্গে বেশ কিছু ছবি সমাজমাধ্যমে ভাগ করে নিয়েছেন নীলাঞ্জনা। সঙ্গে লিখেছেন, ‘‘কর্মরতা মা হওয়া কঠিন। কিন্তু তার থেকেও কঠিন কর্মরতা মায়ের মেয়ে হওয়া!’’ এরই সঙ্গে নীলাঞ্জনা জানিয়েছেন, তিনি কর্মক্ষেত্রে তিনি নিজের সেরাটা দিতে পারেন শুধু মাত্র তাঁর মেয়েদের জন্যই। কারণ তাঁর মেয়েরা বলে, ‘‘তুমি পারবে মা।’’ একই সঙ্গে ওই পোস্টে দুই মেয়েকে তিনি ধন্যবাদও জানিয়েছেন।

যিশু-নীলাঞ্জনার বড় মেয়ে সারা এখন দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্রী। অন্য দিকে জ়ারা ষষ্ঠ শ্রেণির। আনন্দবাজার অনলাইনের তরফে যোগাযোগ করা হলে নীলাঞ্জনা বলেন, ‘‘এটা সত্যিই জানানো উচিত বলে মনে হল। কারণ, ওদের সমর্থনটা মা হিসেবে আমার কাছে খুব বড় প্রাপ্তি।’’ নীলাঞ্জনা যখন কাজে ব্যস্ত, মেয়েরা মায়ের কতটা খোঁজখবর রাখে? নীলাঞ্জনা হেসে বললেন, ‘‘সারা দিন ওরা ফোন করে আমার খোঁজ নিতে থাকে। বিশেষ করে খাওয়াদাওয়া ঠিক মতো করছি কি না, তা নিয়ে ওরা চিন্তিত থাকে।’’

এই মুহূর্তে যিশু-নীলাঞ্জনা প্রযোজিত ‘হরগৌরী পাইস হোটেল’ ধারাবাহিকের গল্পের সময়কাল এগিয়ে গিয়েছে। শুভস্মিতা মুখোপাধ্যায় এখনও রয়েছেন। তবে রাহুল মজুমদারের পরিবর্তে এ বার দেখা যাচ্ছে ইন্দ্রাশিস রায়কে। নতুন মোড়কে ধারাবাহিক যাতে দর্শকের প্রত্যাশা পূরণ করতে পারে, সেই চেষ্টাই চালিয়ে যাচ্ছেন নীলাঞ্জনা।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE