• স্রবন্তী বন্দ্যোপাধ্যায়
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

‘প্যাড নিয়ে কথা বলা কি পাপ?’ কলকাতার জন্য নতুন প্রকল্পের ঘোষণা ঋতাভরীর

ritabhari
ঋতাভরী।

কলকাতাকে বদলে দিতে চান এই অভিনেত্রী। নতুন চিত্রনাট্য লিখছেন তিনি কলকাতার জন্য। স্যানিটারি প্যাড নিয়ে কথা বলা কি পাপ? অভিনেত্রী ঋতাভরী চক্রবর্তী নয়। নারী দিবসের প্রাক্কালে এক বিদুষী মেয়ের সমাজ বদলের আনকোরা এক স্বপ্ন তুলে ধরছেন তিনি।

“কলকাতার পাবলিক টয়লেটে মেয়েদের জন্য স্যানিটারি প্যাড ভেন্ডিং মেশিন বসাচ্ছি আমরা। আমার এনজিও-র সঙ্গে এই উদ্যোগে আমি দুজন মানুষকে পেয়েছি একজন রাহুল দাশগুপ্ত আর এক জন বাংলার প্যাডম্যান শোভন মুখোপাধ্যায়। আজ থেকে ১০০ পাবলিক টয়লেটে এই মেশিন বসানোর কাজ শুরু করছি আমরা” উত্তেজিত ঋতাভরী।

তাঁর আগামী ছবি ‘ব্রহ্মা জানেন গোপন কম্মটি’ ঘিরে ঋতুস্রাব নিয়ে এক আলচনা সভায় শোভনের সঙ্গে ঋতাভরীর আলাপ। তিনি জানতে পারেন তিন বছর ধরে শোভন স্যানিটারি প্যাড ভেন্ডিং মেশিন নিয়ে কাজ করছেন। কলকাতা শহরের পাবলিক টয়লেটে মাত্র ৭০টা মেশিন বসাতে পেরেছেন। কারণ ফান্ডিং-এর অভাব। এই অভিনব উদ্যোগে ঋতাভরীর এগিয়ে আসেন। সঙ্গে যোগ দেন তাঁর বন্ধু রাহুল সেনগুপ্ত। কী বলছেন রাহুল?

আরও পড়ুন-মোদীর উচ্চারণ নিয়ে ব্যঙ্গ করায় টুইঙ্কলকে যৌনতা নিয়ে বিঁধলেন রঙ্গোলি


“আমাদের অনেক আগেই পিরিয়ড নিয়ে প্রকাশ্যে কথা বলা উচিত ছিল।এটা তো কোনও লজ্জার বিষয় নয়!এই প্রকল্পে আমার সবচেয়ে ভাল লেগেছে অ্যাপের বিষয়টি। যাতে যে কোনও সময় রাস্তায় থাকলেও মেয়েরা এই সুবিধে পেতে পারেন”।

শুধু স্যানিটারি প্যাড ভেন্ডিং মেশিন বসানোই নয়। যৌনাঙ্গে সংক্রমণ-সহ নানাবিধ স্ত্রীরোগ নিয়ে সচেতনতার কথাও লেখা থাকবে মেশিনের ওপর। যেমন স্যানিটারি প্যাড কতদিন ব্যাবহার করা যেতে পারে? কোথায় সেটা ফেলা উচিত? এমন নানা বিষয় মেশিনের ওপর লেখা থাকবে বলে জানালেন ঋতাভরী। তাঁর কথায়, ‘‘ধরুন বেহালায় কোনও মেয়ে রয়েছেন। তাঁর প্যাডের দরকার। তিনি যদি আমাদের ‘বন্ধন’ অ্যাপ-এ সার্চ করেন, তা হলে ওই অঞ্চলের কোথায় প্যাড পাবেন তা জেনে যাবেন” বুঝিয়ে দিলেন ঋতাভরী।

কলকাতার পাবলিক টয়লেটে মেয়েদের জন্য স্যানিটারি প্যাড ভেন্ডিং মেশিন বসাচ্ছেন ঋতাভরীরা 


 ঋতাভরী আর রাহুল দাশগুপ্তের মত মানুষকে পাশে পেয়ে আপ্লুত ‘প্যাডম্যান’ শোভন। তিনি বলেন, “আমি কবে থেকে এই লড়াইটা লড়ছি। কিন্তু ঋতাভরীদি আর রাহুলদা না এলে কিছুই করতে পারতাম না”।

প্রথমে ১০০ পাবলিক টয়লেটে মেশিন বসানো হবে।তারপর একে একে পুরো কলকাতায়।

আরও পড়ুন-রাহুল-সন্দীপ্তা, প্রিয়ঙ্কা-তথাগত, সৃজিতের বিয়েতে নতুন সঙ্গীদের হাত ধরে হাজির টলি সেলেবরা


“আমি হয়তো বাসে চড়ি না। আজও কলকাতার বাসে চড়া কোনও মেয়ে পাশের অজানা মেয়ের কাছে প্যাড চাইতে পারে না। আরে প্যাড চাওয়া, প্যাড নিয়ে কথা বলা কি পাপ? আমার ‘ব্রহ্মা জানেন গোপন কম্মটি’ ছবিতে আমি এই ট্যাবুগুলোই ভাঙতে চেয়েছি” বললেন ঋতাভরী।

#Iamher এই অভিযানে নেমেছেন তিনি, আগামী কলকাতাকে সংস্কারমুক্ত করতে।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন