Advertisement
১৭ জুন ২০২৪
Leena-Bharat-Aparajita

নাচের ভিডিয়ো করে তরুণীদের জুটল মার, গরম রডের ছ্যাঁকা! শিউরে উঠল টলিউড, দাবি যোগ্য শাস্তির

ইউটিউবে নাচের ভিডিয়ো আপলোড করে স্থানীয়দের হাতে প্রহৃত দুই তরুণী। এই ঘটনায় মুখ খুললেন লীনা গঙ্গোপাধ্যায়, ভরত কল এবং অপরাজিতা আঢ্য।

খড়দহ-কাণ্ড নিয়ে বিরক্ত লীনা, ভরত, অপরাজিতা।

খড়দহ-কাণ্ড নিয়ে বিরক্ত লীনা, ভরত, অপরাজিতা।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২২ ১৩:৪৩
Share: Save:

খড়দহে প্রহৃত দুই তরুণ‌ী, দেওয়া হল গরম রডের ছ্যাঁকা। ইউটিউবে নাচের ভিডিয়ো আপলোড করেছিলেন দুই তরুণী। সেই ভিডিয়োর শালীনতা নিয়ে অভিযোগ তুলে দুই মহিলা শিল্পীকে বেধড়়ক মারধরের করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। এই ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানালেন মহিলা কমিশনের চেয়ারপার্সন লীনা গঙ্গোপাধ্যায়, অভিনেত্রী অপরাজিতা আঢ্য এবং অভিনেতা ভরত কল।

এ প্রসঙ্গে আনন্দবাজার অনলাইনকে লীনা বলেছেন, “নীতিপুলিশি চলছে নেটমাধ্যমে। যা মাঝেমাঝে বিপজ্জনক হয়ে উঠেছে। এমন ঘটনাও আছে, এর ফলে অনেকে আত্মহত্যাও করতে গিয়েছে। সাইবার ক্রাইম সংক্রান্ত যে আইন আছে, কমিশন থেকে আমরা পর্যালোচনা করছি। বিভাস চক্রবর্তীর সঙ্গে কথাও বলেছি। গণতন্ত্রের নামে অন্য কারও মৃত্যুর কারণ হয়ে ওঠা, এটার তীব্র প্রতিবাদ করছি।”

দুই তরুণীকে প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসতে চূড়ান্ত বিরক্ত ভরত এবং অপরাজিতাও। ধারাবাহিকের শ্যুটিংয়ের ফাঁকে আনন্দবাজার অনলাইনকে অভিনেত্রী বলেন, “যাঁরা এ ধরনের কাজ করেছেন, তাঁদের সঙ্গেও এমনটা হওয়া উচিত। গাছের সঙ্গে বেঁধে এমন ভাবেই গরম র়ড দিয়ে ছ্যাঁকা দিয়ে দেওয়া দরকার। তা হলে যদি এদের একটু শিক্ষা হয়।” একই ভাবে উচিত শিক্ষার দাবি ভরতেরও। অভিনেতা বলেন, “অবিলম্বে এদের তিরস্কার করা উচিত। তাঁদের যখন এতই অপছন্দ, তা হলে কেন দেখছিলেন এমন ভিডিয়ো। সে রকম হলে আইনি ব্যবস্থা নিতে পারতেন, পুলিশে অভিযোগ করতে পারতেন তাঁরা, কিন্তু এই ঘটনা সত্যিই মেনে নিতে পারছি না।”

প্রসঙ্গত, একটি হিন্দি আইটেম গানে নাচের ভিডিয়ো আপলোড করেন সোদপুরের অমরাবতী এলাকার বাসিন্দা দুই তরুণী। গত ১২ সেপ্টেম্বর তাঁরা বাড়ি থেকে দোপেরিয়া মোড়ে এক বান্ধবীর বাড়িতে যাচ্ছিলেন। অভিযোগ, সেই সময় হঠাৎ করে বাইকে করে এসে গরম রড দিয়ে তাঁদের উপর চড়াও হন কয়েক জন। তার পর মারধর করা হয়।সূত্রের খবর, রহড়া থানায় অভিযোগ জানিয়েছেন দুই তরুণী। তবে এখনও পর্যন্ত অভিযুক্ত গ্রেফতার না হওয়ার কারণে আতঙ্কে ভুগছেন তাঁরা।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE