Advertisement
২১ ফেব্রুয়ারি ২০২৪
Fatigue

৩ খাবার: খাওয়া অভ্যাস করলে সপ্তাহান্তের ক্লান্তি কাটবে, আবার কাজেও মন বসবে

কখন যে চোখের পলকে হুট করে ছুটির দিনটা কেটে যায়, তা বুঝতেই পারা যায় না। পরের দিন সকাল পর্যন্ত চলতে থাকে সেই ক্লান্তির রেশ। সপ্তাহের শুরুতে যে নতুন উদ্যমে কাজ শুরু করবেন, তার উপায় থাকে না। এমন কোনও খাবার কি আছে, যা খেলে ক্লান্তি কাটতে পারে?

Image of Fatigue

বার বার চা, কফি খেয়ে সাময়িক ক্লান্তি কাটলেও তার জের বেশি ক্ষণ চলে না। ছবি: সংগৃহীত।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
কলকাতা শেষ আপডেট: ০৪ ডিসেম্বর ২০২৩ ১০:৫৭
Share: Save:

সারা সপ্তাহ কাজের পর একটা দিন ছুটি। ওই একটা দিন কী করবেন, আর কী করবেন না তা ভাবতেই ভাবতেই দিনটা অর্ধেক হয়ে যায়। ঠিক করে যে নিজের পরিচর্যা করবেন, তার উপায় থাকে না। কখন যে চোখের পলকে হুট করে ছুটির দিনটা কেটে যায়, তা বুঝতেই পারেন না। পরের দিন সকাল পর্যন্ত চলতে থাকে সেই ক্লান্তির রেশ। সপ্তাহের শুরুতে যে নতুন উদ্যমে কাজ শুরু করবেন, তার উপায় থাকে না। বার বার চা, কফি খেয়ে সাময়িক ক্লান্তি কাটলেও তার জের বেশি ক্ষণ চলে না। তবে এই ক্লান্তি কিন্তু সহজেই কাটাতে পারে প্রোটিন, ভিটামিন এবং খনিজে ভরপুর বেশ কিছু পুষ্টিকর খাবার।

১) কিনোয়া

উদ্ভিজ্জ প্রোটিনের উৎস হল কিনোয়া। এই দানাশস্যটি পুষ্টিবিদদের কাছে ‘ক্লমপ্লিট’ প্রোটিন নামে পরিচিত। তা ছাড়া এই দানাশস্যের মধ্যে রয়েছে বিভিন্ন প্রকার অ্যামিনো অ্যাসিড, যা শরীরের পেশি মজবুত রাখতে সাহায্য করে। রক্তে শর্করার ভারসাম্য বজায় রাখতেও সাহায্য করে এই কিনোয়া। যার ফলে ঝিমিয়ে পড়ার সমস্যা অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে থাকে।

২) ডার্ক চকোলেট

এই ধরনের চকোলেট স্বাদে একটু কড়া। কিন্তু ডার্ক চকোলেটে অ্যান্টিঅক্সিড্যান্টের পরিমাণ বেশি। থিয়োব্রোমাইন নামক এই অ্যান্টিঅক্সিড্যান্টটি শরীরে ক্যাফিনের মতোই কাজ করে। ফলে স্নায়ু সজাগ রাখতে সাহায্য করে। এ ছাড়াও ডোপামিন হরমোনের উৎপাদন এবং ক্ষরণের হার বাড়িয়ে তোলে। ফলে মনমেজাজও চাঙ্গা থাকে।

৩) কমলালেবু

ভিটামিন সি এবং প্রাকৃতিক শর্করা ফ্রুক্টোজ়-এ ভরপুর এই ফল। নিয়মিত একটি করে কমলালেবু খেতে পারলে ক্লান্তি কাটে এবং মনও তরতাজা থাকে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE