Advertisement
২২ জুন ২০২৪
Punjab

পঞ্জাবে ভারত-পাক সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে হত ৫ অনুপ্রবেশকারী

এ দিন ভোর পৌনে ৫টা নাগাদ পঞ্জাবের তারণ তরণ জেলার খেমকরনে ভারত-পাক সীমান্ত দিয়ে এ দেশে ঢোকার চেষ্টা করছিল অনুপ্রবেশকারীরা।

নিহত পাঁচ অনুপ্রবেশকারী। ছবি সৌজন্য টুইটার।

নিহত পাঁচ অনুপ্রবেশকারী। ছবি সৌজন্য টুইটার।

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ২২ অগস্ট ২০২০ ১২:২১
Share: Save:

পঞ্জাবে ভারত-পাক সীমান্তে পাঁচ অনুপ্রবেশকারীকে গুলি করে মারল বিএসএফ। শনিবার ভোরের ঘটনা।

বিএসএফ সূত্রে খবর, এ দিন ভোর পৌনে ৫টা নাগাদ পঞ্জাবের তারণ তরণ জেলার খেমকরনে ভারত-পাক সীমান্ত দিয়ে ৫ জন অনুপ্রবেশকারী এ দেশে ঢোকার চেষ্টা করছিল। বিএসএফের টহলদারি দল অনুপ্রবেশকারীদের দেখতে পায়। সঙ্গে সঙ্গে তারা সতর্ক হয়ে যায়।

বিএসএফ আরও জানিয়েছে, টহলদারি দলটিকে দেখামাত্রই তাদের লক্ষ্য করে এলোপাথারি গুলি চালাতে শুরু করে অনুপ্রবেশকারীরা। দু’পক্ষের মধ্যে ব্যাপক গুলি বিনিময় হয়। বিএসএফের গুলিতে পাঁচ অনুপ্রবেশকারীর মৃত্যু হয়েছে। গোটা এলাকা ঘিরে তল্লাশি শুরু করেছেন বিএসএফ জওয়ানরা।

সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে বিএসএফের এক আধিকারিক জানান, শুক্রবার মাঝরাতে সীমান্তে সন্দেহজনক কিছু লক্ষ্য করেন টহলদারি জওয়ানরা। সঙ্গে সঙ্গে তাঁরা সতর্ক হয়ে যান। নজরদারি চালাতে গিয়েই পাঁচ অনুপ্রবেশকারী নজরে আসে টহলদারি দলটির। তখনই দু’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ শুরু হয়। রাতভর গুলির লড়াই চলে।

এক দশকের বেশি সময় পর পঞ্জাবের ভারত-পাক সীমান্তে এ দিন এক সঙ্গে এত জন অনুপ্রবেশকারী নিহত হল বলে পিটিআইকে জানিয়েছেন ওই আধিকারিক।

অন্য দিকে, এ দিন সকালেই দিল্লির ধৌলা কুঁয়া থেকে আইএস জঙ্গি সন্দেহে এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ধৃতের নাম আবু ইউসুফ খান। পুলিশের দাবি, রাজধানীতে হামলা চালোনোর ছক ছিল তার। রাতভর গুলির লড়াইয়ের পর এ দিন সকালে গ্রেফতার করা হয় আবুকে। তার কাছ থেকে একটি পিস্তল এবং আইইডি উদ্ধার করেছে পুলিশ।

আরও পড়ুন: দিল্লিতে নাশকতার ছক বানচাল, গুলির লড়াইয়ের পর গ্রেফতার সন্দেহভাজন আইএস জঙ্গি

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Punjab Infiltrators Encounter BSF
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE