Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০১ জুলাই ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

‘মাথার আঘাতে মাকেও চিনতে পারছে না বিনয়’, আদালতে দাবি দণ্ডিতের আইনজীবীর

তিহাড় জেল সূত্রে খবর, গত ১৬ ফেব্রুয়ারি অর্থাৎ রবিবার নিজের সেলের দেওয়ালে মাথা ঢুকে নিজেকে আহত করে বসে বিনয়।

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি ২০ ফেব্রুয়ারি ২০২০ ২০:১৩
Save
Something isn't right! Please refresh.
নির্ভয়া কাণ্ডে প্রাণদণ্ডে দণ্ডিত বিনয় শর্মা। — ফাইল চিত্র

নির্ভয়া কাণ্ডে প্রাণদণ্ডে দণ্ডিত বিনয় শর্মা। — ফাইল চিত্র

Popup Close

জেলের দেওয়ালে মাথা ঠুকে নিজেকে জখম করেছিল নির্ভয়া-কাণ্ডের অন্যতম দণ্ডিত বিনয় শর্মা। এ বার আদালতে তার আইনজীবী দাবি করলেন, মাথার আঘাতের জেরে স্কিৎজোফ্রেনিয়ায় ভুগছে সে। এমনকি, সে নাকি নিজের মাকেও চিনতে পারছে না। বিনয়ের চিকিৎসার জন্য কোর্টের কাছে আবেদন জানিয়েছেন তার আইনজীবী।

ওই আইনজীবীর দাবি, বিনয়ের মাথায় ক্ষত তৈরি হয়েছে। তার ডান হাত ভেঙে গিয়েছে। তার মানসিক অসুস্থতা এবং স্কিৎজোফ্রেনিয়ার মতো মানসিক সমস্যাও দেখা দিয়েছে। ওই আইনজীবী আরও দাবি করেছেন, পরিস্থিতি এতটাই সঙ্গিন যে, বিনয় তার মা ও অন্য পরিচিতদেরও চিনতে পারছে না। তাকে ইনস্টিটিউট অব হিউম্যান বিহেভিয়ার অ্যান্ড অ্যালায়েড সায়েন্সেস হাসপাতালে রেখে চিকিৎসা চালানোর আর্জিও আদালতের কাছে জানিয়েছেন ওই আইনজীবী।

প্রাণভিক্ষার আবেদন খারিজ হওয়ার পর, আমরণ অনশনে বসেছিল বিনয়। তিহাড় জেল সূত্রে খবর, গত ১৬ ফেব্রুয়ারি অর্থাৎ রবিবার নিজের সেলের দেওয়ালে মাথা ঢুকে নিজেকে আহত করে বসে বিনয়। তবে এক জেলকর্মী তাকে দেখে ফেলেন। বিনয়কে উদ্ধার করে তার চিকিৎসার বন্দোবস্ত করা হয়। একই সঙ্গে তার চোট তেমন গুরুতর নয় বলেও জানিয়েছেন তিহাড় জেল কর্তৃপক্ষ।

Advertisement

আরও পড়ুন: আগ্রায় যাবেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট, দুর্গন্ধ ঢাকতে যমুনায় ছাড়া হল ৫০০ কিউসেক জল​

আরও পড়ুন: ‘জাতীয়তাবাদ শব্দটা এড়িয়ে চলুন, ওতে নাৎসিবাদের আঁচ পাওয়া যায়’, মন্তব্য ভাগবতের​

অবশ্য এই প্রথম নয়। এর আগে, গত ১৭ ফেব্রুয়ারি দিল্লির পাটিয়ালা হাই কোর্ট নতুন করে মৃত্যু পরোয়ানা জারি করার দিনই, বিনয়ের আইনজীবী আদালতে অভিযোগ করেন, তাকে জেলের মধ্যে মারধর করা হয়েছে। তার ফলে মাথায় চোট পেয়েছে বিনয়। তাই সে মানসিক ভাবে সুস্থ নয়। অতএব ফাঁসি পিছিয়ে দেওয়া হোক। কিন্তু সেই আবেদনে কান দেয়নি আদালত। আগামী ৩ মার্চ সকাল ছ’টায় চার দণ্ডিতের ফাঁসি হওয়ার কথা।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)


Something isn't right! Please refresh.

Advertisement