×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২৩ জানুয়ারি ২০২১ ই-পেপার

জোট চিত্র এখনও স্পষ্ট নয় অসমে

নিজস্ব সংবাদদাতা
শিলচর২১ নভেম্বর ২০২০ ০৫:২৮
প্রতীকী ছবি।

প্রতীকী ছবি।

অসমে মহাজোট নিয়ে ধন্দ বেড়েই চলেছে৷ নতুন আঞ্চলিক দলগুলি বিজেপির মতো কংগ্রেস, এআইইউডিএফ থেকেও সমদূরত্ব বজায় রাখার কথা ঘোষণা করেছে৷ মহাজোটের আহ্বানেও অবস্থান বদলের লক্ষণ দেখা যায় না৷ বদরুদ্দিন আজমলের দল জোট গঠনে উঠেপড়ে লেগেছে৷ কিন্তু কংগ্রেস নেতারা সমান আগ্রহী নয়৷ বরং তৃণমূল স্তরের কর্মীদের একক ভাবে লড়াইয়র প্রস্তুতি নিতেই বলা হচ্ছে৷ এমনকি প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি রিপুন বরা এআইইউডিএফ-কে বিজেপির বন্ধু বলেই উল্লেখ করেন৷ বিজেপিকে দোষারোপ করতে গিয়ে বলেন, “এরা আজমলের দলের সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে কংগ্রেসকে নানা কথা শোনায়৷ কিন্তু নিজেরাই বহু আগে এআইইউডিএফ-এর সঙ্গে সখ্য গড়ে তুলেছে৷” বিজেপি-এআইইউডিএফ-এর বন্ধুত্বের বেশ কিছু প্রমাণ রয়েছে বলে দাবি করেন সাংসদ বরা৷ তাঁর কথায়, রাজ্যসভার ভোট, পঞ্চায়েত নির্বাচনে দুই দলের গোপন মিত্রতা ছিল৷

সেই এআইইউডিএফ-এর সঙ্গে জোট বা মহাজোট হচ্ছে তো? স্পষ্ট জবাব দিতে পারেননি প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি৷ বলেন, “রাজনীতিতে কূটনীতি থাকবে, কৌশল থাকবে৷ তাই একটু অপেক্ষা করুন৷”

কিন্তু অপেক্ষা করতে চাইছেন না আজমল৷ তাঁর কথায়, “কংগ্রেসের দিকে অনির্দিষ্টকাল ধরে তাকিয়ে থাকব না৷ দ্রুত সিদ্ধান্ত নিতে-পারলে ভুল করবে এরা৷”

Advertisement

আজমলকে আপেক্ষায় রাখলেও রিপুনবাবুরা বিপিএফ-এর দিকে হাত বাড়িয়ে দিয়েছে৷ বিজেপির সঙ্গে বিরোধ বাড়তে থাকায় কংগ্রেস নেতারা আগ বাড়িয়ে তাদের সঙ্গে জোট গঠনের আগ্রহ প্রকাশ করেন৷ বিজেপি জোটের আগে ১৫ বছর একসঙ্গে থাকার কথা স্মরণ করিয়ে দেন বড়ো নেতাদের৷ বিপিএফ কিন্তু এ পর্যন্ত কংগ্রেসের প্রস্তাবে টু শব্দটি করেনি৷ বরং একক ভাবে লড়াইয়েরর কথাই তাঁদের মুখে৷

Advertisement