Advertisement
০১ মার্চ ২০২৪
Thief

১৮৬০ টাকা চুরি করে লুকিয়ে ছিলেন গুহায়, ১৪ বছর পর আত্মসমর্পণ পুলিশের কাছে

১৪ বছর আগে একটি গ্যাস স্টেশন থেকে কিছু টাকা চুরি করেছিলেন এক ব্যক্তি। পুলিশের ভয়ে একটি গুহায় লুকিয়ে ছিলেন। সম্প্রতি পুলিশের কাছে আত্মসমর্পণ করেন তিনি।

১৪ বছর পর পুলিশের কাছে আত্মসমর্পণ করলেন অভিযুক্ত লুই মওফু।

১৪ বছর পর পুলিশের কাছে আত্মসমর্পণ করলেন অভিযুক্ত লুই মওফু। ছবি: সংগৃহীত।

সংবাদ সংস্থা
বেজিং শেষ আপডেট: ১৪ মার্চ ২০২৩ ১৩:১৪
Share: Save:

২০০৯ সালে চিনের একটি গ্যাস স্টেশনে ডাকাতি করেছিলেন। এই কাজে তাঁকে সাহায্য করা দুই সঙ্গীকে আগেই ধরে ফেলে পুলিশ। কিন্তু পুলিশের হাত থেকে বাঁচতে দুর্গম পাহাড়ের গুহায় আশ্রয় নিয়েছিলেন তিনি। ১৪ বছর পর পুলিশের কাছে আত্মসমর্পণ করলেন অভিযুক্ত লুই মওফু। তিনি চিনের এনশি শহরের বাসিন্দা।

১৪ বছর আগে চিনের একটি গ্যাস স্টেশন থেকে ১৫৬ উয়ান চুরি করেছিলেন তিনি। ভারতীয় মুদ্রায় যার মূল্য ১৮৫৯ টাকা। তবে লুই একা চুরি করতে যাননি। সঙ্গে ছিলেন তাঁর এক বন্ধু এবং শ্যালক। চুরির টাকার মধ্যে তাঁরা প্রায় ৬০ উয়ান অর্থাৎ, ৭০০ টাকা খাওয়াদাওয়া করে খরচ করে ফেলেছিলেন। এবং বাকি টাকা নিজেদের মধ্যে ভাগ করে নিয়েছিলেন।

এই ঘটনার এক দিন পরেই লুইয়ের দুই সঙ্গীকে গ্রেফতার করে পুলিশ। কিন্তু লুই কিছুতেই পুলিশের হাতে ধরা দিতে চাননি। তাই তিনি একটি পাহাড়ের গুহায় আত্মগোপন করেন। এ দিকে পুলিশ লুইয়ের খোঁজ শুরু করে। তাঁর পরিবারকেও জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। কিন্তু কোনও খোঁজ পাওয়া যায়নি। পরে অবশ্য জানা গিয়েছে, বিশেষ কোনও উৎসব-অনুষ্ঠানে অল্প সময়ের জন্য লুই মাঝেমাঝে বাড়ি ফিরতেন। তবে লুই বাড়ির লোকেদের কাছে নিজের গোপন আস্তানার কথা প্রকাশ করেননি বলেই ধারণা পুলিশের।

গুহায় খুব কষ্ট করে কাটাতেন তিনি। গাছের ফল পেড়ে খেতেন। মাঝেমাঝে শিকারও করতেন। কিন্তু এত বছর ধরে বাড়ির লোকজনের থেকে দূরে থেকে তিনি মানসিক ভাবে ভেঙে পড়েছিলেন। তাই পরিবারের সঙ্গে আলোচনা করেই আত্মসমর্পণের সিদ্ধান্ত নেন। চুরির ঘটনার সময়ে লুইয়ের বয়স ছিল ৩০ বছর। এখন তিনি ৪৫। ইতিমধ্যে ছেলের বিয়ে, বাবার মৃত্যু, নাতির জন্ম— এমন বহু ঘটনা ঘটে গিয়েছে। কিন্তু কোনও কিছুরই সাক্ষী থাকতে পারেননি তিনি। লুই পুলিশকে জানিয়েছেন, যে কোনও শাস্তি তিনি মাথা পেতে নেবেন।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE