দোলের দিন কোথায় খেতে যাবেন? খরচই বা কত?

নিজস্ব প্রতিবেদন
দোলের দিন কোথায় খেতে যাবেন? খরচই বা কত?

দোল বা হোলি যে নামেই ডাকুন না কেন তাকে, রঙের আবেদন তাতে কমে না এতটুকু। প্রিয় জনের শরীরে আবির ছোঁয়ানো হোক বা রঙের চোটে চিনতে না পারার মতো উদ্দাম বসন্ত উৎসব! যে ভাবেই এই দিনটা উদযাপন করুন না কেন, পেটপুজোটা কিন্তু কিছুতেই বাদ দেওয়া যায় না!

যাঁরা ভেবে রেখেছেন, সারা দিনের উদযাপনের পর চেনা কোনও রেস্তরাঁয় ঢুঁ মারবেন প্রিয় জনকে নিয়ে, তাঁদের জন্যই গোটা শহরের বেশ কিছু রেস্তরাঁ সেজে উঠছে দোল উপলক্ষে তাদের বিশেষ ডিশ নিয়ে। কোথাও সেই সব মেনুতে চলছে অফার, তো কোথাও আবার শরবত ও খাবারের নিত্যনতুন মেনু!

দেখে নিন কোন রেস্তরাঁ কী কী আয়োজন করছে আপনার জন্য, আর সে সবের খরচই বা কত?

আরও পড়ুন: ‘পরান্ঠেওয়ালি গলি’র জিভে জল আনা রাজমা গলৌটি কাবাবের রহস্যভেদ!

চ্যাপ্টার টু-এর বিশেষ শরবত।

চ্যাপ্টার টু: উত্তর কলকাতার দোলের আমেজ ধরে রাখতে মানিকতলা মেন রোডে মণি স্কোয়্যার মল-এর এই রেস্তরাঁ দোল উপলক্ষে তাদের মেনু সাজিয়েছে কিউয়ি ব্লাস্ট, ব্লু বেরি ব্লাস, প্যানাশিয়ান কুলার এ সব মকটেলকে। আসলে এ সব নামের আড়ালে এক একটা রংকেই যেন উদযাপন করতে চলেচে এরা। মকটেলের পাশাপাসি রঙিন সব ককটেলের আয়োজনও থাকছে। তাদের যোগ্য সঙ্গত করবে নানা রকমের স্ন্যাক্স। দোলের দিন বিকেল ৫.৩০ থেকে ১০.৩০ পর্যন্ত খোলা থাকবে এই রেস্তরাঁ। ২১ ও ২২ তারিখ অবধি চলবে এমন উদযাপন। দু’জনে খেতে খরচ মোটে ৫০০ টাকা।

ওয়াশাবি: শুধুই শরবতে নয়, খাবারেও চমক রাখছে এরা। সিন্ডারেলা মকটেলের সঙ্গে তাই অক্লেশে কাছে টেনে নিতে পারেন চিকেন তাই পেই বা ক্রিসপি চিলি বেবি কর্ন। মেন কোর্সেও অর্ডার করতেই পারেন স্পেশাল বেসিল রাইস বা থাই স্টাইল চিকেন নুডল, সঙ্গে থাকুক চিকেন ও মটনের হরেক পদ। ডেজার্টেও থাকছে নতুনত্বের ছোঁওয়া, যা কি না দোল উপলক্ষেই মেনুতে রাখছে এই রেস্তরাঁ। ঠিকানা, দেশপ্রিয় পার্ক। দু’জনের খেতে খরচ করসহ ৮০০ টাকা। ৩১ মার্চ পর্যন্ত এই মেনুগুলি মিলবে ওয়াশাবিতে।

আরও পড়ুন: ট্রাফিক গ্যাস্ট্রোপাবের সেরা রেসিপি পালস চিকেন টিক্কা, এ ভাবে বানান শেফরা!

অওধ ১৫৯০-এর এমন শরবতে জিভে জল আসবেই।

অওধ ১৫৯০: গুলাব শরবত, বাদাম শরবত, আম খাস, দুধ গুলাব। এ সব নামেই জিভে জল এলে শরবতের নানা আরাম পেতে আপনাকে হাজির থাকতেই হবে অওধ ১৫৯০ল –এর যে কোনও একটি আউটলেটে। ২১ ও ২২ তারিখ দু’দিন ধরেই মিলবে এমন সব শরবত। দু’জনে খেতে খরচ পড়বে করবিহীন ১২০-১৪০ টাকা।

বরফ সো়ডা পানি: পার্ক স্ট্রিটের ম্যাগমা হাউজে অবস্থিত এই রেস্তরাঁয় গেলে দোলের দিন সহজেই মিলবে নরাঙ্গি আম সোডা, পুদিনা শিকাঞ্জি সোডা, ব্লু পানি সোডা ইত্যাদি। রং ও আবিরের দিনে মকটেলের রঙে মজতে ঢুঁ মারতেই পারেন এখানে। শরবত চাখতে দু’জনের জন্য খরচ পড়বে  ২০০-৩০০ টাকা।

হোয়াটসঅ্যাপ কাফে: হোলির দিন প্রিয় জনকে নিয়ে আনন্দে সন্ধেটুকু কাটাতে আপনি হাজির হতেই পারেন ১২২এ সাদার্ন অ্যাভিনিউয়ের হোয়াটসঅ্যাপ কাফেতে। দোল উপলক্ষে সেখানে মিলবে নানা রঙের রঙ্গোলি শট। কাবাবও হয়ে উঠবে নানা রঙে রঙিন। মটন শিক র‌্যাপড উইথ চিকেন বা স্টাফড পনির কাবাব সবই জিভে জল আনবে। খরচ পড়বে কর-সহ ১৫০০ টাকা।

ওয়াফেলের নতুন স্বাদ নিতে হাজের হোন আমেরিকান ওয়াফেল হাউজ।

আমেরিকান ওয়াফেল হাউজ:  নামেই আমেরিকান, আসলে আমেরিকান ওয়াফেলকে একেবারে ভারতীয় জিভের মতো করে বানানো। দোলের দিনও এদের সব ক’টি আউটলেটে মিলবে রঙিন সব ওয়াফেল। দোল উপলক্ষে মাত্র ৯৯ টাকার অফারেই মিলবে নানা রকম খাবারদাবার।