দোলে বাড়িতেই বানিয়ে ফেলুন ‘জামেশন ইন সিরাজ’-এর এই দুই রেসিপি

নিজস্ব প্রতিবেদন
দোলে বাড়িতেই বানিয়ে ফেলুন ‘জামেশন ইন সিরাজ’-এর এই দুই রেসিপি

দোল বা হোলি যে নামেই তাকে ডাকি না কেন, মেনর মতো শরবত না হলে আজকের দিনটা যেন মাঠেই মারা গেল! সারা সকাল রং নিয়ে হুল্লোড়, বিকেলে আবির আর তার সঙ্গে মনের মতো শরবত— এই রুটিন ছাড়া দোল কি আর জমে!

শহর কলকাতার নানা রেস্তরাঁ ইতিমধ্যেই দোল উপলক্ষে নতুন করে মেনু সাজিয়েছে তাদের। চলছে নানা অফারও। দোলের দিন বিকেল থেকেই খুলে যাবে শহরেরে বেশির বাগ রেস্তরাঁ। তবে দোকানে দোকানে ঢুঁ মারার ইচ্ছা না থাকলেও চিন্তা নেই। নামমাত্র উপকরণ দিয়ে বানানো কলকাতার ‘জামেসন ইন সিরাজ’-এর শরবতের হদিশ যদি বাড়িতেই পাওয়া যায়, তা হলে ক্ষতি কী?

এই দোলে রেস্তরাঁর সবচেয়ে জনপ্রিয় দুই শরবতের রেসিপি জেনে নিন। সহজ উপাদানের এই দুই পদ বানিয়ে ফেলা যাবে বাড়িতেই।

আরও পড়ুন: দোলের দিন কোথায় খেতে যাবেন? খরচই বা কত?

পিংক লেডি

উপকরণ:

লেবুর রস: ২ মিলিলিটার

লেমোনেড: ২০০ মিলিলিটার
পমেগ্রানাতে সিরাপ: ৫ মিলিলিটার

কাঁচা বরফ

জল

প্রণালী: এক গ্লাস জলে লেবুর রস ও লেমোনেড একসঙ্গে ভাল করে মিশিয়ে নিন। এ বার এতে পমেগ্রানাতে সিরাপ যোগ করে উপর থেকে বরউ কুঁচি ফেলে দিন। অতিথির টেবিলে পরিবেশনের আগে উপরে একটি পাতি লেবুর টুকরো রেখে দিন।  দোলের দিন এমন  শরবতে জমে যাক সন্ধেটা।

আরও পড়ুন: দোলের সন্ধে জমে যাক কুঁচো চিংড়ির এমন বড়া দিয়ে!

গ্রিন ফ্যান্টাসি

উপকরণ:

লেবুর রস: ৫ মিলিলিটার

সুগার সিরাপ: ১০ মিলিলিটার

ক্রিম দে মিন্ট: ১০-১৫ মিলিলিটার

সোডা

কাঁচা বরফ

জল

প্রণালী: হাফ গ্লাস জলে লেবুর রস, সুগার সিরাপ ও সোজা ভাল করে মিশিয়ে নিন। এ বার উপরে ক্রিম দে মিন্ট মিশিয়ে একটি বোতলে ভরে ঢাকা আটকে ভাল করে ঝাঁকিয়ে নিন। এ বার আবার তাকে একটি গ্লাসে ঢেলে উপর থেকে কাঁচা বরফ ছড়িয়ে দিন। সাজানোর জন্য একটি পাতি লেবুর টুকরো আটকে দিন গ্লাসের গায়ে। তা হলেই তৈরি আপনার প্রিয় গ্রিন ফ্যান্টাসি।