Advertisement
০৫ মার্চ ২০২৪
India vs Australia

৩ কোটির বিল বকেয়া রেখে রাতারাতি দেড় কোটি দিয়ে জেনারেটর ভাড়া! চতুর্থ টি২০ নিয়ে উঠল প্রশ্ন

ভারত বনাম অস্ট্রেলিয়ার চতুর্থ টি-টোয়েন্টিতে ম্যাচের মাঝেই বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছিল। ম্যাচে বিদ্যুৎ সংযোগ তো ছিলই, উল্টে খেলার শেষে লেজ়ার শোও দেখা গিয়েছে। কী ভাবে হল?

cricket

এই ফ্লাডলাইটই জ্বলেছে জেনারেটর দিয়ে। ছবি: পিটিআই।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
শেষ আপডেট: ০২ ডিসেম্বর ২০২৩ ১৬:৫৬
Share: Save:

ভারত বনাম অস্ট্রেলিয়ার চতুর্থ টি-টোয়েন্টিতে ম্যাচের মাঝেই বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছিল। কারণ ছত্তীসগঢ় রাজ্য ক্রিকেট সংস্থার তরফে বিল দেওয়া হয়নি। কিন্তু ম্যাচে বিদ্যুৎ সংযোগ তো ছিলই, উল্টে খেলার শেষে লেজ়ার শোও দেখা গিয়েছে। অনেকেই তা দেখে প্রশ্ন করছেন, কী ভাবে এটা সম্ভব হল? রাতারাতি কে বিল মিটিয়ে দিলেন?

জানা গিয়েছে, বিল কেউ মেটাননি। তবে শেষ মুহূর্তে কোনও মতে জেনারেটরের ব্যবস্থা করে সম্মান বাঁচানো গিয়েছে। ছত্তীসগঢ় ক্রিকেট সংস্থা ১.৪ কোটি টাকা দিয়ে জেনারেটর ভাড়া করেছিল। তাতেই হয়েছে ম্যাচ এবং তার পরে লেজ়ার শো। এতে নতুন করে একটি প্রশ্নও উঠেছে। যে সংস্থা ৩.১ কোটি টাকার বিল এত দিন ধরে দিতে পারেনি, তারা রাতারাতি ১.৪ কোটি টাকা দিয়ে জেনারেটর ভাড়া করল কী করে?

গত ১৪ বছর ধরে বিদ্যুতের বিল জমা করেনি ছত্তীসগঢ় ক্রিকেট সংস্থা। সেই কারণে পাঁচ বছর আগে বিদ্যুতের লাইন কেটে দেওয়া হয়। শুক্রবারের ম্যাচের জন্য ছত্তীসগঢ় ক্রিকেট সংস্থার অনুরোধে সাময়িক বিদ্যুতের ব্যবস্থা করা হয়েছিল। তবে তাতে আলো জ্বলেছিল শুধু গ্যালারি এবং বক্সে। মাঠের ফ্লাডলাইট জ্বালানো হয়েছিল জেনারেটর দিয়ে।

শুক্রবার আগে ছত্তীসগঢ় ক্রিকেট সংস্থার এই মাঠে একটিই আন্তর্জাতিক ম্যাচ হয়েছিল। এই বছর ভারত এবং নিউ জ়িল্যান্ড মুখোমুখি হয়েছিল রায়পুরে। সেই এক দিনের ম্যাচে কিউইদের ১০৮ রানে অল আউট করে দিয়েছিল ভারত।

২০১৮ সালে রায়পুরের স্টেডিয়ামে একটি হাফ ম্যারাথন আয়োজন করা হয়েছিল। সেই সময় খেলোয়াড়েরা বুঝতে পারেন যে, ওই স্টেডিয়ামে কোনও বিদ্যুৎ নেই। তখনই জানা গিয়েছিল যে, ২০০৯ থেকে বিদ্যুতের বিল জমা দেয়নি ছত্তীসগঢ় ক্রিকেট সংস্থা। জানা গিয়েছে, রায়পুর স্টেডিয়াম তৈরি হওয়ার পর সেটার দেখাশোনার দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে পিডব্লিউডি-কে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE