Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৮ অক্টোবর ২০২১ ই-পেপার

বিশেষ টেস্ট কেন্দ্র চেয়ে বিরাটের পাশে দাঁড়ালেন কুম্বলে

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ২৭ অক্টোবর ২০১৯ ০৩:১০
সমর্থন: টেস্টে দর্শক টানতে বিশেষ প্রস্তাব কুম্বলের। ফাইল চিত্র

সমর্থন: টেস্টে দর্শক টানতে বিশেষ প্রস্তাব কুম্বলের। ফাইল চিত্র

বিরাট কোহালির পাশে দাঁড়ালেন প্রাক্তন জাতীয় কোচ অনিল কুম্বলে। সায় দিলেন ভারত অধিনায়কের প্রস্তাবে।

রাঁচীতে ভারত-দক্ষিণ আফ্রিকা টেস্টের পরে বিরাট বলেছিলেন, দেশে শুধু পাঁচটি স্থায়ী টেস্ট কেন্দ্র থাকা উচিত। দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজে টেস্ট ম্যাচে অত্যন্ত কম সংখ্যক দর্শক হওয়ার পরে এই মন্তব্য করেন ভারত অধিনায়ক। শনিবার একটি ক্রিকেট ওয়েবসাইটে কুম্বলে বলেন, ‘‘কোহালির প্রস্তাবটা ভাল। টেস্ট ক্রিকেটের স্বার্থেই ভারতে বিশেষ বিশেষ কেন্দ্রে টেস্ট ম্যাচ হওয়া উচিত। তবে শুধু বিশেষ বিশেষ কেন্দ্রেই নয়, কখন কোথায় টেস্ট ম্যাচ দেওয়া হচ্ছে, সেটাও খুব গুরুত্বপূর্ণ।’’

কুম্বলে মনে করেন, উৎসবের কথা মাথায় রেখে টেস্ট ম্যাচ দিলে, মাঠে দর্শক বেশি আসবে। বছর দুই আগে, চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে বিরাটদের কোচ ছিলেন কুম্বলে। টেস্ট ক্রিকেটে আগ্রহ বাড়ানো নিয়ে তাঁর মন্তব্য, ‘‘এখনও মনে আছে, পোঙ্গলের সময় টেস্ট ম্যাচ হত চেন্নাইয়ে। মরসুম শুরুতে দিল্লি, মুম্বই, বেঙ্গালুরু, কলকাতায় খেলা হত।’’

Advertisement

রাঁচী টেস্টে দর্শক সংখ্যা এতই কম ছিল যে, বিরাট এই বিষয়ে মুখ খোলেন। অস্ট্রেলিয়া বা ইংল্যান্ডে সেরা দলগুলোর সফরের সময় যেমন নির্দিষ্ট বিশেষ কিছু কেন্দ্রে টেস্ট ম্যাচ হয়ে থাকে, সে রকম কেন্দ্র এ দেশেও চান ভারত অধিনায়ক। কুম্বলে সেই প্রস্তাবে সায় দিয়ে বলেন, ‘‘নির্দিষ্ট কিছু কেন্দ্রকে টেস্টের জন্য বেছে নিতে হবে আগে। যাতে মরসুমের শুরুতেই সেখানকার দর্শকরা জেনে যান, তাঁদের শহরেই টেস্ট হবে। সে ভাবেই টেস্টের প্রচার করতে হবে। দেখতে হবে, যাতে মাঠে দর্শক আসে।’’

এর পরে নিজের অভিজ্ঞতা থেকে কুম্বলে বলেন, ‘‘আমি যখন ভারতের কোচ ছিলাম, তখন ছ’টা আলাদা আলাদা কেন্দ্রে টেস্ট ম্যাচ খেলেছি। সব ক’টিই নতুন কেন্দ্র ছিল। যার মধ্যে ইনদওরেই একমাত্র মাঠ ভরা ছিল। পরিবেশটাও দারুণ ছিল। আরও একটা ব্যাপার। ইনদওরে স্টেডিয়ামটা একেবারে শহরের কেন্দ্রে। তাই যে কোনও সময়ই মাঠে লোক চলে আসতে পারত।’’

কিছু দিন কোচিং থেকে দূরে থাকার পরে কুম্বলে আবার আইপিএলে ফিরেছেন। এ বার তিনি কিংস ইলেভেন পঞ্জাবের ‘ডিরেক্টর অব ক্রিকেট’ হয়েছেন। ভারতের নতুন বোর্ড প্রেসিডেন্ট সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের মতো কুম্বলেও মনে করেন, দিন-রাতের টেস্ট ম্যাচের প্রয়োজন আছে। তিনি বলেছেন, ‘‘দিন-রাতের টেস্ট ম্যাচ দেখতে লোক হবে বলেই আমার মনে হয়। অন্তত পরের অর্ধে তো বটেই।’’ তবে কুম্বলে পাশাপাশি এও বলেন, ‘‘দিন-রাতের টেস্ট করতে হলে ঠিক কেন্দ্র এবং ঠিক সময়টা বাছতে হবে। কারণ আমরা দেখেছি, অনেক দিন-রাতের ওয়ান ডে ম্যাচে শিশির পড়ার জন্য বল ভিজে যায়। তাই কোন মাঠে দিন-রাতের টেস্ট হচ্ছে আর বছরের কোন সময় হচ্ছে, সেটা গুরুত্বপূর্ণ।’’

দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে অনায়াসে ৩-০ সিরিজ জিতেছে ভারত। বিরাটের এই দল বিশ্ব ক্রিকেট শাসন করবে বলেই মনে করেন কুম্বলে। তিনি মনে করিয়ে দিয়েছেন, ‘‘আমি যখন ভারতের কোচ ছিলাম, তখন বলেছিলাম, এই দলটার বিশ্ব ক্রিকেট শাসন করার ক্ষমতা আছে। ঠিক সেই কাজটাই ওরা এখন করে দেখাচ্ছে। আর এই দলটার প্রথম একদশই যে শুধু শক্তিশালী, তা নয়। রিজার্ভ বেঞ্চের শক্তিও দারুণ।’’

আরও পড়ুন

Advertisement