Advertisement
২৫ জুন ২০২৪
ISL 2022-23

বার বার এগিয়ে গিয়েও জয় অধরা, নর্থইস্টের বিরুদ্ধে ড্র করল ইস্টবেঙ্গল

৩-৩ গোলে শেষ হল ইস্টবেঙ্গল বনাম নর্থইস্টের ম্যাচ। সকলকে চমকে দিয়ে ব্যাকভলিতে গোল করেন ইস্টবেঙ্গলের জেক জার্ভিস। কিন্তু সেই গোলও জয় এনে দিতে পারল না।

East Bengal vs NorthEast United

শেষ বেলায় নর্থইস্টের একের পর এক আক্রমণ ভয় ধরিয়ে দিয়েছিল ইস্টবেঙ্গলের রক্ষণভাগে। ছবি: টুইটার

নিজস্ব প্রতিবেদন
শেষ আপডেট: ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ ২১:৩২
Share: Save:

লিগ টেবিলের শেষ দল। সেই নর্থইস্ট ইউনাইটেডের বিরুদ্ধেও জয় পেল না ইস্টবেঙ্গল। শুরুতে এগিয়ে গিয়েও ড্র। ৩-৩ গোলে শেষ হল ইস্টবেঙ্গল বনাম নর্থইস্টের ম্যাচ। সকলকে চমকে দিয়ে ব্যাকভলিতে গোল করেন ইস্টবেঙ্গলের জেক জার্ভিস। কিন্তু সেই গোলও জয় এনে দিতে পারল না। শেষ বেলায় নর্থইস্টের একের পর এক আক্রমণ ভয় ধরিয়ে দিয়েছিল ইস্টবেঙ্গলের রক্ষণভাগে। কিন্তু নিজেদের ব্যর্থতায় গোল করতে পারেনি নর্থইস্ট।

ম্যাচ শুরুর ১০ মিনিটের মাথায় গোল করে লাল-হলুদকে এগিয়ে দেন ক্লেটন সিলভা। জেরি লালরিনজুয়েলার থ্রো খুঁজে নেয় ক্লেটনকে। সেই বল ফেরত আসে জেরির কাছে। আলেক্সান্দ্রে লিমার সঙ্গে পাস খেলে জেরি ক্রস তোলেন ক্লেটনকে লক্ষ্য করে। হেডে গোল করে যান ব্রাজিলীয় ফুটবলার। নর্থইস্টের গোলরক্ষক অরিন্দম ভট্টাচার্যের কিছুই করার ছিল না। ৩০ মিনিটের মাথায় সেই গোল শোধ করে দেন নর্থইস্টের পার্থিব গগই। যদিও তাঁর গোলের পিছনে ইস্টবেঙ্গলের রক্ষণভাগের ফুটবলারদের কৃতিত্ব রয়েছে। বল নিজেদের বক্স থেকে বার করতে গিয়ে পার্থিবের পায়ে তুলে দেন তাঁরা। বক্সের বাইরে থেকেই জোরালো শটে জালে বল জড়িয়ে দেন পার্থিব।

৩২ মিনিটের মাথায় আবার গোল খায় ইস্টবেঙ্গল। প্রথম গোলটি খাওয়ার পরেই আক্রমণে উঠেছিল ইস্টবেঙ্গল। নর্থইস্টের বক্সের মধ্যে তাদের এক ফুটবলারের হাত বল লাগে। হ্যান্ডবলের দাবি জানায় ইস্টবেঙ্গল। রেফারির দৃষ্টি আকর্ষণের চেষ্টা করেও ব্যস্থ হয় লাল-হলুদ। কিন্তু সেই সুযোগে নিজেদের অর্ধ থেকে বল নিয়ে দ্রুত প্রতি আক্রমণে ওঠে নর্থইস্ট। নিজেদের মধ্যে নিখুঁত পাস খেলে পৌঁছে যায় লাল-হলুদের বক্সে। সেখানে গোল করতে ভুল করেননি জিতিন এম এস।

লিগ টেবিলের নীচের দিকের দুই দলের মধ্যে ম্যাচ। জয়ের ঝাঁপাচ্ছিল দুই দলই। প্রথমার্ধের শেষ দিকে জেক জার্ভিসের একটি গোলে সমতা ফেরায় ইস্টবেঙ্গল। মহম্মদ রাকিপের থ্রো থেকে বল পান সুমিত পাসি। বক্সের মধ্যে জটলা তৈরি হয়। তার মধ্যে হেড করেন সুমিত। হাওয়ায় থাকা সেই বলে ঘুরে গিয়ে পা চালান জার্ভিস। সেই শটের জন্য প্রস্তুত ছিল না অরিন্দম। গোল খেয়ে যান তিনি। দ্বিতীয়ার্ধে পেনাল্টি থেকে গোল করে দলকে এগিয়েও দেন ক্লেটন। কিন্তু শেষ পর্যন্ত জয় এল না।

৮৫ মিনিটের মাথায় তৃতীয় গোল খায় ইস্টবেঙ্গল। এ বারেও লাল-হলুদের রক্ষণের ভুল। লালডানমাওয়াইয়া রালতে বলের দখল নিতে পারেননি। সেই সুযোগ কাজে লাগিয়ে গোল করে যান ইমরান খান। এর পরে আক্রমণের ঝাঁঝ আরও বাড়িয়ে দেয় নর্থইস্ট। একের পর এক আক্রমণ করতে থাকে তারা। সেই সময় লাল-হলুদ আরও একটি গোল খেতেই পারত। কিন্তু তা হয়নি। ৩-৩ গোলেই শেষ হয় খেলা।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE