Advertisement
০৬ অক্টোবর ২০২২
IPL 2022

IPL 2022: শুকনো অভিনন্দনে চলবে না, মিষ্টি চাই! কলকাতাকে বার্তা গুজরাতের

এ বার আইপিএলের প্লে-অফ পর্বে পৌঁছতে পারেনি কলকাতা। আর প্রথম বারেই চ্যাম্পিয়ন গুজরাত। কলকাতার দলে বাংলার কেউ না থাকলেও গুজরাতে রয়েছেন দু’জন।

প্রতীকী ছবি।

প্রতীকী ছবি।

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা শেষ আপডেট: ৩০ মে ২০২২ ১৬:১৩
Share: Save:

প্রথম বার খেলেই আইপিএল চ্যাম্পিয়ন হয়েছে গুজরাত টাইটান্স। রবিবার ফাইনালে রাজস্থান রয়্যালসকে হারানোর পর থেকেই অভিনন্দনের বন্যায় ভাসছে গুজরাত। হার্দিক পাণ্ড্যদের অভিনন্দন জানিয়ে টুইট করেছে দু’বারে চ্যাম্পিয়ন কলকাতা নাইট রাইডার্স। তার জবাবেই মিষ্টি চাইল গুজরাত।

অভিনন্দন জানিয়ে কলকাতার তরফে গুজরাতিতে লেখা হয়েছে, ‘কেম জলসা’। গুজরাতি ভাষায় জলসা শব্দ ব্যবহার করা হয় খুব খুশির মুহূর্ত, বিরাট আনন্দ বা সন্তুষ্টি বোঝাতে। কলকাতাও গুজরাতের কাছে জানতে চেয়েছে, কেমন আনন্দ করছ। উত্তরে মজা করে টুইট করেছে গুজরাতও। তারা লিখেছে, ‘‘শুধু টুইট করলে চলবে না। মিষ্টি চাই!’’ সঙ্গে রয়েছে হাসির ইমোজিও।

ইংরাজি হরফে এমন শুদ্ধ বাংলায় কে লিখলেন? অনুমান করা হচ্ছে ঋদ্ধিমান সাহা সাহায্য করেছেন গুজরাত ফ্র্যাঞ্চাইজির সংশ্লিষ্ট কর্মীদের। কারণ, বাঙালি রীতি অনুযায়ী কাউকে অভিনন্দন বা সংবর্ধনা জানানো হলে নানা উপহারের সঙ্গে মিষ্টি থাকবেই থাকবে। বাংলার মিষ্টির কদরও দেশ জুড়ে। বিশেষ করে রসগোল্লা, সন্দেশ বা মিষ্টি দই পছন্দ করেন ভিনরাজ্যের মানুষরাও।

গুজরাতের আবদারে কলকাতা মিষ্টি পাঠানোর কথা কিন্তু ভাবতেই পারে। কারণ নাইটদের সংসারে বাংলার কোনও ক্রিকেটারের জায়গা না হলেও, গুজরাতের সাফল্যে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রয়েছে দুই বঙ্গ ক্রিকেটার ঋদ্ধিমান এবং মহম্মদ শামির।

সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ

Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.