×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৮ জানুয়ারি ২০২১ ই-পেপার

আর এক বার প্রটোকল ভাঙলেই দেশ থেকে বহিষ্কার, পাক ক্রিকেটারদের চরম সতর্কবার্তা নিউজিল্যান্ডের

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা২৭ নভেম্বর ২০২০ ১৮:১৬
পাক ক্রিকেটাররা করোনা প্রোটোকল ভেঙেছেন, জানিয়েছে নিউজিল্যান্ড। ছবি টুইটার থেকে নেওয়া।

পাক ক্রিকেটাররা করোনা প্রোটোকল ভেঙেছেন, জানিয়েছে নিউজিল্যান্ড। ছবি টুইটার থেকে নেওয়া।

আর এক বার করোনা প্রটোকল ভাঙলেই দেশে ফেরত পাঠানো হবে পাকিস্তান ক্রিকেট দলকে। কড়া ভাষায় জানিয়ে দিল নিউজিল্যান্ড সরকার। দেওয়া হয়েছে চূড়ান্ত সতর্কবার্তা। আর তাই দলকে দেশের সম্মানের কথা ভেবে নিয়ম মেনে চলার নির্দেশ দিল পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড

নিউজিল্যান্ড সফরে আসা পাকিস্তানের ৬ ক্রিকেটারের করোনা পরীক্ষার ফল পজিটিভ এসেছে। নিউজিল্যান্ড সরকার পিসিবি-কে জানিয়েছে যে করোনা প্রটোকল ভাঙা হয়েছে ৩-৪ বার। আর একবারও যেন নিয়ম ভাঙা না হয়, সে দিকে খেয়াল রাখতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

ক্রিকেটারদের উদ্দেশে পাঠানো ভয়েস মেসেজে পিসিবি সিইও ওয়াসিম খান বলেছেন, “আমি নিউজিল্যান্ড সরকারের সঙ্গে কথা বলেছি। তারা জানিয়েছে, ৩-৪ বার ভাঙা হয়েছে প্রটোকল। এই ব্যাপারে জিরো টলারেন্স পলিসি রয়েছে ওদের। সরকারের তরফে আমাদের চূড়ান্ত সতর্কবার্তা দেওয়া হয়েছে। আমরা বুঝতে পারছি যে, তোমাদের কাছে এটা কঠিন সময়। ইংল্যান্ডেও তোমরা একই অবস্থার মধ্যে দিয়ে গিয়েছিলে।”

Advertisement

আরও পড়ুন: তিন ফর্ম্যাটেই ভারতকে হারাবে অস্ট্রেলিয়া, ভবিষ্যদ্বাণী ভনের​

আরও পড়ুন: ‘এ রকম ঘটনা কাম্য নয়, রোহিতকে তো ফোন করতে পারত বিরাট’​

এক ক্রিকেট ওয়েবসাইটে সেই ভয়েস মেসেজ প্রকাশিত হয়েছে। তাতে ওয়াসিম খান আরও বলেছেন, “ব্যাপারটা সহজ নয় বুঝতে পারছি। তবে এটা দেশের সম্মান ও বিশ্বাসযোগ্যতার ব্যাপার। এই ১৪ দিন নিয়ম মেনে চলো। তার পর রেস্তোরাঁয় যাওয়া বা ঘুরে বেড়ানোর স্বাধীনতা তোমরা পাবে। ওদের সরকারের তরফে আমাকে পরিষ্কার বলা হয়েছে যে যদি আমরা আর এক বারও নিয়মভঙ্গ করি, তবে দলকে দেশে ফেরত পাঠানো হবে।”

আর এমনটা হলে যে বিষয়টা খুবই লজ্জার হবে, তা মনে করিয়ে ওয়াসিম বলেছেন, “এটা জাতীয় স্বার্থের ব্যাপার। ওরা যদি আমাদের দলকে ফেরত পাঠিয়ে দেয়, তবে তা খুব লজ্জার হবে। আমি জানি এটা খুবই কঠিন। তবে তা হলেও শৃঙ্খলা মেনে চলো, প্রটোকল অনুসারে কাজ করো। আর কোনও ভুল করা চলবে না। স্বাস্থ্য ও নিরাপত্তা নিয়ে নিউজিল্যান্ড সরকার আপস করবে না। তাই দেশের স্বার্থে যা করা উচিত, সেটাই করো।”

Advertisement