Advertisement
২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪
Naushad Siddiqui

ধর্ষণের মামলায় নওশাদের রক্ষাকবচের মেয়াদ বাড়িয়ে দিল কলকাতা হাই কোর্ট

গত ১২ জুলাই বিধায়ক নওশাদকে তাঁর বিরুদ্ধে ওঠা ধর্ষণের অভিযোগের মামলায় রক্ষাকবচ দিয়েছিল হাই কোর্ট। বিচারপতি চিত্তরঞ্জন দাসের ডিভিশন বেঞ্চে এই মামলার শুনানি হয়েছিল।

image of naushad siddique

হাই কোর্টের রায়ে আপাতত স্বস্তিতে আইএসএফ বিধায়ক নওশাদ সিদ্দিকি। — ফাইল চিত্র।

আনন্দবাজার অনলাইন সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ১৮ জুলাই ২০২৩ ১৮:০৮
Share: Save:

ভাঙড়ের বিধায়ক নওশাদ সিদ্দিকির রক্ষাকবচের মেয়াদ বৃদ্ধি করা হল। আগামী ২৭ জুলাই পর্যন্ত ওই রক্ষাকবচ বৃদ্ধি করা হয়েছে। মঙ্গলবার এই নির্দেশ দিয়েছে কলকাতা হাই কোর্টের বিচারপতি চিত্তরঞ্জন দাসের ডিভিশন বেঞ্চ। অর্থাৎ, ২৭ জুলাইয়ের আগে পর্যন্ত নওশাদের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগেরর মামলায় কড়া পদক্ষেপ করতে পারবে না পুলিশ।

গত ১২ জুলাই ইন্ডিয়ান সেকুলার ফ্রন্ট (আইএসএফ)-এর বিধায়ক নওশাদকে তাঁর বিরুদ্ধে ওঠা ধর্ষণের অভিযোগের মামলায় রক্ষাকবচ দিয়েছিল হাই কোর্ট। বিচারপতি চিত্তরঞ্জন দাস এবং বিচারপতি অপূর্ব সিংহ রায়ের ডিভিশন বেঞ্চে এই মামলার শুনানি হয়েছিল। দু’পক্ষের সওয়াল-জবাব শোনার পর আদালত নওশাদকে রক্ষাকবচ দেওয়ার কথা জানিয়েছিল।

পঞ্চায়েত ভোটের তিন দিন আগে, ৫ জুলাই নিউ টাউন থানায় ফুরফুরা শরিফের পিরজাদা নওশাদের বিরুদ্ধে ধর্ষণ এবং বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে সহবাসের অভিযোগ দায়ের করেন এক তরুণী। তাঁকে ‘সহায়তা’ করেছিলেন সল্টলেক পুরসভার চেয়ারম্যান তথা তৃণমূলের তরফে ভাঙড়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত তৃণমূল নেতা সব্যসাচী দত্ত। ওই অভিযোগকে ‘ষড়যন্ত্র’ বলে দাবি করেন নওশাদ। পরে জানা যায়, ডোমকল শহরে তৃণমূলের সর্বশেষ যে কমিটি ঘোষিত হয়েছিল, তাতে মোট পাঁচ জনকে সাধারণ সম্পাদক করা হয়েছিল। তার চার নম্বরে নাম ছিল নওশাদের বিরুদ্ধে অভিযোগকারিণী তরুণীর। জানা গিয়েছে, দলের তরফে তিনি রেশন ডিলারদের সংগঠন এবং সেই সংক্রান্ত অন্যান্য বিষয় দেখভাল করতেন। তাঁর অভিযোগ, বিবি গাঙ্গুলি স্ট্রিটে নওশাদের অফিসে তাঁর সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন তিনি। সেখানে তখন তাঁকে ধর্ষণ করা হয়েছিল। তার পরে একাধিক বার বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে সহবাস করেন বলে দাবি তাঁর। অভিযোগকারিণী এবং তাঁর ভাই গিয়ে নিউ টাউন থানায় নওশাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন। সেই মামলাতেই নওশাদের রক্ষাকবচের মেয়াদ বৃদ্ধি করল কলকাতা হাই কোর্ট।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE