Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১ ই-পেপার

রাতবিরেতে হাতের কাছে অ্যাম্বুল্যান্স পরিষেবা দিতে অ্যাপ বানালেন সজল

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ০০:০২
 অ্যাপ বানালেন সিভিল ইঞ্জিনিয়র সজল

অ্যাপ বানালেন সিভিল ইঞ্জিনিয়র সজল

হঠাৎ বিপদে দ্রুততম অ্যাম্বুল্যান্স পরিষেবার জন্য নম্বর পাওয়া যাবে মোবাইলে। দেখে শুনে, দূরত্বের হিসেব করে বেছে নেওয়া যাবে দ্রুততম আর সুবিধাজনক সেই পরিষেবাও। এমন এক মোবাইল অ্যাপ্লিকেশন তৈরি করেছেন শহরের এক সিভিল ইঞ্জিনিয়ার সজলকুমার বসু।

মোবাইল বা ইন্টারনেটে নানা তথ্য থাকলেও বাড়ির কাছে অ্যাম্বুল্যান্স কোথায় পাওয়া যাবে দরকারের সময় সেই তথ্য কোথাও মেলে না। বিভিন্ন জায়গা থেকে অ্যাম্বুল্যান্সের ফোন নম্বর মিললেও রাতবিরেতে তা মিলবে কি না, তা-ও জানা যায় না। ফোন করে খবর নিতেও অনেক সময় পেরিয়ে যায়। সজল জানাচ্ছেন, হাতের কাছে এই অ্যাপ থাকলে আর যা-ই হোক অ্যাম্বুল্যান্স পাওয়া যায়নি বলে আফসোস করতে হবে না। সজলের কথায়, ‘‘হাসপাতালে পৌঁছলে চিকিৎসা মিলবে। কিন্তু রাতবিরেতে রোগীকে নিয়ে হাসপাতালে পৌঁছনোটাই একটা বড় চ্যালেঞ্জ হয়ে ওঠে। চোখের সামনে শুধু অ্যাম্বুল্যান্সের অভাবে এক জন রোগীকে মারা যেতে দেখেছিলাম।’’ সেই অভিজ্ঞতা থেকেই ‘লাইফ লিঙ্ক’ নামের ওই অ্যাপ্লিকেশন তৈরির কথা ভাবেন সজল।

ওই অ্যাপ গুগ‌্ল প্লে স্টোর থেকেই ডাউনলোড করা যাবে। লগ-ইন করে জিপিএস চালু করলে ব্যবহারকারীর লোকেশন অনুযায়ী তাঁর কাছেপিঠে থাকা বিভিন্ন অ্যাম্বুল্যান্সের সঙ্গে যোগাযোগের নম্বর মিলবে। সাধারণ অ্যাম্বুল্যান্স না হার্ট অ্যাটাকের বিশেষ অ্যাম্বুল্যান্স— প্রয়োজন অনুযায়ী বেছে নেওয়া যাবে অ্যাপ থেকেই। কলকাতা ছাড়াও আরও কয়েকটি শহরে এই অ্যাপের পরিষেবা মিলবে। সজল জানিয়েছেন, এর মধ্যেই কলকাতায় বহু অ্যাম্বুল্যান্স চালক ওই অ্যাপে নিজেদের নথিভুক্ত করেছেন। তবে প্রাথমিক ভাবে দক্ষিণ কলকাতায় অ্যাম্বুল্যান্সের সংখ্যা বেশি। উত্তর কলকাতা এবং শহরতলিতেও পরিষেবার ব্যবস্থা রয়েছে। তবে তা ধীরে ধীরে বাড়ানো হবে। সজলের মতে, বহু বৃদ্ধ দম্পতি রয়েছেন যাঁদের সন্তানেরা ভিন‌্ রাজ্যে বা বিদেশে থাকেন। তাঁদের ক্ষেত্রেও এই ধরনের অ্যাপ উপযোগী হবে

Advertisement

আরও পড়ুন

More from My Kolkata
Advertisement