Advertisement
১৫ জুলাই ২০২৪
KMC

শহরবাসীর সমস্যার দ্রুত সুরাহা করতে নতুন করে তৈরি হচ্ছে কলকাতা পুরসভার গ্রিভান্স সেল

আগামী ১৫ জুন থেকে নতুন সুযোগ সুবিধা-সহ পরিষেবা চালু হয়ে যাবে। নতুন এই পদ্ধতিতে কলকাতা পুরসভায় যে কোনও ধরনের অসুবিধার কথা সহজেই অনলাইনে জানানো যাবে।

Grievance Cell of Kolkata Municipal Corporation is being newly created to solve the problems of city dwellers

কলকাতা পুরসভা। —ফাইল চিত্র।

আনন্দবাজার অনলাইন সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ১০ জুন ২০২৪ ১৬:১৬
Share: Save:

শহরবাসীর সমস্যার দ্রুত সমাধান করতে ঢেলে সাজানো হচ্ছে কলকাতা পুরসভার ‘গ্রিভান্স রিড্রেসাল সিস্টেম’কে। পুরসভা সূত্রে খবর, সব ঠিকঠাক চললে আগামী ১৫ জুন থেকে নতুন সুযোগ সুবিধা-সহ পরিষেবা চালু হয়ে যাবে। নতুন এই পদ্ধতিতে কলকাতা পুরসভায় যে কোনও ধরনের অসুবিধার কথা সহজেই অনলাইনে জানানো যাবে। লোকসভা ভোটের অনেক আগে থেকেই এ বিষয়ে কাজ শুরু হয়েছিল। কিন্তু, আদর্শ আচরণবিধির কারণে তা শুরু করা যায়নি। ভোটপর্ব শেষ হয়ে যাওয়ার পরেই এ বিষয়ে উদ্যোগ শুরু হয়েছে পুর প্রশাসনে।

মেয়র ফিরহাদ হাকিমের সেক্রেটারিয়েটে সমস্যা গ্রহণ ও তার সমাধানের জন্য চার জন আধিকারিককে ইতিমধ্যে নিয়োগ করা হয়েছে। পূর্বঘোষিত দিন থেকে যাতে পুরোদমে এই পরিষেবা শুরু করা যায়, তাই মেয়রের হাতে থাকা বিভাগ-সহ ১৫টি বিভাগকে এই সেলের সঙ্গে যুক্ত করা হয়েছে। এখন থেকে কলকাতা পুরসভার এই গ্রিভান্স সেল দিনরাত খোলা থাকবে। যেখানে সমস্যার কথা জানা মাত্রই সমাধানের জন্য সংশ্লিষ্ট বিভাগকে জানিয়ে দেওয়া হবে। মেয়রের বিভাগে জমা পড়া অভিযোগ নেওয়ার জন্য ডেপুটি ম্যানেজার পদের এক জন আধিকারিককে নিয়োগ করা হবে।

কলকাতা পুরসভার এক আধিকারিক বলেন, ‘‘আগে গ্রিভান্স সেল কাজ করত ঠিকই। কিন্তু, তা ছড়িয়ে ছিটিয়ে ছিল। কিন্তু এ বার বিষয়টিকে এক সূত্রে বেঁধে ফেলা হচ্ছে। তাই কোনও সমস্যার কথা জানা মাত্রই যাতে সংশ্লিষ্ট বিভাগকে সজাগ করে দেওয়া যায়, সে ভাবেই নতুন প্রযুক্তি দিয়ে সব কিছু তৈরি হয়েছে।’’ পুরসভার তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগের এক আধিকারিকের কথায়, ‘‘কোনও সমস্যার সমাধান করতে প্রযুক্তি যে এতটা কাজে লাগতে পারে, তা আমাদের জানা ছিল না। কিন্তু, নতুন প্রযুক্তি দিয়ে গ্রিভান্স সেল তৈরির সময় আমরা তা বুঝতে পেরেছি। আশা করব, আমাদের এই নতুন প্রয়াসে অংশগ্রহণ করতে কলকাতাবাসীদের কোনও অসুবিধা হবে না।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE