×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২৮ জুলাই ২০২১ ই-পেপার

শরীরের নাম মহাশয়, মানছেন প্রার্থীরা

নিজস্ব প্রতিবেদন 
কৃষ্ণনগর ও রানাঘাট ০২ এপ্রিল ২০১৯ ০৬:৫৪

শান্তনু ঝা, সিপিএম

গরমের মধ্যে টানা প্রচার চলছে। রোদ গরমের মধ্যে এর আগেও নির্বাচনী প্রচার করেছেন। দলের নানা কর্মসূচিতেও অংশ নিয়েছেন। তাই আলাদা করে গরমের ব্যাপার ভাবাচ্ছে না। তবে এই রোদের মধ্যেই পথ হাঁটতে হচ্ছে। কখনও যোগ দিতে হচ্ছে র‍্যালিতে। মাঝে-মধ্যেই জল খেয়ে নিচ্ছেন প্রচারের ফাঁকে ফাঁকে। সঙ্গে অবশ্যই জল থাকছে। তবে প্রচারে বেরনো দলের কর্মীরাই জলের বোতল তুলে দিচ্ছেন হাতে। খাবারের ব্যাপারেও সতর্ক তিনি। সকাল, দুপুর, রাত— হালকা খাবারই খাচ্ছেন। কম মশলাদার খাবার খাচ্ছেন। হালকা পোশাক পড়ছেন। কখনও পাজামা পাঞ্জাবি, কখনও বা অন্য কিছু। তবে টুপি ব্যবহার করছেন না।

মহুয়া মৈত্র, তৃণমূল

Advertisement

ভোটে লড়াই এবারেই প্রথম নয়। প্রথম নয় রোদে-গরমে টানা কর্মসূচিও। তাই প্রচারের জন্য আলাদা করে বিশেষ ব্যবস্থা কিছু নেননি। রোদ আর গরমের মধ্যেই পায়ে হেঁটে চষে চলেছেন দীর্ঘ পথ। সঙ্গে চলছে কর্মিসভাও। এই সময়ে ছোলা, বাদাম, মুড়ি, ফল এই সবের উপরেই ভরসা রাখছেন। প্রচারে বেরিয়ে নিজের সঙ্গে সবসময়ে খাবার জল রাখছেন। ফল খাচ্ছেন সকালে। দুপুরে হালকা খাবার। বিকেলে ছোলা, বাদাম, মুড়ি। হালকা খাবারের উপরেই রয়েছেন মহুয়া। রোদের মধ্যে প্রচারে কখনও-সখনও ব্যবহার করছেন সানগ্লাস।

কল্যাণ চৌবে, বিজেপি

প্রাক্তন ফুটবলার। ভোটের ময়দানে প্রথম বারের জন্য নামলেও এই ধরনের রোদ-গরমে মাঠে ছোটাছুটি করা অভ্যাস আছে। তাই এটা নতুন কিছু নয়। পাল্লা দিয়ে পদযাত্রা এবং কর্মিসভা যেমন করছেন তেমনই গরমে প্রচারে বেরিয়ে বেশি করে খাচ্ছেন ডাবের জল। এমনিতেই নিরামিষ আর কম মশলাদার খাবার খান। ভোটের প্রচারেও তাঁর ব্যতিক্রম হয়নি। প্রচারে বেরোচ্ছেন সুতির সাদা রঙের পোশাক পরে। গলায় জড়িয়ে নিচ্ছেন একটা হালকা গামছা। কখনও ঘাম মুছে নিচ্ছেন তাতে। টুপি বা সানগ্লাস কিছুই ব্যবহার করছেন না।

দিল্লি দখলের লড়াই, লোকসভা নির্বাচন ২০১৯

ইনতাজ আলি শাহ, কংগ্রেস

রোদ আর গরমের মধ্যেই ভোটের প্রচার করতে হচ্ছে। চড়া রোদ থেকে বাঁচতে মাথায় থাকছে টুপি। জল খাচ্ছেন বেশি করে। প্রচারের মধ্যে খাবারের ব্যাপারেও যথেষ্ট সতর্ক ইনতাজ। হালকা খাবার খাচ্ছেন।। ভাত, ডাল, ভাজা, মাছ এই ধরনের খাবারের উপরেই আছেন। জলও থাকছে সঙ্গে। গরমের হাত থেকে শরীরকে সুস্থ রাখতে পরছেন হালকা পোশাক।

রমা বিশ্বাস, সিপিএম

নির্বাচনী প্রচার আগেও করেছেন।। অন্য বারের চেয়ে আলাদা কিছু নয়। দলের নানা কর্মসূচিতেও নিয়মিত যোগ দেন। কাজেই, সারা বছরই যা চলে এই সময়েও সেই ধরনের খাবারই খাচ্ছেন। কম মশলা দিয়ে হালকা খাবার। বেশির ভাগ সময়েই ডাল, ভাত আর আলুসেদ্ধ। যেমন রোদের মধ্যে পদযাত্রা করছেন, পাশাপাশি নানা কর্মিসভা এবং র‍্যালিও করছেন। তার ফাঁকেই প্রচারে বেরিয়ে বেশি করে জলপান করছেন। কখনও কখনও রোদের হাত থেকে বাঁচতে ব্যবহার করছেন টুপিও।

রূপালী বিশ্বাস, তৃণমূল

নির্বাচনের ময়দানে এবারেই প্রথম। রোদ-গরমের মধ্যেই কখনও টানা হেঁটে পদযাত্রা করতে হচ্ছে। আবার দুপুরের রোদেও র‍্যালি বা কর্মিসভায় যোগ দিচ্ছেন। তাই সঙ্গে সব সময়েই রাখছেন জল। এ ছাড়া শরীর ঠিক রাখতে হালকা খাবার খাচ্ছেন। ভাত, ডাল, তরকারির মতো খাবারেই বেশি স্বচ্ছন্দ তিনি। সঙ্গে সব সময়েই রাখছেন বিস্কুটের প্যাকেট। গরম থেকে বাঁচতে মুড়ি, শসা জাতীয় খাবার দিয়ে মাঝের টিফিন সারছেন।

মুকুটমণি অধিকারী, বিজেপি

নির্বাচনের লড়াইয়ে এবারই প্রথম। নিজে চিকিৎসক। গরমে শরীর ঠিক রাখার দিকে নজর দিচ্ছেন। প্রচারে অনেক জায়গায় পদযাত্রা যেমন করছেন, তেমনই ছোট ছোট কর্মিসভাও করছেন। করছেন র‍্যালিও। আর তাই শরীর ঠিক রাখতে হালকা খাবার এবং কম মশলাদার খাবারের দিকেই ঝুঁকেছেন। বেশি করে খাচ্ছেন ফল। আর সঙ্গে রাখছেন ওআরএস। গরমের হাত থেকে বাঁচতে পড়ছেন হালকা পোশাক।

মিনতি বিশ্বাস, কংগ্রেস

নির্বাচনী প্রচার আগেও করেছেন। রুটিন আলাদা কিছু নয়। এখন ছোট ছোট কর্মিসভার উপরেই জোর দিয়েছেন। পদযাত্রাও করেছেন। প্রচারে বেরিয়ে সঙ্গে সব সময় রাখছেন জল। এছাড়াও থাকছে বিস্কুটের প্যাকেট। ভাতের দিকে খুব একটা নজর নেই তাঁর। এই সময়ে রুটি আর তরকারিতেই স্বচ্ছন্দ মিনতি।

Advertisement